Sponsor



Slider

বিশ্ব

জাতীয়

রাজনীতি


খেলাধুলা

বিনোদন

ফিচার


যাবতীয় খবর

জিওগ্রাফিক্যাল

ফেসবুকে মুজিবনগর খবর

» » » » আবারও ভার্চুয়াল কোর্টের ইঙ্গিত প্রধান বিচারপতির




করোনাভাইরাসের সংক্রমণের বর্তমান পরিস্থিতিতে উচ্চ আদালতের আপিল ও হাইকোর্ট বিভাগের বিচারকাজ ফের ভার্চুয়ালি পরিচালনার কথা জানিয়েছেন প্রধান বিচারপতি হাসান ফয়েজ সিদ্দিকী। মঙ্গলবার সকালে এজলাসে আসন গ্রহণের পর প্রধান বিচারপতি এমনটি জানান। সকাল ৯টার দিকে এজলাসে আসেন প্রধান বিচারপতিসহ আপিল বিভাগের অপর পাঁচ বিচারপতি। বিচারপতিদের আসন গ্রহণের পর একটি মামলার বিষয়ে দৃষ্টি আকর্ষণ করেন আইনজীবী নজরুল ইসলাম চৌধুরী। এ সময় প্রধান বিচারপতি হাসান ফয়েজ সিদ্দিকী বলেন, “চারদিকে যে অবস্থা (করোনা সংক্রমণ) দেখছি, এরই মধ্যে আমাদের ১৩ জন বিচারপতি ও নিম্ন আদালতের ৩৬ জন বিচারক আক্রান্ত হয়েছেন। অনেক স্টাফও আক্রান্ত হয়েছেন। আমরা হয়তো আবার ভার্চুয়াল কোর্টে ফিরে যাব। ভার্চুয়াল কোর্টে যে মামলা নিষ্পত্তি কম হয়, তা নয়। আমরা বিষয়টি সিরিয়াসলি ভাবছি।” এ সময় ডেপুটি অ্যাটর্নি জেনারেল বিশ্বজিৎ দেবনাথ বলেন, “অ্যাটর্নি জেনারেল, অতিরিক্ত অ্যাটর্নি জেনারেল ও কয়েকজন আইন কর্মকর্তা করোনায় আক্রান্ত হয়েছেন।” আইনজীবী নজরুল ইসলাম চৌধুরী বলেন, “মানুষের জীবন আগে। এ বিষয়ে অবিলম্বে ব্যবস্থা নেওয়া প্রয়োজন।” মহামারি করোনাভাইরাসের সংক্রমণের সময় ভার্চ্যুয়াল এবং ক্ষেত্র বিশেষে শারীরিক উপস্থিতিতে আদালতের কাযক্রম চলছিল। এর মধ্যে গত ২৯ নভেম্বর একটি বিজ্ঞপ্তি জারি করে সুপ্রিম কোর্ট প্রশাসন। ওই বিজ্ঞপ্তিতে বলা হয়, প্রধান বিচারপতি জ্যেষ্ঠ বিচারপতিদের সঙ্গে আলোচনা করে সিদ্ধান্ত নিয়েছেন যে ২০২১ সালের ১ ডিসেম্বর থেকে স্বাস্থ্যবিধি কঠোরভাবে অনুসরণ করে শারীরিক উপস্থিতিতে সুপ্রিম কোর্টের উভয় বিভাগের বিচারিক কার্যক্রম পরিচালিত হবে। এরপর গত ১ ডিসেম্বর সুপ্রিম কোর্টের উভয় বিভাগে শারীরিক উপস্থিতিতে কার্যক্রম শুরু হয়। এর মধ্যে করোনা মহামারির নতুন ভ্যারিয়েন্ট ওমিক্রন প্রতিরোধে ১১ দফা বিধিনিষেধ দিয়ে ১০ ডিসেম্বর প্রজ্ঞাপন জারি করেছে সরকার, যা ১৩ জানুয়ারি থেকে কার্যকর হয়।






«
Next
Newer Post
»
Previous
Older Post

No comments:

Leave a Reply