Sponsor



Slider

বিশ্ব

জাতীয়

রাজনীতি


খেলাধুলা

বিনোদন

ফিচার


যাবতীয় খবর

জিওগ্রাফিক্যাল

ফেসবুকে মুজিবনগর খবর

» » » » সীমান্ত হত্যা ভারতের জন্য লজ্জার, বাংলাদেশের জন্য দুঃখজনক’




সীমান্তে হত্যা ভারতের জন্য লজ্জার বলে মন্তব্য করেছেন পররাষ্ট্রমন্ত্রী এ কে আব্দুল মোমেন। দুই দেশের সরকার প্রধানের মধ্যে মারাত্মক অস্ত্র ব্যবহার না করার সিদ্ধান্ত হলেও তা ঢাকায় অনুষ্ঠিতব্য আইওআরএ বৈঠক নিয়ে রোববার (১৪ নভেম্বর) আয়োজিত এক সংবাদ সম্মেলনে এ মন্তব্য করেন তিনি। এদিন ১৬ ডিসেম্বর বিজয় দিবস উদযাপনে ভারতের রাষ্ট্রপতি আসার বিষয়টি নিশ্চিত করেছেন পররাষ্ট্রমন্ত্রী। এসময় পররাষ্ট্রমন্ত্রী বলেন, সীমান্ত হত্যা ভারতের জন্য লজ্জার। আর বাংলাদেশের জন্য দুঃখজনক। আমরা সীমান্তে কোনো হত্যা দেখতে চাই না। দুই দেশই সীমান্তে লিথ্যল উইপন (প্রাণঘাতী অস্ত্র) ব্যবহার না করতে সম্মত হয়েছে। তার পরও সীমান্ত হত্যা, আমাদের জন্য দুঃখের, আর ভারতের জন্য লজ্জার। ২০০০ থেকে ২০২০ সাল পর্যন্ত সীমান্তে ভারতীয় বাহিনীর গুলিতে নিহত হয়েছে কমপক্ষে ১২শ ৩৩ জন বাংলাদেশি নাগরিক। গত দুই যুগে নানাভাবে চেষ্টা করা হলেও মেলেনি সংকটের সমাধান। দফায় দফায় বৈঠক আর প্রতিশ্রুতির ফুলঝুরির পর এবছরও অব্যাহত রয়েছে সীমান্তে বিএসএফ-এর হত্যাযজ্ঞ। আরও পড়ুন: গুলি করে ২ বাংলাদেশিকে হত্যা করল বিএসএফ নভেম্বরের প্রথম দুই সপ্তাহেই ৪ বাংলাদেশি হত্যা হয়েছে ভারত সীমান্তে। ২ নভেম্বর সিলেটের কানাইঘাটে দুইজন হত্যার পর সবশেষ গত শুক্রবার লালমনিরহাট সীমান্তে আরও দুই বাংলাদেশি নিহত হওয়ার ঘটনা ঘটেছে। দুই দেশের সীমান্তরক্ষী বাহিনী ও কূটনৈতিক পর্যায়ে প্রচুর আলোচনা হলেও ভারতের পক্ষ থেকে আচরণের কোনো উন্নতি হয়নি। রোববার পররাষ্ট্র মন্ত্রণালয়ে আয়োজিত সংবাদ সম্মেলনে সীমান্তে হত্যা ভারতের জন্য লজ্জার বলে মন্তব্য করেন পররাষ্ট্রমন্ত্রী। সোমবার থেকে ঢাকায় শুরু হতে যাওয়া ইন্ডিয়ান ওশেন রিম এসোসিয়েশন- আইওআরএ- নিয়ে সংবাদ সম্মেলনটির আয়োজন করে পররাষ্ট্র মন্ত্রণালয়। ১২টি দেশের মন্ত্রী ২৩ দেশের ডেলিগেটরা অংশগ্রহণে ভারত মহাসগরের সম্পদ সর্বোত্তম উপায়ে ব্যবহার নিয়ে আলোচনা হবে এই বৈঠকে।






«
Next
Newer Post
»
Previous
Older Post

No comments:

Leave a Reply