sponsor

sponsor

Slider

বিশ্ব

জাতীয়

রাজনীতি

খেলাধুলা

বিনোদন

ফিচার

যাবতীয় খবর

জিওগ্রাফিক্যাল

ফেসবুকে মুজিবনগর খবর

» » » বাইডেনের জন্য চিঠিতে কী লিখে গেছেন ট্রাম্প?




বাইডেনের জন্য চিঠিতে কী লিখে গেছেন ট্রাম্প?

সদ্য সাবেক হওয়া মার্কিন প্রেসিডেন্ট ডোনাল্ড ট্রাম্প, নতুন দায়িত্ব নেয়া প্রেসিডেন্ট জো বাইডেনকে কী লেখেছিলেন চিঠিতে? নিয়ম অনুযায়ী হোয়াইট হাউজ ছাড়ার আগে বাইডেনের জন্য চিঠি রেখে যান ট্রাম্প। তাতে কি সত্যিই লেখা ছিল, 'জো, তুমি জানো আমি জয়ী হয়েছি'? নির্বাচনে প্রতিদ্বন্দ্বিতা করতে হবে জানার পর থেকে জো বাইডেনের বিষয়ে একটিও ভালো কথা বলেননি ডোনাল্ড ট্রাম্প। বৃদ্ধ, মস্তিষ্ক বিকৃত, ঘুমন্ত জো এমনকি অর্ধমৃত পর্যন্ত বলেছেন। পদে পদে করেছেন উপহাস। বর্ষিয়ান ডেমোক্র্যাট নেতাকেই শুধু নয়, তার পরিবারের সদস্যদেরও আক্রমণ করতে ছাড়েননি রিপাবলিকান ট্রাম্প। তবে শেষ পর্যন্ত নির্বাচনে পরাজিত হয়ে, নতুন প্রেসিডেন্টের অভিষেক অনুষ্ঠানে পর্যন্ত ছিলেন না। তবে, নিয়ম মেনে ঠিকই পরবর্তী প্রেসিডেন্টের জন্য চিঠি রেখে গেছেন ট্রাম্প। ওভাল অফিস ছাড়ার সময় উত্তরসূরির জন্য যে চিঠি রেখে গেছেন, তাতে কী লেখা? এ নিয়ে এখন চলছে জল্পনা কল্পনা। বেশ কয়েকটি গণমাধ্যমে প্রকাশিত সংবাদে বলা হয়েছে, সেই চিঠিতে বাইডেনের উদ্দেশে ট্রাম্প লেখেছেন, 'জো, তুমি জানো আমি জয়ী হয়েছি।' যদিও ওই চিঠি সম্পর্কে এখনও প্রেসিডেন্ট বাইডেন বিস্তারিত কিছু বলেননি। বিষয়টি সত্য কিনা তা নিয়েও রয়েছে ধোঁয়াশা। অবশ্য ৭৮ বছর বয়সী জো বাইডেন স্বীকার করেছেন, ট্রাম্প তার জন্য লেখা চিঠিতে ভালো কিছুই লিখেছেন। কিন্তু সেই ভালো কিছু যে কি, তা নিয়েই রয়েছে যত কানাঘুষা। নতুন প্রশাসন এ নিয়ে মুখ খুলছে না। তবে বিশ্লেষকদের ধারণা, ট্রাম্প কখনো বাইডেনের জয় মেনে নিতে পারেননি, তাই চিঠিতে ইতিবাচক কিছু থাকার সম্ভাবনা কম। এদিকে, ক্ষমতা গ্রহণের পর একের পর এক নির্বাহী আদেশে সই করে চলেছেন বাইডেন। এদিন করোনায় বিপর্যস্ত মার্কিন অর্থনীতি ঢেলে সাজাতে নতুন পরিকল্পনার কথা জানান তিনি। এসময় অভ্যন্তরীন সন্ত্রাসবাদ থেকে হোয়াইট হাউজকে রক্ষার ঘোষণাও দেন নতুন এ মার্কিন প্রেসিডেন্ট। শপথ গ্রহণের আগে ন্যাশগার্ড সদস্যদের ক্যাপিটল হিলের মেঝেতে শুয়ে থাকার জন্য এদিন যুক্তরাষ্ট্রের সাধারণ মানুষের কাছে ক্ষমা চান বাইডেন। এদিকে, ট্রাম্পের অভিশংসনের বিষয়ে সিনেটের শুনানি পিছিয়ে পরবর্তী সপ্তাহে শুরুর কথা জানিয়েছেন ডেমোক্র্যাট সিনেটররা






«
Next
Newer Post
»
Previous
Older Post

No comments:

Leave a Reply