sponsor

sponsor

Slider

বিশ্ব

জাতীয়

রাজনীতি

খেলাধুলা

বিনোদন

ফিচার

যাবতীয় খবর

জিওগ্রাফিক্যাল

ফেসবুকে মুজিবনগর খবর

» » বিহার, উত্তরপ্রদেশের ঘাটগুলিতে ভাসছে পিপিই কিট পরা মৃতদেহ




পাটনা: ফের জলে ভাসছে মৃতদেহ। এবার পাটনার গুলাবি ঘাটে পিপিই কিট পরা বেশ কয়েকটি মৃতদেহ ভাসতে দেখা গেল। বৃহস্পতিবার সকালে এই মৃতদেহ নজরে পড়ে স্থানীয়দের। পাটনার জেলাশাসক চন্দ্রশেখর সিং বলেন, ‘বেশ কয়েকটি মৃতদেহ এদিন জলে ভাসতে দেখা যায়। তাদের মধ্যে একজন শিশুর মৃতদেহও ছিল। আমাদের জেলাতেই এইভাবে মৃতদেহ জলে ভাসানো হয়েছে কি না, তা নিয়ে তদন্তের নির্দেশ দেওয়া হয়েছে।’ জানা গিয়েছে, পাটনায় গুলাবি ঘাটের পাশেই মৃতদেহ সৎকার করা হয়। সেই সূত্রেই কোনও মৃতদেহ জলে ফেলা হয়েছে বলে মনে করা হচ্ছে। মৃতদেহগুলি জল থেকে তুলে এনে সৎকারের নির্দেশ দিয়েছেন জেলাশাসক। অন্যদিকে উত্তরপ্রদেশের বালিয়াতেও একই অভিযোগ উঠেছে। বালিয়ার মানুষ জানিয়েছে, উজিয়ার, কুলহাদিয়া এবং ভারাউলি ঘাটে তারা ৫২টি মৃতদেহ ভাসতে দেখেন। যদিও জেলা প্রশাসনের তরফে মৃতদেহের সংখ্যা নিশ্চিত করা হয়নি। এছাড়া হামিরপুর জেলা থেকেও একই ধরনের অভিযোগ আসতে শুরু করেছে বলে খবর। এদিকে উন্নাওয়ে গঙ্গা সংলগ্ন দু’টি জায়গায় মৃতদেহ কবর দেওয়া হয়েছে বলে অভিযোগ উঠেছে। তাদের মধ্যে বেশিরভাগ দেহ কমলা রঙের প্লাস্টিকে মোড়া রয়েছে। তবে মৃতদেহগুলি করোনা আক্রান্ত রোগীর কি না, তা নিয়ে নিশ্চিত কিছু জানা যায়নি। তবে এই ঘটনাকে কেন্দ্র করে নিকটবর্তী এলাকায় আতঙ্ক ছড়িয়েছে। উন্নাওয়ের জেলাশাসক রবীন্দ্র কুমার বলেন, ‘অনেক সময়েই মৃতদেহ সৎকার না করে অনেকে গঙ্গার ধারে কবর দিয়ে চলে যায়। কে বা কারা এই কাণ্ড ঘটিয়েছে তা নিয়ে তদন্তের নির্দেশ দিয়েছি।’ স্থানীয় এক ব্যবসায়ী বলেন, ‘করোনা পরিস্থিতিতে হিন্দুদের জন্য সৎকারের খরচ ১৫ হাজার থেকে ২০ হাজার টাকা হয়ে গিয়েছে। এই অবস্থায় অনেকেই সৎকারের বদলে মৃতদেহ গঙ্গার পাড়ে কবর দিয়ে দিচ্ছেন।






«
Next
Newer Post
»
Previous
Older Post

No comments:

Leave a Reply