sponsor

sponsor

Slider

বিশ্ব

জাতীয়

রাজনীতি

খেলাধুলা

বিনোদন

ফিচার

যাবতীয় খবর

জিওগ্রাফিক্যাল

ফেসবুকে মুজিবনগর খবর

» » » » ২৪ ঘণ্টায় বিশ্বে কমেছে আক্রান্ত ও মৃতের সংখ্যা




২৪ ঘণ্টায় বিশ্বে কমেছে আক্রান্ত ও মৃতের সংখ্যা

যতই দিন যাচ্ছে ততই ব্যাপকতা ছড়িয়ে দিচ্ছে প্রাণঘাতী করোনা ভাইরাস বা কোভিড-১৯। ভয়াল রূপ ধারণ করছে দিন দিন। বাড়ছে আক্রান্তের সংখ্যা, লম্বা হচ্ছে মৃতের তালিকাও। তবে আগের দিনের চেয়ে গতকাল কমেছে করোনায় আক্রান্ত ও মৃতের সংখ্যা। গত ২৪ ঘণ্টায় বিশ্বে ২ লাখ ৩৩ হাজার ২৪৮ জন মানুষের দেহে করোনা ভাইরাস শনাক্ত হয়েছে যা এর আগের ২৪ ঘণ্টার চেয়ে ৮ হাজার কম। বিশ্বের ১১৩টি দেশ ও অঞ্চলে ছড়িয়ে পড়া এ ভাইরাসে আক্রান্তের সংখ্যা ১ কোটি ৪৪ লাখ ছাড়িয়ে গেছে। গত ২৪ ঘণ্টায় মারা গেছেন ৫ হাজার ৪৮২ জন যা এর আগের ২৪ ঘণ্টায় ছিল ৭ হাজার ৩৭৯ জন। মোট মৃতের সংখ্যা ৬ লাখ ৪ হাজার ৮২৩।

জরিপ সংস্থা ওয়ার্ল্ডোমিটারের নিয়মিত পরিসংখ্যানে (রোববার বাংলাদেশ সময় সকাল আটটা) জানানো হয়েছে, গত একদিনে বিশ্বের ২ লাখ ৩৩ হাজার ২৪৮ জন নতুন আক্রন্ত হয়েছেন। যা এর আগের ২৪ ঘণ্টার চেয়ে ৮ হাজার কম। এতে করে আক্রান্তের সংখ্যা বেড়ে ১ কোটি ৪৪ লাখ ২২ হাজার ৪৭১ জনে দাঁড়িয়েছে। মোট সুস্থ হওয়ার সংখ্যা ৮৬ লাখ ১১ হাজার ৬৫৭ জন। 

যুক্তরাষ্ট্র, ব্রাজিল, ভারত ও দক্ষিণ আফ্রিকায় সংক্রমণের তীব্রতা বেড়েছে। বিশেষজ্ঞরা বলছেন, এই দেশগুলোতে সংক্রমণ এখনও চূড়ায় পৌঁছেনি। অর্থাৎ এই চারটি দেশে আগামীতে আরও ভয়ঙ্কর রূপ নিতে যাচ্ছে করোনা। এর মধ্যে ইউরোপের কয়েকটি দেশ ও উৎপত্তিস্থল চীনে ভাইরাসটি নিয়ন্ত্রণে রয়েছে। তবে দেশগুলো স্বাভাবিক অবস্থায় ফিরলেও পুরোপুরি করোনা মুক্ত হচ্ছে না। এখনও প্রতিদিনই কমবেশি সংক্রমণ ও প্রাণহানির ঘটনা ঘটছে। 

এদিকে যুক্তরাষ্ট্রে মোট শনাক্ত ৩৮ লাখ ছাড়িয়েছে। শনাক্তের তালিকায় দ্বিতীয় অবস্থানে থাকা ব্রাজিলে আক্রান্তের সংখ্যা প্রায় ২১ লাখ। দেশটিতে মোট মৃত্যু ৭৮ হাজার ৮১৭ জনের। ব্রাজিলে গত ২৪ ঘণ্টায় আক্রান্ত হয়েছেন ২৬ হাজার ৫৪৯ জন। এর আগের ২৪ ঘণ্টায় আক্রান্ত হয়েছিলেন ৪৩ হাজার ৮২৫ জন। গত ২৪ ঘণ্টায় মারা গেছেন ৮৮৫ জন। যা আগের দিনের তুলনায় প্রায় ৫০০ কম। দেশটিতে মোট রোগীর সংখ্যা ২০ লাখ ৭৫ হাজার ২৪৬ জন, মৃত্যু হয়েছে ৭৮ হাজার ৮১৭ জনের।

বিশ্ব তালিকায় শীর্ষে থাকা যুক্তরাষ্ট্রে আক্রান্ত ও মৃত্যুর সংখ্যা বেড়েছে। গত ২৪ ঘণ্টায় নতুন করে ৬৩ হাজারের বেশি শনাক্ত হয়েছেন। এ পর্যন্ত মারা গেছে ১ লাখ ৪২ হাজার ৮৭৭ জন মানুষে। দেশটিতে মোট রোগীর সংখ্যা ৩৮ লাখ ৩৩ হাজার ২৭১ জন। 

