Sponsor



Slider

বিশ্ব

জাতীয়

রাজনীতি


খেলাধুলা

বিনোদন

ফিচার


যাবতীয় খবর

জিওগ্রাফিক্যাল

ফেসবুকে মুজিবনগর খবর

» » পরীমণির মাদক মামলার কার্যক্রম তিন মাস স্থগিত




পরীমণির বিরুদ্ধে দায়ের হওয়া মাদক মামলা ৩ মাসের জন্য স্থগিত করেছেন হাইকোর্ট। মঙ্গলবার বিচারপতি মোস্তফা জামান ইসলামের নেতৃত্বাধীন বেঞ্চ এই আদেশ দেন। পাশাপাশি অভিযোগ গঠনের আদেশ এবং মামলা কেন বাতিল হবে না জানতে চেয়ে রুল জারি করেছে হাইকোর্টের একই বেঞ্চ। আদালতে পরীমণির পক্ষে শুনানি করেন অ্যাডভোকেট জেড আই খান পান্না, সৈয়দা নাসরিন ও অ্যাডভোকেট মো. শাহীনুজ্জামান। রাষ্ট্রপক্ষে ছিলেন ডেপুটি সহকারী অ্যাটর্নি জেনারেল মো. মিজানুর রহমান। এর আগে সোমবার পরীমণির বিরুদ্ধে মাদকদ্রব্য নিয়ন্ত্রণ আইনের মামলায় অভিযোগ গঠনের আদেশ কেন বাতিল করা হবে না, তা জানতে চেয়ে জারি করা রুল শুনানি শেষ হয়। গত ৩০ জানুয়ারি মাদকদ্রব্য নিয়ন্ত্রণ আইনের মামলায় অভিযোগ গঠনের আদেশ ও মামলা বাতিল চেয়ে আবেদন করেন পরীমণি। এ দিকে মঙ্গলবার সকালে অভিযোগকারীর জবানবন্দির মধ্য দিয়ে পরীমণি ও তার দুই সহযোগীর বিরুদ্ধে মাদক মামলার বিচার কার্যক্রম শুরু হয়। তবে অসুস্থতার কারণে উপস্থিত হতে না পারার কারণ দেখিয়ে পরীমণির আইনজীবী শুনানি স্থগিত চেয়ে আবেদন জমা দিয়েছেন। আবেদনে আইনজীবী আরও উল্লেখ করেছেন, পরীমণির বিরুদ্ধে অভিযোগ গঠনকারী বিচারিক আদালতের বৈধতা চ্যালেঞ্জ করে হাইকোর্টে একটি রিট আবেদন করা হয়েছে। হাইকোর্ট শুনানি শেষে এ বিষয়ে আদেশ দিতে আজকের দিন ধার্য করেছেন। বিচারক পরীমণির অনুপস্থিতির আবেদন মঞ্জুর করেন এবং তার অনুপস্থিতিতে সাক্ষীকে জেরা করার অনুমতি দেন। আসামিপক্ষ আংশিকভাবে সাক্ষীদের জেরা করেন এবং পরবর্তী তারিখে পুনরায় জেরা করার জন্য সময় চান। এরপর বিচারক মামলার পরবর্তী শুনানির জন্য ২৯ মার্চ দিন ধার্য করেন। গত বছরের ৪ আগস্ট পরীমণি ও দিপুকে আটক করে র‌্যাপিড অ্যাকশন ব্যাটালিয়নের সদস্যরা। সে সময় নায়িকার বাসা থেকে মদ ও মাদক উদ্ধার করা হয়। গ্রেপ্তারের ৪ সপ্তাহ পর ১ সেপ্টেম্বর পরীমণিকে অন্তর্বর্তীকালীন জামিনে কারাগার থেকে মুক্তি দেওয়া হয়। এ সময়ের মাঝে বারবার রিমান্ড ও জামিন আবেদন খারিজ নিয়ে আইনি বিতর্ক দেখা দেয়।






«
Next
Newer Post
»
Previous
Older Post

No comments:

Leave a Reply