sponsor

sponsor

Slider

বিশ্ব

জাতীয়

রাজনীতি

খেলাধুলা

বিনোদন

ফিচার

যাবতীয় খবর

জিওগ্রাফিক্যাল

ফেসবুকে মুজিবনগর খবর

» » সুশান্তকে গাঁজা খেতে দেখেছেন, দাবি রাঁধুনির




সুশান্তকে গাঁজা খেতে দেখেছেন, দাবি রাঁধুনির সুশান্ত সিংহ রাজপুতকে তিনি গাঁজা খেতে দেখেছিলেন বলে নারকোটিক্স কন্ট্রোল বুরোর (এনসিবি) গোয়েন্দাদের জানালেন অভিনেতার রাঁধুনি দীপেশ সবন্ত। মাদক যোগে দীপেশকে গত কালই গ্রেফতার করেছে এনসিবি। জিজ্ঞাসাবাদের মুখে গোয়েন্দাদের তিনি জানিয়েছেন, ২০১৮ সালের সেপ্টেম্বরে সুশান্তকে গাঁজা খেতে দেখেছেন তিনি। এনসিবি-র সামনে বিবৃতি দিয়ে দীপেশ এ কথা জানালেও অবশ্য দাবি করেছেন, সুশান্তের জন্য তিনি কখনওই গাঁজা কিনে আনেননি। বরং হৃষিকেশ পওয়ার নামে সুশান্তের আর এক কর্মীই এ কাজ করতেন। এ ছাড়াও আর এক জনের নাম নিয়েছেন দীপেশ। জানিয়েছেন, আব্বাস খালুই নামে এক ব্যক্তি সুশান্তের জন্য গাঁজা কিংবা চরসের নেশার তোড়জোড় করছিলেন, তাঁদের দু’জনকে একসঙ্গে নেশা করতেও দেখেছেন তিনি। এনসিবি-র কাছে দীপেশ জানান, ২০১৮ সালের সেপ্টেম্বরে সুশান্তের বাড়িতে কাজ করতে এসেছিলেন তিনি। দীপেশ বলেছেন, ‘‘কাজ শুরু করার দু-তিন দিনের মধ্যেই সুশান্ত সিংহ রাজপুতকে গাঁজা আর চরস খেতে দেখেছিলাম। এক দিন অশোক ভাইকে (সুশান্তের রাঁধুনি) জিজ্ঞাসা করেছিলাম, স্যার গাঁজা খান? অশোক বলেছিলেন, ‘হ্যাঁ’। জানিয়েছিলেন, করণ প্রথম (পুরো নাম জানিনা) সুশান্ত স্যারকে গাঁজা-চরস খাইয়েছিলেন।’’ এনসিবি-র গোয়েন্দারা জানিয়েছেন, দীপেশ মুম্বইয়ের অভিজাত মহলে সরবরাহের জন্য মাদক সিন্ডিকেটের এক জন সক্রিয় সদস্য।

ক’দিন আগে সুশান্তের বান্ধবী অভিনেত্রী রিয়া চক্রবর্তীও সংবাদমাধ্যমে সাক্ষাৎকারে দাবি করেছিলেন, তিনি নিজে মাদকের নেশা করেন না। তবে সুশান্তকে গাঁজার নেশা থেকে দূরে রাখার চেষ্টা করেছিলেন তিনি। আজই অবশ্য মাদক যোগের বিষয়টি নিয়ে এনসিবি-র গোয়েন্দারা জি়জ্ঞাসাবাদ করেছেন রিয়াকে। দু’দিন আগে এনসিবি-র তদন্তকারীরা রিয়া-শোভিকদের মুম্বইয়ের বাসভবনেও তল্লাশি চালিয়েছেন।






«
Next
Newer Post
»
Previous
Older Post

No comments:

Leave a Reply