Sponsor



Slider

বিশ্ব

জাতীয়

রাজনীতি


খেলাধুলা

বিনোদন

ফিচার


যাবতীয় খবর

জিওগ্রাফিক্যাল

ফেসবুকে মুজিবনগর খবর

» » » Mumbai Test: 'Iyer যেন উপেক্ষিত না হয়'! Dravid-Kohli কে বার্তা দিলেন Laxman




লক্ষ্মণ ব্যাট ধরলেন আইয়ারের জন্য। নিজস্ব প্রতিবেদন: আগামিকাল অর্থাৎ ৩ ডিসেম্বর থেকে শুরু হবে ভারত-নিউজিল্যান্ড (India vs New Zealand) দ্বিতীয় টেস্ট। চলতি দু'ম্যাচের টেস্ট সিরিজের দ্বিতীয় তথা শেষ টেস্ট হবে মুম্বইয়ের ওয়াংখেড়ে স্টেডিয়ামে। কানপুর টেস্ট ড্র হওয়ায় এই টেস্টই সিরিজের ভাগ্য গড়ে দেবে। কানুপর টেস্টে বিশ্রামে থাকা বিরাট কোহলি মুম্বই টেস্টে ফিরছেন। কোহলি আসায় শ্রেয়স আইয়ারের (Shreyas Iyer) প্রথম একাদশে জায়গা পাওয়া এখন রীতিমতো চাপের। ভারতের প্রাক্তন ক্রিকেটীয় মহাতারকা ভিভিএস লক্ষ্মণ (VVS Laxman) বলছেন, কেউ যেন কানপুর টেস্টে আইয়ারের পারফরম্যান্সের কথা ভুলে না যায়। ক্যাপ্টেন বিরাট কোহলি (Virat Kohli) ও কোচ রাহুল দ্রাবিড়কে (Rahul Dravid) বার্তা দিলেন তিনি। ভারত-নিউজিল্যান্ড টেস্টের সম্প্রচারকারী চ্য়ানেলে সাক্ষাৎকার দিতে গিয়ে লক্ষ্মণ ব্যাট ধরলেন আইয়ারের জন্য। লক্ষ্মণ বলেন, "শ্রেয়স আইয়ার দুই ইনিংসেই ব্যাট করে নিজের ছাপ রেখেছে। প্রথম টেস্ট সিরিজের প্রথম ম্যাচে সেঞ্চুরির পর দ্বিতীয় ম্যাচেও ও হাফ-সেঞ্চুরি করেছে। যখন দল চাপে ছিল তখন ও ব্যাট করতে নেমে অসাধারণ পারফর্ম করল। অন্যদিকে ময়াঙ্ক আগরওয়াল দুই ইনিংসেই সেভাবে পারফর্ম করতে পারেনি। ওকে ক্রিজে স্বাচ্ছন্দ্য দেখায়নি। পূজারা কিন্তু ওপেন করতে পারে। আগেও পূজারা এই কাজ করেছে। তিনে নামুক অজিঙ্কা রাহানে। বিরাট কোহলি খেলুক চারে। শ্রেয়সকে খেলানো হোক পাঁচে। ও যেন উপেক্ষিত না হয়। আমার মনে হয় রাহুল দ্রাবিড় এবং বিরাট কোহলির জন্য কাজটা কঠিন হবে। আশা করি সঠিক সিদ্ধান্তই ওরা নেবে। আবারও বলব আইয়ারের পারফরম্য়ান্স যেন মনে রাখা হয়।" আরও পডুন: Virat Kohli: একদিনের দলের অধিনায়ক হিসেবে কোহলির ভবিষ্যৎ কী? জানতে পড়ুন কিংবদন্তি সুনীল গাভাসকরের (Shreyas Iyer) হাত থেকে পেয়েছিলেন টেস্ট 'ডেবিউ ক্যাপ'! এমন সৌভাগ্যই বা আর ক'জনের হয়। গাভাসকরের হাত থেকে টেস্ট অভিষেকের টুপি পাওয়া থেকে শ্রেয়স আইয়ারের শুরু। কানপুরের গ্রিনপার্ক স্টেডিয়ামে মাঠে নেমে টেস্ট ইতিহাসের পাতায় নিজের নাম লিখিয়ে নিয়েছেন বছর ছাব্বিশের মুম্বইকর। ১৬ তম ভারতীয় ক্রিকেটার হিসাবে জীবনের অভিষেক টেস্টে শতরান (১০৫) হাঁকিয়ে ছিলেন আইয়ার। এমনকী প্রথম ভারতীয় ক্রিকেটার হিসাবে তিনি প্রথম টেস্টে সেঞ্চুরির পর খেলেন ফিফটি প্লাস ইনিংসও (৬৫)! এখানেই শেষ নয়, লাল-বলের ক্রিকেটে অভিষেকে ম্যান অফ দ্য ম্যাচও হয়েছেন তিনি। ভারতের সপ্তম ক্রিকেটার হিসাবে এই কৃতিত্ব অর্জন করেন আইয়ার।






«
Next
Newer Post
»
Previous
Older Post

No comments:

Leave a Reply