sponsor

sponsor

Slider

বিশ্ব

জাতীয়

রাজনীতি

খেলাধুলা

বিনোদন

ফিচার

যাবতীয় খবর

জিওগ্রাফিক্যাল

ফেসবুকে মুজিবনগর খবর

» » শ্রাবন্তী, পায়েল ও যশদের ভাগ্য নির্ধারণ আজ




শ্রাবন্তী, পায়েল ও যশদের ভাগ্য নির্ধারণ আজ

শ্রাবন্তী, পায়েল ও যশদের ভাগ্য নির্ধারণ আজ
ভারতের পশ্চিমবঙ্গে আজ শনিবার (১০ এপ্রিল) শুরু হয়েছে চতুর্থ দফার নির্বাচন। এ নির্বাচনে তুখোড় রাজনীতিকদের সঙ্গে লড়ছেন টলিউডের জনপ্রিয় অভিনেতা-অভিনেত্রীরা। রাজ্যে ৫ জেলার ৪৪টি আসনে অভিনয়, ক্রীড়া ও সংস্কৃতি অঙ্গনের প্রার্থীদের ছড়াছড়ি।

এ নির্বাচনের মধ্যদিয়ে ভাগ্য নির্ধারণ হবে অভিনেতা শ্রাবন্তী চট্টোপাধ্যায়, পায়েল সরকার, যশ দাশগুপ্ত, কাঞ্চন মল্লিক, লাভলী মৈত্রীর মতো তারকাপ্রার্থীদের। 

পার্থ চট্টোপাধ্যায় ও শ্রাবন্তী চট্টোপাধ্যায়

পশ্চিমবঙ্গের বেহালা পশ্চিম আসনে লড়ছেন শিক্ষামন্ত্রী পার্থ চট্টোপাধ্যায় ও অভিনেত্রী শ্রাবন্তী চট্টোপাধ্যায়। পার্থ চট্টোপাধ্যায় রাজ্যের দুবারের মন্ত্রী, প্রথমে শিল্প ও পরে শিক্ষা মন্ত্রণালয়ের দায়িত্ব দেন। অন্যদিকে বিজেপিতে সদ্য যোগ দেওয়া শ্রাবন্তী বাংলা বেশ কিছু সুপারহিট ছবির অংশীদার।



রত্না চট্টোপাধ্যায় ও পায়েল সরকার

বেহালা পূর্ব আসনে এ দফায় লড়ছেন লড়ছেন তৃণমূল কংগ্রেস প্রার্থী রত্না চট্টোপাধ্যায়। রত্না কলকাতার সাবেক মেয়র ও সাবেক মন্ত্রী শোভন চট্টোপাধ্যায়ের স্ত্রী। অন্যদিকে বিজেপি থেকে তার প্রতিপক্ষ হিসেবে রয়েছেন অভিনেত্রী পায়েল সরকার।



মোহাম্মদ সেলিম ও যশ দাশগুপ্ত

হুগলির চন্ডীতলা আসন থেকে লড়াই করছেন মোহাম্মদ সেলিম ও যশ দাশগুপ্ত। মোহাম্মদ সেলিম একজন বর্ষীয়ান বাম নেতা। অন্যদিকে বিজেপি প্রার্থী যশ দাশগুপ্ত প্রথমে ছোটপর্দা ও পরে বড়পর্দা হয়ে রাজনীতিতে এসেছেন।



লাভলি মৈত্র ও অঞ্জনা বসু

সোনারপুর দক্ষিণ আসনে রয়েছেন দুই অভিনেত্রী লাভলি মৈত্র ও অঞ্জনা বসু। তৃণমূল কংগ্রেস প্রার্থী লাভলি মৈত্র ছোটপর্দার ‘জলনূপুর’ ধারাবাহিকে পরিচিতি লাভ করেন। অন্যদিকে বিজেপি প্রার্থী অঞ্জনা বসু ছোট ও বড় পর্দার প্রতিষ্ঠিত অভিনেত্রী। এবার বিধানসভায় তাদের লড়াই নজর কেড়েছে।



গত ২৭ মার্চ প্রথম দফা এবং ১ এপ্রিল দ্বিতীয় দফার ভোটগ্রহণ সম্পন্ন হন। আগের দুই দফায় ৬০ এবং তৃতীয় দফায় ৩১ আসনের ভোটগ্রহণ শেষ হলেও পরবর্তী পাঁচ দফায় বাকি ২০৩ আসনের ভোটগ্রহণ সম্পন্ন করবে নির্বাচন কমিশন। এদিকে নির্বাচনকেন্দ্রিক সহিংসতা করোনার সংক্রমণ মোকাবিলা করেই ভোট উৎসব শেষ করতে চায় নির্বাচন কমিশন। আগামী ১০ এপ্রিল চতুর্থ দফার ভোটগ্রহণ অনুষ্ঠিত হবে। ৮ দফা শেষে ২ মে প্রকাশ করা হবে ১৭তম পশ্চিমবঙ্গ বিধানসভা নির্বাচনের ফলাফল।






«
Next
Newer Post
»
Previous
Older Post

No comments:

Leave a Reply