sponsor

sponsor

Slider

বিশ্ব

জাতীয়

রাজনীতি

খেলাধুলা

বিনোদন

ফিচার

যাবতীয় খবর

জিওগ্রাফিক্যাল

ফেসবুকে মুজিবনগর খবর

» » » উইঘুর মুসলিম নির্যাতন: চীনের বিরুদ্ধে তদন্ত করবে না আইসিসি




সংখ্যালঘু উইঘুর মুসলিম গণহত্যা ও মানবতাবিরোধী অপরাধের অভিযোগে চীনের বিরুদ্ধে তদন্তের আহ্বান নাকচ করেছে আন্তর্জাতিক অপরাধ আদালত- আইসিসি। গেল সোমবার আদালতের প্রধান আইনজীবীর অফিস এক প্রতিবেদনে এ তথ্য নিশ্চিত করেছে। মঙ্গলবার (১৫ ডিসেম্বর) এমন খবর প্রকাশ হয়েছে বেশির আন্তর্জাতিক গণমাধ্যমে। গত জুলাই-এ উইঘুর মুসলিম সম্প্রদায়ের পক্ষ থেকে চীনের বিরুদ্ধে আইসিসিতে অভিযোগ জানানো হয়। অভিযোগে উল্লেখ করে, চীনে ১০ লাখের বেশি উইঘুর মুসলিমসহ অন্যদের বন্দী করে স্বাভাবিক জীবন থেকে বিচ্ছিন্ন করে রাখা হয়েছে। এসব অভিযোগের পক্ষে প্রমাণও জমা দেয় তারা। এ বিষয়ে আইসিসির প্রতিবেদনে বলা হয়, চীনের বিরুদ্ধে আনা অভিযোগের ব্যাপারে কোনো পদক্ষেপ নিতে অক্ষম আইসিসি। কারণ, অভিযোগে যেসব ঘটনার কথা বলা হয়েছে, তা চীনের ভূখণ্ডে সংঘটিত হয়েছে। এছাড়া হেগভিত্তিক আন্তর্জাতিক আদালতের চুক্তিভুক্ত অঞ্চল নয় উইঘুর। আরো পড়ুন: ‘প্রত্যেক উইঘুর মুসলমান প্রিয়জনের সঙ্গে পুনরায় একত্রিত হবে’ আইসিসির প্রসিকিউটর ফাতৌ বেনসৌদা বলেন, ‘দ্য হেগ ভিত্তিক আইসিসির সনদে স্বাক্ষরকারী দেশ নয় চীন। তার মানে, চীন আইসিসির সদস্য নয়। তাই চীনের বিরুদ্ধে আনা অভিযোগ তদন্তের এখতিয়ার আইসিসির নেই।’ ‘লেট আস ড্রিম: দ্য পাথ টু আ বেটার ফিউচার’ শিরোনামের নতুন বইয়ে পোপ ফ্রান্সিসও চীনের উইঘুরদের নির্যাতিত জনগোষ্ঠী হিসেবে অভিহিত করেছেন। আইসিসির বার্ষিক প্রতিবেদনে বলা হয়েছে, উইঘুর মুসলিমদের ওপর নির্যাতনের বেশিরভাগ অভিযোগ নিয়ে কাজ করার আঞ্চলিক এখতিয়ার এই আদালতের শর্তের মধ্যে পড়ে না। এছাড়া তাজিকিস্তান এবং কম্বোডিয়া থেকে উইঘুরদের জোরপূর্বক চীনে নির্বাসনের আরেকটি অভিযোগ নিয়ে কাজ করার ‘কোনো ভিত্তি এই মুহূর্তে ছিল না’ বলেও জানানো হয়।






«
Next
Newer Post
»
Previous
Older Post

No comments:

Leave a Reply