তৃতীয় স্থানে থাকা ভারতে গত ২৪ ঘণ্টায় রেকর্ড ৩৭ হাজার ৪০৭ জন আক্রান্ত হয়েছেন। মারা গেছেন ৫৪৩ জনের। এ নিয়ে দেশটিতে শনাক্তের সংখ্যা ১০ লাখ ৭৭ হাজারের বেশি। একদিনে আরও ৫৪৩ জনসহ মোট মৃত্যু সাড়ে ২৬ হাজার ৮২৮ ছাড়িয়েছে।  

রাশিয়ায় সংক্রমিতের সংখ্যা ৭ লাখ ৬৫ হাজার ৪৩৭ জন। বিশ্বের সবচেয়ে বড় দেশটিতে এখন পর্যন্ত প্রায় ১২ হাজার ২৪৭ জন মানুষের মৃত্যু হয়েছে। লাতিন আমেরিকার দেশ পেরুতেও আক্রান্ত ৩ লাখ ৪৯ হাজার ৫০০ জনের। যেখানে মৃতের সংখ্যা ১২ হাজার ৯৯৮ জন।  

সংক্রমণে যুক্তরাজ্য, স্পেনের পর মেক্সিকোকেও ছাড়িয়ে গেছে দক্ষিণ আফ্রিকা। যেখানে করোনায় আক্রান্ত হয়েছেণ ৩ লাখ ৪৯ হাজার ৫০০ জন। এর মধ্যে মৃত্যু হয়েছে ৪ হাজার ৯৪৮ জনের। চিলিতেও সংক্রমণ ৩ লাখ ২৮ হাজার ৮৪৬ জন। এর মধ্যে ৮ হাজার ৪৪৫ জনের প্রাণ কেড়েছে করোনা। মেক্সিকোয় আক্রান্ত ৩ লাখ ৩৮ হাজার ৯১৩ জন। প্রাণ গেছে ৩৮ হাজার ৮৮৮ জনের। নিয়ন্ত্রণে আসা স্পেনে আক্রান্ত ৩ লাখ ৭ হাজার ৩৩৫ জন। মারা গেছেন ২৮ হাজার ৪২০ জন। 

যুক্তরাজ্যে সংক্রমিতের সংখ্যা ২ লাখ ৯৪ হাজার ৬৬ জন। যেখানে মৃত্যু হয়েছে ৪৫ হাজার ২৭৩ জনের। ইতালিতে ২ লাখ ৪৪ হাজার ২১৬ জন। এর মধ্যে পৃথিবী ছেড়েছেন ৩৫ হাজার ৪২ জন। জার্মানিতে করোনা রোগীর সংখ্যা ২ লাখ ২ হাজার ৫৭২ জন। এর মধ্যে মৃত্যু হয়েছে ৯ হাজার ১৬২ জনের। তুরস্কে করোনার ভুক্তভোগী ২ লাখ প্রায় ১৮ হাজার ৭১৭ জন। সেখানে প্রাণহানি ঘটেছে ৫ হাজার ৪৭৫ জনের। 

মধ্যপ্রাচ্যের ইসলামী প্রজাতান্ত্রিক দেশ ইরানে করোনার শিকার ২ লাখ ৭১ হাজার ৬০৬ জন। প্রাণহানি ঘটেছে ১৩ হাজার ৯৭৯ জনের। সৌদি আরবে এখন পর্যন্ত করোনা রোগীর সংখ্যা ২ লাখ ৪৮ হাজার ৪১৬ জন। এর মধ্যে প্রাণ হারিয়েছেন ২ হাজার ৪৪৭ জন। দক্ষিণ এশিয়ার দেশ পাকিস্তানে করোনার শিকার ২ লাখ ৬১ হাজার ৯১৬ কাছাকাছি। মৃত্যু হয়েছে ৫ হাজার ৫২২ জনের। 

এদিকে গতকাল শনিবার দুপুরে বাংলাদেশের স্বাস্থ্য অধিদপ্তরের দেয়া তথ্যে, দেশে আক্রান্ত ২ লাখ ২ হাজার ৬৬ জন। মৃতের সংখ্যা দাঁড়িয়েছে ২ হাজার ৫৮১ জনে। 

উল্লেখ্য, গত ১১ মার্চ করোনাভাইরাস সংকটকে মহামারি ঘোষণা করে বিশ্ব স্বাস্থ্য সংস্থা (ডব্লিউএইচও)। এর আগে গেল বছরের ডিসেম্বরে চীনের হুবেই প্রদেশের উহানে প্রথম মানবদেহে এ ভাইরাস ধরা পড়ে। 






«
Next
Newer Post
»
Previous
Older Post

No comments:

Leave a Reply