Sponsor



Slider

বিশ্ব

জাতীয়

রাজনীতি


খেলাধুলা

বিনোদন

ফিচার


যাবতীয় খবর

জিওগ্রাফিক্যাল

ফেসবুকে মুজিবনগর খবর

» » » » এবাদতের আইকনিক স্পেলে জয়ের স্বপ্ন দেখছে বাংলাদেশ




মাউন্ট মঙ্গানুইয়ে চতুর্থ দিনটিও নিজেদের করে নিতে পারবে কিনা টাইগাররা, এক সময়ে সে সংশয় ছিল। কিন্তু এবাদত হোসেনের আইকনিক এক টেস্ট স্পেলে উড়ে যায় সে সংশয়, আর বাংলাদেশের জয়ের স্বপ্ন হয় আরেকটু গাঢ়। নিজেদের দ্বিতীয় ইনিংসে হাতে ৫ উইকেট নিয়ে মাত্র ১৭ রানে এগিয়ে থেকে চতুর্থ দিন শেষ করেছে নিউজিল্যান্ড। ফাস্ট বোলিংয়ের অনুপম প্রদর্শনী দেখানো এবাদতের তোপের মুখে কিউইদের সংগ্রহ ৫ উইকেটে ১৪৭ রান। সব মিলিয়ে টেস্টটির টানা তিনটি দিন চালকের আসনে থাকলো বাংলাদেশ। এর আগে ৪৫৮ রানে শেষ হয় বাংলাদেশের প্রথম ইনিংস। প্রথম সেশনে আরও ৪৪ রান যোগ হলে সাজঘরে ফেরেন মেহেদী হাসান মিরাজ। ব্যক্তিগত ৪৭ রান করে টিম সাউদির শিকারে পরিণত হন তিনি। ইয়াসির রাব্বি ফেরেন ২৬ রানে। সব মিলিয়ে মাত্র ১৩ রানে শেষ চার উইকেট হারায় বাংলাদেশ আর ৪৫৮ রানে থামে টাইগারদের প্রথম ইনিংস। ট্রেন্ট বোল্ট নেন ৪ উইকেট। ছবি: সংগৃহীত ১৩০ রানে পিছিয়ে থেকে দ্বিতীয় ইনিংস শুরু করে নিউজিল্যান্ড। দ্রুতই সাজঘরে ফেরেন টম ল্যাথাম ও ডেভন কনওয়ে। সেখান থেকে ৭৩ রানের জুটি গড়েন উইল ইয়ং ও রস টেইলর। রিভিউ নেয়ায় একের পর এক ভুল, মিস ফিল্ডিং এবং ইয়াং-টেলরের জুটিতে এক পর্যায়ে মনে হচ্ছিল, ম্যাচের লাগাম হয়তো হাতছাড়া হয়ে যাচ্ছে বাংলাদেশের। আরও পড়ুন: জোহানেসবার্গে প্রোটিয়া পেসারদের আধিপত্য কিন্তু ঠিক এমন সময়েই এক ওভারে জোড়া আঘাত হানেন এবাদত। ৬৯ রান করা উইল ইয়াংয়ের স্ট্যাম্প উপরে ফেলেন এই পেসার। একইভাবে ফিরতে হয় মিডল অর্ডার ব্যাটার হেনরি নিকোলসকেও। এরপরের ওভারে এবাদত নিজের চতুর্থ শিকারে পরিণত করেন টম ব্লান্ডেলকে, ফেলেন এলবিডব্লিউয়ের ফাঁদে। শূন্য রানের মাঝেই তিন কিউই ব্যাটারকে ফিরিয়ে দিয়ে বাংলাদেশের টেস্ট ক্রিকেটে ফাস্ট বোলিংয়ের এক আইকনিক স্পেল উপহার দেন এবাদত। টেস্ট ক্যারিয়ারের শেষ ইনিংস খেলছেন এখন রস টেলর, সাথে আছেন রাচিন রাভিন্দ্রা। এরপরেই চলে আসবেন সব টেল এন্ডাররা। আগামীকাল টেস্টের শেষ দিনে দ্রুত কিউইদের গুটিয়ে দিতে পারলেই নিউজিল্যান্ডের মাটিতে মুমিনলের হকের বাংলাদেশের ঐতিহাসিক টেস্ট জয়ের স্বপ্ন হবে সত্যি।






«
Next
Newer Post
»
Previous
Older Post

No comments:

Leave a Reply