Sponsor



Slider

বিশ্ব

জাতীয়

রাজনীতি


খেলাধুলা

বিনোদন

ফিচার


যাবতীয় খবর

জিওগ্রাফিক্যাল

ফেসবুকে মুজিবনগর খবর

» » » এসএসসি ও এইচএসসি পরীক্ষার সময় জানালেন ঢাকা শিক্ষা বোর্ডের চেয়ারম্যান




এসএসসি-এইচএসসি পরীক্ষা (ফাইল ছবি) করোনাভাইরাস সংক্রমণ কমায় স্কুল-কলেজ খোলা হয়েছে। এবার পরীক্ষার দিকে এগিয়ে যাচ্ছে ঢাকা শিক্ষা বোর্ড। এসএসসি ও সমমান পরীক্ষা ৫ থেকে ১১ নভেম্বর এবং এইচএসসি ও সমমান পরীক্ষা ডিসেম্বরের প্রথম সপ্তাহে নেয়ার সম্ভাব্য সূচি তৈরি করেছে আন্তঃশিক্ষা বোর্ড সমন্বয় সাব-কমিটি। তবে পরীক্ষার শুরুর দুই সপ্তাহ আগে চূড়ান্ত সূচি নির্ধারণ করে প্রকাশ করা হবে। রোববার (১৯ সেপ্টেম্বর) এ বিষয়ে আন্তঃশিক্ষা বোর্ড সমন্বয় সাব-কমিটির সভাপতি ও ঢাকা শিক্ষা বোর্ডের চেয়ারম্যান অধ্যাপক নেহাল আহমেদ বলেন, আগামী ৫ থেকে ১১ নভেম্বর এসএসসি পরীক্ষা শুরু করতে চাই। আর এইচএসসি পরীক্ষা ডিসেম্বরের প্রথম সপ্তাহে। তবে বোর্ড থেকে এখনও চূড়ান্ত তারিখ নির্ধারণ করা হয়নি। জানা গেছে, চলতি বছরের এইচএসসি পরীক্ষার্থীদের ফরম পূরণের সময় বাড়ানো হয়েছে। নতুন সময়সূচি অনুযায়ী ফরম পূরণ চলবে ২২ সেপ্টেম্বর পর্যন্ত। আর ২৬ সেপ্টেম্বর পর্যন্ত ফি পরিশোধ করা যাবে। কোনো শিক্ষার্থী নির্ধারিত সময়ের মধ্যে ফরম পূরণে ব্যর্থ হলে এর দায়ভার শিক্ষাপ্রতিষ্ঠানের প্রধানকেই নিতে হবে বলে জানিয়েছে ঢাকা শিক্ষা বোর্ড। ঢাকা শিক্ষা বোর্ড থেকে জানানো হয়েছে, কেবল বৈধ রেজিস্ট্রেশনধারী শিক্ষার্থীরা ফরম পূরণ করতে পারবেন। অনুমোদনহীন রেজিস্ট্রেশনধারী শিক্ষার্থীকে ফরম পূরণ করালে কোনো ধরনের যোগাযোগ ছাড়াই সেটি বাতিল করা হবে। পরীক্ষায় বিজ্ঞান বিভাগে ১১৬০ টাকা, মানবিক ও ব্যবসা শিক্ষা বিভাগে ১০৭০ টাকা ফি ধরা হয়েছে। নির্ধারিত ফির বাইরে অতিরিক্ত অর্থ আদায় করা যাবে না। এ সংক্রান্ত কোনো তথ্য দৃষ্টিগোচর হলে সংশ্লিষ্ট প্রতিষ্ঠানের ফরম পূরণ প্যানেল বন্ধ করাসহ আইনি ব্যবস্থা নেয়া হবে বলে জানিয়েছে বোর্ড। এর আগে শিক্ষামন্ত্রী ডা. দীপু মণি বলেছিলেন, চলতি বছরের নভেম্বরের মাঝামাঝি এসএসসি ও ডিসেম্বরের শুরুতে এইচএসসি পরীক্ষা নেয়া হবে। পরীক্ষা শুরুর দুই সপ্তাহ তারিখ জানিয়ে দেয়া হবে। উল্লেখ্য, প্রত্যেক বছর ফেব্রুয়ারির শুরুতে এসএসসি এবং এপ্রিলের শুরুতে এইচএসসি পরীক্ষা অনুষ্ঠিত হয়। এবার করোনাভাইরাসের কারণে দেড় বছর শিক্ষা প্রতিষ্ঠান বন্ধ থাকায় এসএসসি-এইচএসসি পরীক্ষা অনুষ্ঠিত হয়নি। কয়েক দফা ছুটি শেষে গত ১২ সেপ্টেম্বর থেকে প্রাথমিক, মাধ্যমিক ও উচ্চ মাধ্যমিক পর্যায়ের শিক্ষা প্রতিষ্ঠানে শ্রেণি কার্যক্রম শুরু হয়।






«
Next
Newer Post
»
Previous
Older Post

No comments:

Leave a Reply