Sponsor



Slider

বিশ্ব

জাতীয়

রাজনীতি


খেলাধুলা

বিনোদন

ফিচার


যাবতীয় খবর

জিওগ্রাফিক্যাল

ফেসবুকে মুজিবনগর খবর

» » » বন্দুক সহিংসতা: যুক্তরাষ্ট্রে এক বছরে নিহত ৩৯ হাজার




যুক্তরাষ্ট্রে ভয়াবহ আকার ধারণ করেছে বন্দুক সহিংসতা। বছরের প্রথম চার দিনেই বন্দুক হামলায় নিহত হয়েছেন অন্তত ৪০০ জন। গড়ে প্রতিদিন বন্দুক হামলায় প্রাণ হারিয়েছেন ১০০ জন। পর্যবেক্ষণকারী সংস্থাগুলো বলছে, ২০২১ সালে দেশটিতে সহিংসতায় প্রাণ হারিয়েছেন ৩৯ হাজার মানুষ। যুক্তরাষ্ট্রকে বলা হয় গণতন্ত্র, মানবাধিক কিংবা সমঅধিকারের দেশ। বিশ্বের বিভিন্ন দেশের নিপীড়ত মানুষের অধিকার আদায়েও সোচ্চার দেয়া যায় দেশটির নেতাদের। সংঘাত, সহিংসতা বন্ধে বিভিন্ন দেশের নেতাদের সতর্কও করে থাকেন মার্কিন শাসকরা। কিন্তু খোদ যুক্তরাষ্ট্রেই গত কয়েক বছর ধরে বেড়েছে অভ্যন্তরীণ সংঘাত সহিংসতা। যুক্তরাষ্ট্রের বন্দুক সহিংসতা পর্যবেক্ষণকারী সংস্থা গিফর্ডস ল' সেন্টারের তথ্য বলছে, গত বছরে দেশটিতে বন্দুক সহিংসতায় প্রাণ হারিয়েছেন ৩৯ হাজার মানুষ। এরমধ্যে আত্মহত্যা করেছেন সবচেয়ে বেশি। পারিবারিক কলহে বন্দুক হামলায় মারা গেছেন ১৩ হাজার। সরাসরি বন্দুক হামলায় প্রাণ হারিয়েছেন ৩১০ জন এবং পুলিশের গুলিতে নিহত হয়েছেন ৫ শতাধিক মানুষ। এরমধ্যে আলাস্কা অঙ্গরাজ্যে সবচেয়ে বেশি বন্দুক সহিংসতার ঘটনা ঘটেছে। দ্বিতীয় অবস্থানে রয়েছে আলাবামা। এছাড়া, মিসিসিপি আঙ্গরাজ্যের গত এক বছরে বন্দুক সহিংসতায় প্রাণ হারিয়েছেন ৬৪০ জন। চতুর্থ অবস্থানে থাকা মিসৌরি অঙ্গরাজ্যে প্রতি বছর বন্দুক সহিংসতায় নিহত হয়েছেন ১ হাজার ১২২ জন। পরিসংখ্যান বলছে, যুক্তরাষ্ট্রে পুলিশের গুলিতে সবচেয়ে বেশি প্রাণ হারিয়েছেন কৃষ্ণাঙ্গ জাতিগোষ্ঠী। এদিকে খ্রিষ্টীয় নববর্ষকে ঘিরে গত চারদিনে আশঙ্কাজনক হারে বেড়েছে বন্দুক সহিংসতা।এক তথ্য বলছে, গত চারদিনে দেশটিতে বন্দুক সহিংসতার মতো ঘটনায় প্রাণ হারিয়েছেন ৩৯৮ জন। আহত হয়েছেন ২৭৭। এই কয়দিনে বড় ধরনের বন্দুক হামলার ঘটনা ঘটেছে ৯টি।






«
Next
Newer Post
»
Previous
Older Post

No comments:

Leave a Reply