sponsor

sponsor

Slider

আন্তর্জাতিক

জাতীয়

খেলাধুলা

বিনোদন

ফিচার

যাবতীয় খবর

জিওগ্রাফিক্যাল

Facebook Like Box

» » ট্রাম্পের সঙ্গে সুখেই আছি : মেলানিয়া



নিজের বৈবাহিক জটিলতার গুঞ্জনকে গুজব বলে উড়িয়ে দিয়েছেন মার্কিন ফার্স্ট লেডি মেলানিয়া ট্রাম্প। মার্কিন সংবাদমাধ্যম এবিসি নিউজকে দেওয়া সাক্ষাৎকারে তিনি দাবি করেছেন, স্বামী ডোনাল্ড ট্রাম্পের সঙ্গে ভালো আছেন। মেলানিয়া স্পষ্ট করে বলেছেন, ট্রাম্পের বিবাহ বহির্ভূত সম্পর্ক তার ‘উদ্বেগ বা মনোযোগের’ বিষয় নয়, পালন করার মতো আরও অনেক জরুরি দায়িত্ব রয়েছে তাঁর।

ট্রাম্পের সঙ্গে তার সম্পর্ক নিয়ে সংবাদমাধ্যমের ধারণা ‘সুখকর’ নয় বলে মন্তব্য করেছেন মেলানিয়া। প্রেসিডেন্ট ট্রাম্পকে ভালোবাসেন কিনা এমন প্রশ্নের জবাবে তিনি বলেছেন, ‘হ্যাঁ, আমরা ভালো আছি’।

প্রেসিডেন্ট ট্রাম্প বিবাহ বহির্ভূত সম্পর্ক থাকার কথাও অস্বীকার করে আসলেও পর্ন তারকা স্টর্মি ড্যানিয়েলস ও সাবেক প্লেবয় মডেল কারেন ম্যাকডোগাল ট্রাম্পের সঙ্গে যৌন সম্পর্ক থাকার অভিযোগ করে আসছেন।

এসব অভিযোগ সামনে আসার পর মেলানিয়ার সঙ্গে ট্রাম্পের সম্পর্ক নিয়ে গণমাধ্যমে নেতিবাচক খবর প্রকাশিত হতে শুরু করে। গুঞ্জন ওঠে, তাদের সম্পর্ক অবনতির দিকে যাচ্ছে। গুঞ্জন উঠে আলাদা থাকছেন ট্রাম্প ও মেলানিয়া।

তবে এবিসিকে দেওয়া সাক্ষাৎকারে মেলানিয়া বলেন, তিনি তার স্বামীকে ভালোবাসেন আর তাদের সম্পর্ক নিয়ে সংবাদমাধ্যমের খবর সব সময় সঠিক নয়। কাটতি বাড়ানোর জন্য এসব আজগুবি খবর।

তিনি বলেন, এটা আমার উদ্বেগ বা মনোযোগের বিষয়বস্তু নয়। আমি একজন মা ও একজন ফার্স্টলেডি আর আমার আরও অনেক গুরুত্বপূর্ণ চিন্তা এবং করার মতো কাজ রয়েছে। আমি জানি কোনটা সঠিক এবং কোনটা সত্যি আর কোনটা সত্যি নয়।

মেলানিয়া বলেন, যেসব নারী যৌন নির্যাতনের অভিযোগ আনেন, তাঁদের অবশ্যই শক্ত প্রমাণ দেখানো দরকার।

প্রসঙ্গত, সাবেক প্লেবয় কারেন ম্যাকডোগাল দাবি করে আসছেন ট্রাম্পের সঙ্গে তার দশ মাস সম্পর্ক ছিল। ২০০৬ সালে এই সম্পর্ক শুরু হয়। সেই সময়ে তিনি মেলানিয়াকে বিয়ে করেছেন আর দ্য অ্যাপরেন্টিস নামে একটি টেলিভিশন শো উপস্থাপনা করতেন।

এই কথা শুধুমাত্র দ্য ন্যাশনাল এনকোয়ারারের কাছে প্রকাশ করতে ম্যাকডোগাল তাদের সঙ্গে দেড় লাখ মার্কিন ডলারের চুক্তি স্বাক্ষর করে। তার সেই স্বাক্ষ্য এখনও প্রকাশ পায়নি। তবে এপ্রিলে ট্যাবলয়েডটির প্রকাশকের সঙ্গে এই গল্প প্রকাশ করার বিষয়ে সমঝোতায় পৌঁছান।

স্টর্মি ড্যানিয়েলসের প্রকৃত নাম স্টিফেন ক্লিফোর্ড। তার অভিযোগ ক্যালিফোর্নিয়া ও নেভাদার মধ্যকার এক অবকাশ যাপন কেন্দ্র লেক তাহোয়ের একটি কক্ষে ২০০৬ সালে ট্রাম্পের সঙ্গে যৌন সম্পর্ক স্থাপন করেছিলেন তিনি। ওই ঘটনার পর তাদের সঙ্গে সম্পর্ক চলমান রয়েছে।

ড্যানিয়েলস অভিযোগ করেন ২০১৬ সালের নির্বাচনের আগে আইনজীবী মাইকেল কোহেনের মাধ্যমে তাকে এক লাখ ৩০ হাজার মার্কিন ডলার দেন ট্রাম্প। বিনিময়ে তাকে চুপ থাকতে বলেছিলেন তিনি। এই দুই নারীর অভিযোগই অস্বীকার করে আসছেন ট্রাম্প

«
Next
Newer Post
»
Previous
Older Post

No comments:

Leave a Reply