sponsor

sponsor

Slider

আন্তর্জাতিক

জাতীয়

খেলাধুলা

বিনোদন

ফিচার

যাবতীয় খবর

জিওগ্রাফিক্যাল

Facebook Like Box

» » » নেপাল মাতাবেন বাংলাদেশের গোলকিপার (ভিডিও)




নেপালের ‘এ’ ডিভিশন লিগ দল ফ্রেন্ডস ক্লাব। দেশটির রাজধানী কাঠমান্ডুর কোল ঘেঁষা লতিতপুরে অবস্থিত দলটি ১৯৭২ সালে নিজেদের যাত্রা শুরু করেছিল। ক্লাব কর্তৃপক্ষের দাবি, নেপাল জাতীয় ফুটবল দলে ক্লাবটি থেকে দুই শতাধিক খেলোয়াড় অংশ নিয়েছে। আগামী ২৯ তারিখ থেকে শুরু হচ্ছে নতুন মৌসুম। চলছে দলবদল। ফ্রেন্ডস ক্লাবে গোলকিপার হিসেবে নাম লেখিয়েছেন বাংলাদেশের মোহাম্মদ নুরুল করিম। চলতি সপ্তাহে চুক্তিও সেরে ফেলেছেন তরুণ এই গোলকিপার।

এটাই তার প্রথম নয়, এর আগেও নেপালি লিগে খেলার সুযোগ হয়েছিল। ২০১০ সালে সানকাটা বয়েজ ক্লাবে টানা ৯ ম্যাচ খেলেন নুরুল।ইনজুরির কারণে সেবার কপাল পুড়েছিল। ফুটবলারের সবচেয়ে বড় দুশমন যে ইনজুরি, আর সে কারণেই বাংলাদেশের বয়সভিত্তিক জাতীয় দল অনূর্ধ্ব-১৪, ১৬, ১৭, ১৯ ও ২১ এর হয়ে খেলেও মূল দলে সুযোগ হয়নি ২৬ বছর বয়সী এ গোলকিপারের।
২০০৬ সালে পাকিস্তানের বিপক্ষে অনূর্ধ্ব-১৪ দলের গোলকিপার হিসেবে আন্তর্জাতিক ফুটবলে যাত্রা শুরু হয়েছিল।তবে এখনও স্বপ্ন দেখেন বাংলাদেশ দলের জার্সিতে নেমে জাতীয় সঙ্গীত গাওয়ার। দলকে শিরোপা এনে দেয়ার। এমনটাই তিনি জানিয়েছেন আরটিভি অনলাইনকে।


চট্টগ্রাম ব্রাদার্স, ঢাকা আবাহনী, ঢাকা ব্রাদার্স, টিম বিজেএমসি, ফেনী সকার, ফকিরেরপুল ইয়ংমেন্স এবং ভিক্টোরিয়া মতো দলের গোল পোস্ট সামলিয়েছেন নুরুল। এবার লক্ষ্য নিজেকে ছাড়িয়ে যাওয়া। বেশ কিছু দিন ধরেই সুযোগ খুঁজছিলেন বিদেশি লিগে খেলার।
বাংলাদেশে ফিফা লাইসেন্স প্রাপ্ত একমাত্র প্রতিষ্ঠান ডিজাইর ফুটবল এজেন্সি হাত ধরে ডাক আসে নেপাল থেকে। ঐতিহ্যবাহী ফ্রেন্ডস ক্লাব থেকেও সম্মানজনক এক নম্বর জার্সিটিই তুলে দেয়া হয় তার কাছে। দলটি এক বছরের জন্য তাকে নিজেদের করে নিতে চাইলেও ৬ মাসের জন্য রাজি হন নুরুল। এবারের লক্ষ্য আরও বিশাল। পাড়ি জমাতে চান ইউরোপে। তিনি বলেন, সার্ভিয়া মন্টেনেগ্রো থেকে ট্রায়াল দেয়ার জন্য ডাক পড়েছিল। তবে সেখানকার তাপমাত্রা -১৫ সেলসিয়াস। আপাতত সেখানে মানিয়ে নেয়া সহজ হবে না।

«
Next
Newer Post
»
Previous
Older Post

No comments:

Leave a Reply