Sponsor



Slider

বিশ্ব

জাতীয়

রাজনীতি


খেলাধুলা

বিনোদন

ফিচার


যাবতীয় খবর

জিওগ্রাফিক্যাল

ফেসবুকে মুজিবনগর খবর

» » » » » » ইতালিতে সব ধরনের সার্টিফিকেট মিলছে এক ওয়েবসাইটে




ইতালির প্রায় আট হাজার কাউন্সিলের ওয়েবসাইট এক করে স্বরাষ্ট্র মন্ত্রণালয়ের অধীনে চালু হলো ‘জাতীয় অনলাইন প্ল্যাটফর্ম’। এখন থেকে যে কোনো প্রয়োজনীয় সার্টিফিকেট সংগ্রহ করা যাবে এই প্ল্যাটফর্মে। দেশটিতে বসবাসরত প্রায় ছয় কোটি ইতালিয় নাগরিকের সঙ্গে প্রায় ৫০ লাখ বিদেশিও পাবেন এর বিশাল সুবিধা। এই তালিকায় রয়েছেন প্রায় দুই লাখ প্রবাসী বাংলাদেশিও। প্রয়োজনীয় সকল সার্টিফিকেট ও তথ্য সংগ্রহ এবং ভুল সংশোধন করা যাবে ওই ওয়েবসাইট থেকে। গত ১৫ নভেম্বর থেকে ইতালিতে চালু হয়েছে এই জাতীয় অনলাইন প্ল্যাটফর্মটি। ইতালীয় ও প্রবাসী সকলের জন্য উন্মুক্ত এই সুবিধাটি মানুষের জন্য খুবই সময় উপযোগী সিদ্ধান্ত বলে জানিয়েছেন সংশ্লিষ্টরা। এতদিন নাগরিক জন্ম, মৃত্যু, বিবাহ, বসবাসের ঠিকানা, নাগরিকত্ব ,পারিবারিক সার্টিফিকেট ও বৈবাহিক অবস্থার নথি, পারিবারিক আর্থিক অবস্থার সার্টিফিকেট এবং সিভিল স্ট্যাটাস সার্টিফিকেটসহ সকল প্রয়োজনীয় সার্টিফিকেট সংগ্রহ করতে এবং নামের কোনো ভুল সংশোধন করতে নিজ নিজ বসবাসরত এলাকার কম্যুনে বা কাউন্সিল অফিস থেকে সংগ্রহ করতে হতো। ইতালির বাইরে বিদেশ থেকে তা সংগ্রহ করার উপায় ছিল না বললেই চলে। আরও পড়ুন: কানাডার ব্রিটিশ কলম্বিয়ায় জরুরি অবস্থা ইতালিতে প্রায় আট হাজার কাউন্সিল অফিস রয়েছে। প্রত্যেকের রয়েছে নিজস্ব ওয়েবসাইট। এতে আমলাতান্ত্রিক জটিলতার শিকার হতো সাধারণ নাগরিকরা। বিশেষ করে বয়স্ক, প্রবাসী এবং বিদেশে বসবাসরত ইতালিয় নাগরিকরা ভোগান্তির শিকার হতেন বেশি। এই সমস্যার সমাধানে দেশটির স্বরাষ্ট্র মন্ত্রণালয়ের অধীনে ১৫ নভেম্বর থেকে যাত্রা শুরু করল www.anagrafenazionale.interno.it এই নতুন জাতীয় ওয়েবসাইটটি। ওয়েবসাইটটির সার্ভিস পেতে আগ্রহী ব্যক্তির স্পিড বা পাবলিক ডিজিটাল আইডেন্টিটি সিস্টেম (এসপিআইডি) বা ন্যাশনাল সার্ভিস কার্ডের (সিএনএস) পিন নম্বর ব্যবহার করে প্রবেশ করতে হবে। দেশটিতে বসবাসরত প্রায় সকলেরই রয়েছে স্পিড অথবা সিএনএস কার্ড। ইতালিতে চালু হওয়া নতুন প্ল্যাটফর্মটিতে দেশটির আট হাজার কম্যুনের সকল তথ্য সংযুক্ত করা হয়েছে। এতে দেশটিতে স্থায়ীভাবে বসবাসরত ইতালিয় ও বিদেশি প্রতিটি নাগরিকের জন্য অধিক নিরাপত্তা নিশ্চিত করবে বলে জানিয়েছে স্বরাষ্ট্র মন্ত্রণালয়। এর ফলে জালিয়াতি ও মাফিয়া কর্মকাণ্ড এবং এর সঙ্গে জড়িতদের সহজে চিহ্নিত করা যাবে বলে মনে করেন সংশ্লিষ্টরা।






«
Next
Newer Post
»
Previous
Older Post

No comments:

Leave a Reply