sponsor

sponsor

Slider

বিশ্ব

জাতীয়

রাজনীতি

খেলাধুলা

বিনোদন

ফিচার

যাবতীয় খবর

জিওগ্রাফিক্যাল

ফেসবুকে মুজিবনগর খবর

» » » মেহেরপুর কুলবাড়িয়া গ্রামের ভৈরব নদীতে অর্ধগলিত অজ্ঞাত নারীর লাশ উদ্ধার




মেহেরপুরে বস্তা অর্ধগলিত অজ্ঞাত নারীর লাশ উদ্ধার মেহেরপুর সদর উপজেলার

পাশে ভৈরব নদ থেকে বস্তা ভর্তি একজন নারীর অর্ধগলিত অজ্ঞাত লাশ উদ্ধার করেছে পুলিশ। বৃহস্পতিবার রাত ৯ টার দিকে কুলবাড়িয়া হামেশাতলা থেকে অজ্ঞাত লাশটি উদ্ধার করা হয়। অর্ধগলিত মেয়ের লাশটি ১৮-১৯ বছরের কেউ একজন হতে পারে বলে প্রাথমিকভাবে ধারনা করছে পুলিশ। মৃত দেহের পরনে ছিল খয়েরি ও কালো রঙের ছালোয়ার-কামিজ এবং তার গলায় কালো রঙের কাপড় নিজের ওড়না দিয়ে ফাস লাগানো ছিলো। ৪-৫ দিন আগে তাকে শ্বাস রোধ করে হত্যা করে কে বা কাহারা এখানে লাশটি ফেলে গেছে বলে প্রাথমিকভাবে ধারনা করছে পুলিশ। এ সংবাদ লেখা পর্যন্ত তার পরিচয় পাওয়া যায়নি। বৈকুন্ঠপুর পুলিশ ক্যাম্প ইনচার্জ মাসুদ রানা জানান, স্থানীয়রা গোসল করতে আসলে একটি প্লাস্টিকের বস্তা দেখতে পাই। বস্তা থেকে দুর্গন্ধ বের হওয়ায় সদর থানায় খবর দেই। সদর থানা আমাকে জানালে আমি কুলবাড়িয়া ভৈরবে এসে স্থানীয়দের সহযোগিতায় বস্তাটি উদ্ধার করে ডাঙ্গায় নিয়ে আসি। বস্তা খুলে অর্ধগলিত লাশ দেখতে পেয়ে উর্ধতন কর্মকর্তাকে জানায়। মেহেরপুর সদর থানার ওসি শাহ দারা খান জানান, ভৈরব নদে যেহেতু স্রোত নেই সেহেতু আমরা ধারণা করছি কে বা কাহারা লাশটি এখানে ফেলে গেছে। তবে মৃতের গলায় কালো কাপড় দিয়ে বাঁধা ছিল। হয়তো হত্যা করার পর লাশটিকে বস্তায় ভরা হয়ে থাকতে পারে। ময়না তদন্তের পর বিষয়টি আমরা নিশ্চত হতে পারবো। ওসি শাহ দারা আরও জানান, গত কয়েকদিনে মেহেরপুরে কোন মেয়ে হারানোর অভিযোগ থানায় আসেনি। তারপরও আমরা চেষ্টা করছি শনাক্ত করার। পরে মেহেরপুর জেলা অতিরিক্ত পুলিশ সুপার জামিরুল ইসলাম ঘটনাস্থল পরিদর্শন করেন এবং লাশটি উদ্ধার করে মেহেরপুর জেনারেল হাসপাতাল মর্গে নেওয়ার প্রক্রিয়া শুরু করেন। এ সময় তিনি জানান, আমরা অজ্ঞাত একটি লাশ উদ্ধার করেছি। এখনো পর্যন্ত পরিচয় পাওয়া যায়নি। লাশটি শনাক্ত করার চেষ্টা চলছে।






«
Next
Newer Post
»
Previous
Older Post

No comments:

Leave a Reply