sponsor

sponsor

Slider

বিশ্ব

জাতীয়

রাজনীতি

খেলাধুলা

বিনোদন

ফিচার

যাবতীয় খবর

জিওগ্রাফিক্যাল

ফেসবুকে মুজিবনগর খবর

» » মেলবোর্ন জয়ে যেসব রেকর্ড গড়ল ভারত


অস্ট্রেলিয়াকে হারিয়ে মেলবোর্নে বক্সিং ডে-টেস্ট জিতে নিল ভারত। ৩৭ বছর পর মেলবোর্নের মাটিতে অস্ট্রেলিয়াকে পর্যুদস্ত করা ছাড়াও বেশ কয়েকটি রেকর্ডও অর্জন করেছেন ভারত। সেগুলি কী, দেখে নেওয়া যাক।

ময়াঙ্ক আগরওয়াল অভিষেক টেস্টেই গড়লেন রেকর্ড। ওপেনার হিসাবে জায়গাটাও পাকা করে নিলেন বলা যায়।

অস্ট্রেলিয়ার মাটিতে অভিষেকে কোনও ভারতীয়ের সবচেয়ে বেশি রানের (৭৬) রেকর্ড গড়লেন তিনি। ভাঙলেন ৭১ বছরের পুরনো রেকর্ড।

অস্ট্রেলিয়াকে হারিয়ে এই টেস্ট জয়ের পর সৌরভ গঙ্গোপাধ্যায়ের রেকর্ড স্পর্শ করলেন বিরাট কোহালি।

অধিনায়ক হিসাবে ১১টি অ্যাওয়ে ম্যাচ জেতার সুবাদে এল এই রেকর্ড। ২৪ ম্যাচ খেলেই কোহালি এই রেকর্ড ছুঁলেন। সৌরভ এই রেকর্ড গড়েছিলেন ২৮টি ম্যাচে অধিনায়কত্বের পর।

ঋষভ পন্থও এই টেস্টে রেকর্ড গড়লেন। ভারতের হয়ে টেস্ট সিরিজে সবচেয়ে বেশি শিকারের রেকর্ডটি এখন এই উইকেটকিপারের দখলে। এখনও পর্যন্ত ২০টি শিকারের সঙ্গে রয়েছে পন্থের নাম।

এর আগে ১৯৫৪-১৯৫৫ সালে নরেন তামহানে, ১৯৭৯-৮০ সালে সৈয়দ কিরমানির দখলে ছিল এই রেকর্ড। তাদের দু’জনেরই ১৯টি করে শিকার ছিল পাকিস্তানের বিরুদ্ধে। পন্থ ভাঙলেন সেই রেকর্ড দুটি।

যশপ্রীত বুমরার তীব্র গতি ভুগিয়েছে অস্ট্রেলীয়দের। টেস্ট অভিষেকের পর মাত্র ৯টি ম্যাচেই ৪৮ উইকেট নিয়ে ফেলেছেন তিনি। ১৯৭৯ সালে প্রথম বার টেস্ট খেলতে নেমে এক বছরে ৪০ উইকেট নিয়েছিলেন দিলীপ দোশি। সেই রেকর্ড ভাঙলেন গুজরাতের পেসার।

এ ছাড়াও অস্ট্রেলিয়ার মাটিতে এক টেস্টে সবচেয়ে বেশি আট উইকেট দখলের রেকর্ড ছিল কপিল দেব ও অজিত আগরকরের। বুমরার হাত ধরেই এই প্রথম নয় উইকেট পেলেন কোনও ভারতীয়।

টসে জিতে আজ পর্যন্ত কোহালির নেতৃত্বে ভারতীয় দল পরাজিত হয়নি। এটাকেও এক অর্থে রেকর্ড বলা যায় বই কী!

২০১৮ সালে বিদেশের মাটিতে ৪৪৩ রানই কোনও দলের বিরুদ্ধে ভারতীয় দলের সর্বোচ্চ রান।

মেলবোর্নে সবচেয়ে বেশি ক্ষণ ব্যাট করার রেকর্ড করল ভারত। ১৬৯.৪ ওভার ব্যাট করে ৩৫ বছরের পুরনো রেকর্ড ভাঙল ভারত।

চেতেশ্বর পূজারা ও বিরাট কোহালি তৃতীয় উইকেট পার্টনারশিপে ১৭০ রান করেন এই ম্যাচে। এর আগে মেলবোর্নে ১৯৪৬-১৯৪৭ সালে ব্র্যাডম্যান-হ্যাসেট তৃতীয় উইকেটে যোগ করেছিলেন ১৬৯ রান। মেলবোর্নে এই দুই দেশের লড়াইয়ে এত দিন এটাই ছিল রেকর্ড। 

«
Next
Newer Post
»
Previous
Older Post

No comments:

Leave a Reply