sponsor

sponsor

Slider

আন্তর্জাতিক

জাতীয়

খেলাধুলা

বিনোদন

ফিচার

যাবতীয় খবর

জিওগ্রাফিক্যাল

Facebook Like Box

» » চাপ নিতে চাচ্ছেন না আরিফুল


সিলেটে সিরিজের প্রথম টেস্ট হেরে এরইমধ্যে সিরিজ খুইয়েছে বাংলাদেশ। ১-০ ম্যাচে এগিয়ে থাকা জিম্বাবুয়ের এখন সিরিজ জয়ের পালা। বাংলাদেশের সামনে এখন চাপ টা আরও বেশি। ড্র করলে সিরিজ হার ১-০ তে। ঢাকা টেস্ট জিতলে ড্র হবে সিরিজ।
দুই ম্যাচ সিরিজের প্রথম টেস্টে চেনা জিম্বাবুয়ের অচেনা রূপ দেখেছে টাইগাররা। ওয়ানডে সিরিজে ৩-০ ম্যাচে জয়ের মানসিকতাও কোনও কাজে আসেনি স্টিভ রোডসের শিষ্যদের। চতুর্থ দিনে মেনে নিতে হয়েছে পরাজয়।
ম্যাচ হারের পর বাংলাদেশ অধিনায়ক অবশ্য ঘুরে দাঁড়ানোর কথা শুনিয়েছিলেন সংবাদ সম্মেলনে। ঢাকা টেস্টে তাই মাহমুদুল্লাহ রিয়াদের নতুন রণকৌশল দেখার আশা করতেই পারে টাইগার সমর্থকরা।
ঢাকা এসে আবারও পুরো দমে অনুশীলনে নেমেছে বাংলাদেশ দল। ইঙ্গিত পাওয়া গেছে দলে একাধিক পরিবর্তন আসার ব্যাপারেও।
প্রথম ম্যাচে অভিষেক হয়েছিল স্পিনার নাজমুল ইসলাম অপু আর অলরাউন্ডার আরিফুল হকের।
আরিফুলের নামের পাশে অলরাউন্ডারের তকমা দেয়া দেয়া থাকলেও বোলিং করানো হয়েছিল প্রথম ইনিংসে। তাও মাত্র ৪ ওভার!
বল হাতে নিজেকে প্রমাণ করার সুযোগ না পেলেও ব্যাট হাতে যতটুক পেরেছেন নিজের সামর্থ্যের প্রমাণ দিয়েছেন আরিফুল।
প্রথম ইনিংসে দলের বিপর্যয়েও খেলেছিলেন ৪১ রানের ইনিংস। যা প্রথম ইনিংসে একক সর্বোচ্চ রান ছিল। দ্বিতীয় ইনিংসেও করেছিলেন ৩৮ রান। এসব বিবেচনায় ঢাকা টেস্টে তার দলে টিকে যাওয়াটা বলা যায় নিশ্চিত।
আজ শুক্রবার মিরপুরের একাডেমি মাঠে রোডসের তত্ত্বাবধানে বেশ কিছুক্ষণ ঘাম ঝরিয়েছেন ব্যাটে-বলে।
অনুশীলন শেষে কথা বলেন গণমাধ্যমের সঙ্গে। গত ম্যাচে হারলেও ভুলে যেতে চাইছেন সে ম্যাচের কথা।
আরিফুল বলেন, গত ম্যাচটা ভুলে যেতে চাচ্ছি। ওই ম্যাচ নিয়ে চিন্তা করলে সামনের ম্যাচেও চাপ পড়বে। সবাই শেষ ম্যাচটা নিয়েই পরিকল্পনা সাজাচ্ছে। মনযোগ সেদিকেই রাখছি।
গত ম্যাচে হারের কারণ হিসেবে টেনে আনেন দলে মুস্তাফিজের না থাকাটা।
‘গত ম্যাচে আমাদের মূল বোলার মুস্তাফিজ ছিল না। আশা করছি সে শেষ টেস্টে দলে ফিরবে।ও দলে ফিরলে শক্তির দিক থেকে অনেক এগিয়ে থাকব আমরা। এই ম্যাচটা আমাদের জিততেই হবে।

«
Next
Newer Post
»
Previous
Older Post

No comments:

Leave a Reply