sponsor

sponsor

Slider

বিশ্ব

জাতীয়

রাজনীতি

খেলাধুলা

বিনোদন

ফিচার

যাবতীয় খবর

জিওগ্রাফিক্যাল

ফেসবুকে মুজিবনগর খবর

» » » গাংনী পৌরসভা দলীয় মনোনয়ন পেতে আওয়ামীলীগ ও বিএনপির মনোনয়ন প্রত্যাশীরা নানা কৌশলে




মেহেরপুরের গাংনী পৌরসভা নির্বাচনে তফসিল ঘোষনার পরপরই মেয়র ও কাউন্সিলর প্রার্থীরা প্রচার প্রচারনা শুরু করেছে। আগামি ১৬ জানুয়ারী ৯টি কেন্দ্রে ইভিএমের মাধ্যমে গাংনী পৌরসভায় ভোট গ্রহন করা হবে। এ পৌরসভায় আওয়ামীলীগ,বিএনপি ও সতন্ত্র মিলে ১২ জন প্রার্থী মেয়র হতে চান । নির্বাচনকে ঘিরে দলীয় মনোনয়ন পেতে আওয়ামীলীগ ও বিএনপির মনোনয়ন প্রত্যাশীরা নানা কৌশলে কেন্দ্রীয় নেতা ও স্থানীয় সরকার মনোনয়ন বোর্ডের সদস্যদের দৃষ্টি কামনা করতে শেষ মুহুর্তে জোর লবিং শুরু করেছে। এছাড়া সর্বত্রই আলোচনা হচ্ছে কে পাচ্ছেন মেয়র পদে আ’লীগ ও বিএনপির মনোনয়ন। শহরের রাস্তাঘাট, অলিগলি ও পাড়া-মহল্লা থেকে শুরু করে চায়ের দোকানেও চলছে ভোটের নানা রকম হিসেব নিকেশ। সম্ভাব্য প্রার্থী হিসাবে নিজেদের পরিচিতি তুলে ধরতে পৌরসভার ওয়ার্ডে ওয়ার্ডে ভোটারদের সাথে মতবিনিময় চালিয়ে যাচ্ছেন। নিজেদের প্রার্থীতা জানান দেওয়ার জন্য পৌর শহরে মতবিনিময় ও মটর সাইকেল শোডাউন করতে দেখা গেছে।

আবার কেউ পৌর নির্বাচন এলাকায় বিভিন্ন গ্রামে, মহল্লায়, পাড়ায়, ওয়ার্ডে সভা সমাবেশ করে ভোটের কর্মী ও সমর্থকদের সংগঠিত করছেন। পৌরসভার উন্নয়নে ভোটারদের নানা নির্বাচনী প্রতিশ্রতি দিচ্ছেন। তবে ভোটাররা বলছেন, যোগ্য প্রার্থীকেই বেছে নেবেন তারা। আওয়ামীলীগের মনোনয়ন প্রত্যাশীরা হলেন,পৌর মেয়র আশরাফুল ইসলাম,জেলা আওয়ামীলীগের কৃষি বিষয়ক সম্পাদক ফজলুল হক,গাংনী উপজেলা আওয়ামীলীগের ভারপ্রাপ্ত সাধারন সম্পাদক গোলাম মোস্তফা,সাবেক মেয়র আহমেদ আলী,পৌর আওয়ামীলীগের সাধারন সম্পাদক আনারুল ইসলাম বাবু,সহ সভাপতি নবীর উদ্দীন,সহ সভাপতি মাসুল বিল্লাহ অভি,যুবলীগ সভাপতি মোশাররফ হোসেন ও সাবেক ছাত্র নেতা শাহিদুজ্জামান শিপু। বিএনপির মনোনয়ন প্রত্যাশীরা হলেন,গাংনী উপজেলা বিএনপির সাধারন সম্পাদক আসাদুজ্জামান বাবলু ও পৌর বিএনপির সাধারন সম্পাদক মকবুল হোসেন মেঘলা ও সাবেক ভারপ্রাপ্ত মেয়র ইনসারুল হক ইন্সু। এদিকে তবে আওয়ামীলীগ ও বিএনপির মনোনয়ন প্রত্যাশীরা জানিয়েছেন দলীয় প্রতিক যিনি পাবেন তাকে বিজয়ী করার লক্ষে সকলেই একযোগে কাজ করবেন তারা। ২০০১ সালে পৌরসভা প্রতিষ্ঠার পর প্রথম মেয়র নির্বাচিত হন মো: আমিরুল ইসলাম তিনি সন্ত্রাসীদের বোমাঘাতে নিহত হওয়র পর আহমেদ আলী উপ নির্বাচন সহ পর পর দুইবার ও মো: আশরাফুল ইসলাম একবার মেয়র নির্বাচত হন। রিটার্নিং অফিসার ও জেলা নির্বাচন অফিসার আহমেদ আলী জানান, গাংনী পৌরসভায় মোট ভোটার সংখ্যা ২০ হাজার ৩শ’৫৭ জন। এর মধ্যে পুরুষ ৯ হাজার ৭শ’ ৬০ ও মহিলা ১০ হাজার ৫শ’৯৭ জন। আগামি ১৬ জানুয়ারী গাংনী পৌরসভা নির্বাচন উপলক্ষে তারা প্রস্তুুত রয়েছে। ইতোমধ্যে কয়েকজন মেয়র ও কাউন্সিলর প্রার্থীরা মনোনয়ন পত্র সংগ্রহ করেছে। নির্বাচন সুষ্ঠ ও শান্তিপূর্ন করতে কাজ করছে নির্বাচন কমিশন।






«
Next
Newer Post
»
Previous
Older Post

No comments:

Leave a Reply