Sponsor



Slider

বিশ্ব

জাতীয়

রাজনীতি


খেলাধুলা

বিনোদন

ফিচার


যাবতীয় খবর

জিওগ্রাফিক্যাল

ফেসবুকে মুজিবনগর খবর

» » » » » ঠিক মত খাওয়া দাওয়া করেননি, কফির পর কফি খাচ্ছিলেন উদ্বিগ্ন বাবা Shahrukh'




এবিষয়েই সংবাদ-মাধ্যমের কাছে মুখ খুলেছেন আরিয়ান খানের আইনজীবী ভারতের প্রাক্তন অ্যাটর্নি জেনারেল মুকুল রোহাতগি নিজস্ব প্রতিবেদন : তিনি সুপারস্টার। শাহরুখ খান (Shahrukh Khan), এই নামেই তাঁকে চেনে গোটা বিশ্ব। তবে এসবের পাশাপাশি তিনি একজন বাবা। আর পাঁচজন সাধারণ বাবার মতোই ছেলের বিপদে তাঁর দুশ্চিন্তা হয়, মন কেঁদে ওঠে। হ্যাঁ, ঠিক তাই। টানা ২৫টা দিন দুশ্চিন্তার মধ্যেই কেটেছে কিং খানের। ছেলের জামিন না পাওয়া পর্যন্ত ঠিক কীভাবে কাটিয়েছেন বলিউড বাদশা? সম্প্রতি এবিষয়েই সংবাদ-মাধ্যমের কাছে মুখ খুলেছেন আরিয়ান খানের আইনজীবী ভারতের প্রাক্তন অ্যাটর্নি জেনারেল মুকুল রোহাতগি ( Mr Rohatgi)। সম্প্রতি, মুকুল রোহাতগি ( Mr Rohatgi) জানিয়েছেন, ''আমি ৩-৪দিন ওঁর (শাহরুখ) সঙ্গেই ছিলাম। উনি ঠিক করে খাওয়া দাওয়া করেন নি। দেখতাম, কফির পর কফি খাচ্ছেন, খুবই চিন্তার মধ্যে কাটিয়েছেন। ছেলের জামিন পাওয়ার খবর পেতেই ওঁর মুখে স্বস্তির ছাপ দেখেছি।'' প্রসঙ্গত, ছেলের জামিন পাওয়ার খবর পেয়ে নাকি কেঁদে ফেলেন শাহরুখ (Shahrukh Khan)। আরও পড়ুন-পরিবার আর্থিক সাহায্য করবেন, কয়েকজন জেলের কয়েদির প্রতিশ্রুতি Aryan Khan-র প্রসঙ্গত, গত ৮ অক্টোবর থেকে আর্থার রোড জেলই ছিল আরিয়ান খানে(Aryan Khan)র ঠিকানা। জানা যায়, জেলে থাকাকালীন কোনওভাবেই VIP ট্রিটমেন্ট পাননি আরিয়ান। অন্য বন্দিদের মতোই আচরণ করা হয়েছে তাঁর সঙ্গে। জেলের খাবারই খেতে হয়েছে তাঁকে। এদিকে আরিয়ান খানের মুক্তির খবর পাওয়া মাত্রই শাহরুখ (Shahrukh Khan)কে ফোন করেন সলমন খান (Salman Khan), অক্ষয় কুমার (Akshay Kumar) সুনীল শেট্টি সহ আরও অনেকেই। খান পরিবারের ঘনিষ্ঠ মহল সূত্রে জানা যাচ্ছে, ছেলের বাড়ি ফেরার খবর শুনে হাঁটু মুড়ে, হাত জোড় করে মাটিতে বসে পড়েন গৌরী (Gauri Khan)। ঈশ্বরকে ধন্যবাদ জানাতে জানাতে হাউ হাউ করে কেঁদে ফেলেন তিনি। সেসময় তাঁর বি-টাউনের দুই কাছের বন্ধু সীমা খান (সোহেল খানের স্ত্রী) ও মাহিপ কাপুর(সঞ্জয় কাপুরের স্ত্রী)কে ফোন করেন তিনি। তাঁদের ফোন করেই অবিরত কাঁদতে থাকেন গৌরী। জানা যায়, ছেলে বাড়ি না ফের পর্যন্ত মন্নতে কোনও মিষ্টি তৈরি হবে না। এর আগে নবরাত্রির সময় বাড়ির কর্মীদের এমনই নির্দেশ দিয়েছিলেন শাহরুখ পত্নী। অবশেষে দীপাবলির আগেই বাড়ি ফিরছে ছেলে, এখবরেই স্বস্তির হাওয়া গোটা মন্নত জুড়ে।






«
Next
Newer Post
»
Previous
Older Post

No comments:

Leave a Reply