Sponsor



Slider

বিশ্ব

জাতীয়

রাজনীতি


খেলাধুলা

বিনোদন

ফিচার


যাবতীয় খবর

জিওগ্রাফিক্যাল

ফেসবুকে মুজিবনগর খবর

» » » » চীনের বিরুদ্ধে ১৯ উইঘুর মামলা




গণহত্যা, নির্যাতন, ধর্ষণ ও মানবতাবিরোধী অপরাধের অভিযোগে চীনা কর্মকর্তাদের বিরুদ্ধে অভিযোগ দায়ের করেছে দেশটির সংখ্যালঘু উইঘুর মুসলিম জনগোষ্ঠীর ১৯ ব্যক্তি। মঙ্গলবার তুরস্কের প্রসিকিউটরের কাছে ওই কর্মকর্তাদের বিরুদ্ধে ফৌজদারি অভিযোগ দায়ের করেন তারা। তুরুস্কের ইস্তাম্বুলের একটি আদালতের সামনে পতাকা ও প্ল্যাকার্ড হাতে দাঁড়িয়ে আছেন অনেক নারী ও পুরষ। তারা সবাই তুরস্কে বসবাসকারী চীনের সংখ্যালঘু উইঘুর সম্প্রদায়ের মানুষ। চীনা সরকারের দমন-পীড়নের বিরুদ্ধে প্রতিবাদে নেমেছেন তারা। মঙ্গলবার সংখ্যালঘু উইঘুর মুসলিম জনগোষ্ঠীর ১৯ ব্যক্তি চীনের ১১২ কর্মকর্তার বিরুদ্ধে তুরস্কের প্রসিকিউটরের কাছে ফৌজদারি অভিযোগ দায়ের করেছেন। ওই কর্মকর্তাদের বিরুদ্ধে গণহত্যা, নির্যাতন, ধর্ষণ ও মানবতাবিরোধী অভিযোগ আনা হয়েছে। চীনের বিরুদ্ধে আন্তর্জাতিক সংস্থাগুলো প্রয়োজনীয় ব্যবস্থা নিচ্ছে না বলেই এমন অভিযোগ করা হয়েছে বলে মনে করছেন আইনজীবী ও বিশেষজ্ঞরা। আরও পড়ুনঃ পরমাণু যুদ্ধে কেউ জয়ী হতে পারবে না তুরস্কের দণ্ডবিধি ১৩ অনুযায়ী নির্যাতন, গণহত্যা, ধর্ষণ ও মানবতাবিরোধী অপরাধের বিচার দেশটির আদালতে হতে পারে। অপরাধীদের বিচারও হতে পারে। অভিযুক্তদের মধ্যে রয়েছেন চীনের কমিউনিস্ট পার্টির সদস্য, শ্রম শিবিরের পরিচালক ও কর্মকর্তারা। জাতিসংঘ ও বিভিন্ন মানবাধিকার গোষ্ঠীগুলোর দাবি, সাম্প্রতিক বছরগুলোতে দশ লাখেরও বেশি তুর্কি ভাষাভাষী উইঘুর ও অন্যান্য মুসলিম সংখ্যালঘুদের চীনের পশ্চিমাঞ্চলীয় শিনজিয়াং অঞ্চলের বন্দিশালাগুলোতে আটক রাখা হয়েছে। যদিও বরাবরই এ অভিযোগ অস্বীকার করে আসছে চীন।






«
Next
Newer Post
»
Previous
Older Post

No comments:

Leave a Reply