sponsor

sponsor

Slider

বিশ্ব

জাতীয়

রাজনীতি

খেলাধুলা

বিনোদন

ফিচার

যাবতীয় খবর

জিওগ্রাফিক্যাল

ফেসবুকে মুজিবনগর খবর

» » পঞ্চগড় বাজারে যাওয়ার ৩৬ দিন পর পুকুরে মরদেহ




নিখোঁজের ৩৬ দিন পরে তরিকুল ইসলাম (৫৮) নামে এক ব্যবসায়ীর মরদেহ উদ্ধার করেছে পুলিশ। শনিবার (০৬ ফেব্রুয়ারি) দুপুরে জেলার সদর উপজেলার পঞ্চগড় পৌরসভার রৌশনাবাগ কামাতপাড়া এলাকার গোলাম মোস্তফার পুকুর থেকে ওই ব্যবসায়ীর মরদেহ উদ্ধার করেছে পঞ্চগড় সদর থানার পুলিশ। নিহত তরিকুল ইসলাম পঞ্চগড় পৌরসভার পূর্ব ইসলামবাগ এলাকার মৃত আমির উদ্দিনের ছেলে। ksrm নিহতের পরিবার সূত্রে জানা গেছে, তরিকুল ইসলাম গত ৩১ শে ডিসেম্বর রাত ১টার সময় বাসা থেকে পঞ্চগড় বাজারের উদ্দেশে বের হয়। এর পরে অনেক খোঁজাখুঁজি করে তাকে পাওয়া যায়নি। বহুবার তার ফোনে কল দিলে মোবাইল বন্ধ পাওয়া যায়। তিনি বাসায় না ফেরায় গত ২ জানুয়ারি পঞ্চগড় সদর থানায় একটি সাধারণ ডায়েরি করা হয়। শনিবার (৬ ফেব্রুয়ারি) তার ছেলে তুহিন সকাল ১১টার দিকে খবর পায় রৌশনাবাগ আনোয়ার হোসেনের বাড়ির পিছনে গোলাম মোস্তফার পুকুরের পাশে একটি মরদেহ পড়ে আছে। সেখানে গিয়ে তুহিন মরদেহের শরীরে মাফলার ও তার ব্যবহৃত মুঠোফোন দেখে বুঝতে পারে এটি তার বাবা। পরে পরিবারের সদস্যদের নিয়ে ঘটনাস্থলে গিয়ে নিশ্চিত হয় তিনি তরিকুল ইসলাম। আরো পড়ুন... দেশে অবাধে চলছে আপত্তিকর কন্টেন্ট (ভিডিও) এদিকে ঘটনার পর পরেই ঘটনাস্থলে অতিরিক্ত পুলিশ সুপার (সদর সার্কেল ) সূর্দশন কৃমার রায়, পঞ্চগড় সদর থানায় ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা আবু আক্কাস আহমেদ ঘটনাস্থল পরিদর্শন করেছেন। পঞ্চগড় সদর থানার উপ পরিদর্শক দ্বীন মোহাম্মদ জানান, খবর পেয়ে আমরা এসে দেখি পুকুরের পানিতে মৃতদেহ ভেসে আছে। এরপর পানি থেকে তুলে আনা হয় মরদেহটিকে। তার ছেলে তুহিন এসে নিশ্চিত করে মরদেহটি তার বাবার। মরদেহটিকে ময়নাতদন্তের জন্য পঞ্চগড় আধুনিক সদর হাসপাতালের মর্গে পাঠানো হয়েছে। তবে কী কারণে মৃত্যু হয়েছে তদন্ত শেষে জানা যাবে। পঞ্চগড় সদর থানার ওসি তদন্ত জামাল হোসেন বলেন, সাধারণ ডায়রি হওয়ার পর থেকেই পুলিশ তৎপর হয় তাকে খুঁজে বের করার জন্য। এ কারণে রেডিও বার্তাও দেওয়া হয়। তার পরিবার এখনো কোনো অভিযোগ করেননি। একটি অপমৃত্যু মামলার আবেদন এসেছে। তবে ময়নাতদন্ত রিপোর্টের ভিত্তিতে আইনি ব্যবস্থা নেওয়া হবে।






«
Next
Newer Post
»
Previous
Older Post

No comments:

Leave a Reply