Sponsor



Slider

বিশ্ব

জাতীয়

রাজনীতি


খেলাধুলা

বিনোদন

ফিচার


যাবতীয় খবর

জিওগ্রাফিক্যাল

ফেসবুকে মুজিবনগর খবর

» » ববিতার জন্মদিনে শাকিব বললেন, ‘হয়তো আফসোস একদিন ঘুচবে’




জীবন্ত কিংবদন্তি অভিনেত্রী ফরিদা আক্তার ববিতার জন্মদিন আজ। সব বাধা কাটিয়ে এবারের জন্মদিন ছেলের সঙ্গেই কাটাচ্ছেন ববিতা। তবে জন্মদিন নিয়ে কোনো উচ্ছ্বাস নেই ববিতার। এর কারণ গত বুধবার তার মেজো চাচা মারা গেছেন। করোনায় পরিচিত অনেকেই মারা গেছেন। এ অবস্থায় মনও ভীষণ খারাপ এ অভিনেত্রীর। সে কথা ববিতা জানালেও তাকে শুভ জন্মদিনের শুভেচ্ছা জানানো থামাননি ঢালিউডের তারকারাসহ দর্শক ও সিনেপ্রেমীরা। তবে অন্যদের চেয়ে একটু আলাদাভাবে ববিতাকে শুভেচ্ছা জানিয়েছেন দেশসেরা নায়ক শাকিব খান। তিনি তার শুভেচ্ছাবার্তায় আক্ষেপও প্রকাশ করেছেন। শাকিবের আক্ষেক, ববিতার মতো কিংবদন্তি অভিনেত্রীদের নিয়ে বায়োপিক সিনেমা হওয়া উচিৎ। যেমনটা পাশের দেশ ভারতে নিয়মিত হয়।কিন্তু সেদিকে কোনো খেয়াল নেই কারো। ৩০ জুন শুরু হওয়ার সাথে সাথেই নিজের ভেরিফায়েড ফেসবুকে ববিতাকে জন্মদিনে শুভেচ্ছা জানিয়ে এক দীর্ঘ স্ট্যাটাস দেন শাকিব।সেখানেই এই আক্ষেপের কথা জানান। তিনি লেখেছে, ‘ষাট, সত্তর, আশির দশকে পাশের দেশের সিনেমার অভিনেতা-অভিনেত্রীদের ঘিরে কতো কতো সিনেমা নির্মিত হচ্ছে; অথচ ববিতা ম্যাডামদের মতো গুণী অভিনয়শিল্পীদের আমরা পরবর্তীতে আর ব্যবহারই করতে পারলাম না! তাদের জন্য যুতসই গল্প-চরিত্র নির্মাণ করতে পারলাম না! হয়তো এসব আফসোসও একদিন ঘুচবে। অন্তত ববিতা ম্যাডামের জন্মদিনে এমন প্রত্যাশাই জানিয়ে রাখলাম।’ শুভেচ্ছাবার্তায় শাকিব আরও লিখেছেন, ‘অনস্ক্রিনে অসংখ্যবার দর্শক তাকে আমার মায়ের ভূমিকায় দেখেছেন, অথচ অফস্ক্রিনেও তিনি আমার কাছে তেমন একজন মমতাময়ী মা। দেশের সিনেমাপ্রেমী মানুষের কাছে তো বটেই, বিশ্ব সিনেমার ইতিহাসেও যার নাম ডাক। কমার্শিয়াল সিনেমার পাশাপাশি ভিন্নধারার সিনেমাতেও তিনি ছিলেন স্বতঃস্ফূর্ত। তার অভিনয় দেখে মুগ্ধ হননি এমন প্রজন্ম খুঁজে পাওয়া যাবে না। সেই সত্তরের দশকেই ববিতা ম্যাডাম বিশ্বের বিভিন্ন চলচ্চিত্র উৎসবে ঘুরেছেন। বাংলা সিনেমার প্রতিনিধিত্ব করেছেন। সেই সময়ে দেশের সব গুণী নির্মাতার পছন্দের তালিকায় ছিলেন আমাদের ববিতা ম্যাডাম। কাজ করেছেন সত্যজিৎ রায়ের মতো পৃথিবীখ্যাত নির্মাতার সিনেমাতেও।’






«
Next
Newer Post
»
Previous
Older Post

No comments:

Leave a Reply