Sponsor



Slider

বিশ্ব

জাতীয়

রাজনীতি


খেলাধুলা

বিনোদন

ফিচার


যাবতীয় খবর

জিওগ্রাফিক্যাল

ফেসবুকে মুজিবনগর খবর

» » » » বেছে বেছে বৃদ্ধাদের খুন করত এই নারী কুস্তিগির




মেক্সিকোতে অন্তত ১১ জন বৃদ্ধাকে খুন করার দায়ে নারী সিরিয়াল কিলারের ৭৫৯ বছরের কারাদণ্ড দিয়েছেন আদালত। বলা হয় আরও বহু খুন করেছিলেন তিনি, যেগুলো আদালতে প্রমাণ করা সম্ভব হয়নি। মেক্সিকো সিটিতে ২০০৫ সালে তুমুল আলোড়ন সৃষ্টি করে একের পর এক খুনের ঘটনা। রাজধানীতে খুন হতে থাকেন বয়স্ক নারীরা। নারীদের মধ্যে ছড়িয়ে পড়ে আতঙ্ক। খুনের ঘটনাগুলো ঘটছিল সাত বছর ধরে। প্রত্যেক নারীকে তাদের বাসায় একই কায়দায় খুন করা হচ্ছিল। মেক্সিকো সিটির উত্তরের এক গ্রামে জন্ম হয় হুয়ানার। লুৎজা লিব্রে নামে এক জনপ্রিয় ধারার কুস্তি তার পছন্দ ছিল -যেখানে কুস্তিগিররা লড়াই করেন মুখোশে মুখ ঢেকে। কুস্তিখেলার মঞ্চে তার পেশাদারি নাম ছিল 'নীরব নারী'। হুয়ানা বারায্যা নামে দুর্ধর্ষ এই সিরিয়াল খুনি ছিল মেক্সিকোর একজন পেশাদার নারী কুস্তিগির। হুয়ানা মেক্সিকোয় পরিচিত হয়ে উঠেছিল 'ম্যাটাবিহিতাস অর্থাৎ 'বৃদ্ধা নারী ঘাতক' নামে। মেক্সিকো সিটির এক আদালতে ২০০৮ সালের ৩১ মার্চ অন্তত ১১ জন বৃদ্ধাকে খুন করার দায়ে দোষী সাব্যস্ত হয় হুয়ানা বারায্যা। কৌঁসুলিরা তার বিরুদ্ধে ৪০টির বেশি খুনের অভিযোগে মামলা দায়ের করেছিলেন, কিন্তু সাক্ষ্যপ্রমাণের অভাবে ১১টির বেশি মামলায় তারা তাকে দোষী প্রমাণ করতে পারেননি। জানা যায়, হুয়ানা জেলখানায় বসে যখন তার পরিবারের কথা বলেছে তখন তার মধ্যে কোনো আবেগ ছিল না। তার গলার স্বর ছিল একেবারে ঠাণ্ডা। হুয়ানা কিছুটা হাসতে হাসতে তার পরিবারের কথা বলছিল। বলেছিল তার মদ্যপ মা কীভাবে তাকে নির্যাতন করতেন, কীভাবে মদের বিনিময়ে তাকে একজন পুরুষের হাতে তুলে দিয়েছিলেন। ওই পুরুষ তাকে অন্তঃসত্ত্বা করেছিল।






«
Next
Newer Post
»
Previous
Older Post

No comments:

Leave a Reply