sponsor

sponsor

Slider

বিশ্ব

জাতীয়

রাজনীতি

খেলাধুলা

বিনোদন

ফিচার

যাবতীয় খবর

জিওগ্রাফিক্যাল

ফেসবুকে মুজিবনগর খবর

» » » » চট্টগ্রামের মীরসরাই ও ফটিকছড়ির দূর্গম পাহাড়ী এলাকায় চাষ হচ্ছে মসলা জাতীয় ফসল গোলমরিচ




চট্টগ্রামের মীরসরাই ও ফটিকছড়ির দূর্গম পাহাড়ী এলাকায় চাষ হচ্ছে মসলা জাতীয় ফসল গোলমরিচ। কৃষি বিভাগের আশা পাহাড়ে গোলমরিচের চাষ বাড়লে দেশের চাহিদা মিটিয়ে রপ্তানী হবে বিশ্ব বাজারেও। সীমান্তবর্তী পাহাড়ী এলাকা চট্টগ্রামের মীরসরাই ও ফটিকছড়িতে চাষ হচ্ছে গোলমরিচের। পাঁচ বছর আগে বাণিজ্যিকভাবে গোলমরিচের আবাদ শুরু হয় এ অঞ্চলে। বর্তমানে প্রায় দুইশ’ গোলমরিচের বাগান রয়েছে। ফলনও হয়েছে ভালো। ভালো দাম পাওয়ার আশায় বাগান মালিকরা। গোলমরিচের চারা আনা হয় ভারতের ত্রিপুরা থেকে। কৃষি কর্মকর্তা জানান, রোপণের তিন বছরের মাথায় ফলন আসে। ফলন দেয় ২৫ বছর পর্যন্ত। একটি পূর্ণ বয়স্ক গাছ থেকে বছরে আট কেজি পর্যন্ত গোলমরিচ পাওয়া যায়। ফটিকছড়ি উপ-সহকারী কৃষি কর্মকর্তা মো. হেলাল উদ্দিন বলেন, কৃষি সম্প্রসারণের মাঠ পর্যায়ের কর্মকর্তারা বিভিন্ন টেকনিক্যাল সাপোর্ট দিয়ে যাচ্ছেন। ক্ষুদ্র নৃগোষ্ঠীরা যারা আছেন তারা অনেক পিছিয়ে আছেন। তাদেরকে সামলম্বী করার জন্য উচ্চমূল্যের ফসল দরকার, যার মধ্যে গোলমরিচের ব্যাপক সম্ভাবনা আছে। এ মসলার চাষে চাষীদের উৎসাহ ও অর্থ সহায়তা করছে পিকেএসএফ এবং বেসরকারি উন্নয়ন সংস্থা অপকা। অপকা নিবার্হী পরিচালক মো. আলমগীর বলেন, আমরা চেষ্টা করছি পুরো পাহাড়ী এলাকায় গোলমরিচ চাষকে সম্প্রসারণ করবো। এতে কৃষকরা সত্যিকারার্থে অর্থ উপার্জন বাড়বে, তারা লাভবান হবেন। গোল মরিচের চাষাবাদ বাড়ানো গেলে ভবিষ্যতে তা রফতানি করে বৈদেশিক মুদ্রা অর্জন করা সম্ভব বলে মনে করছেন সংশ্লিষ্টরা।






«
Next
Newer Post
»
Previous
Older Post

No comments:

Leave a Reply