Sponsor



Slider

বিশ্ব

জাতীয়

রাজনীতি


খেলাধুলা

বিনোদন

ফিচার


যাবতীয় খবর

জিওগ্রাফিক্যাল

ফেসবুকে মুজিবনগর খবর

» » » জাতিসংঘের সূচকই প্রমাণ করে দেশে সুখ-সমৃদ্ধি বৃদ্ধি পেয়েছে: তথ্যমন্ত্রী




বিএনপির ক্রমাগত অপপ্রচার, দেশবিরোধী ষড়যন্ত্র এবং মানুষকে ক্রমাগত অসুখী করার অপতৎপরতা সত্ত্বেও সুখী সূচকে বাংলাদেশ সাত ধাপ এগিয়েছে। এমন মন্তব্য করেছেন পঞ্চগড়ে তথ্য ও সম্প্রচারমন্ত্রী ড. হাছান মাহমুদ। রোববার (২০ মার্চ) জনগণের রায় নিয়ে প্রধানমন্ত্রী জননেত্রী শেখ হাসিনা পরপর তিনবার রাষ্ট্র পরিচালনা করছেন। রোববার (২০ মার্চ) দুপুরে পঞ্চগড় সাকির্ট হাউস চত্বরে গণমাধ্যমকর্মীদের এসব কথা বলেন তিনি। ২০০৯ সালে আমরা সরকার গঠন করার পর থেকে বিএনপি কয়েক মাস পরপর আন্দোলনে নামে এবং তখন থেকে বলে আসছে–এই সরকারের দিন ঘনিয়ে এসেছে। তারা যতই বলে আসছে, জনগণ ততই আমাদের পক্ষ হয়ে আসছে। তাদের এই হুমকির মধ্যে কয়েক দিন আগে রিজভী সাহেব বলেছেন–সরকারের বিদায় ঘণ্টা বেজে গেছে। তারা তো নয়াপল্টন অফিসে বসে বসে বিদায় ঘণ্টা বাজাচ্ছে। কিন্তু তাদের সেই ঘণ্টা বাজানোতে জনগণ সাড়া দেয়নি। আরও পড়ুন: আন্দোলনের হুমকি না দিয়ে জনগণের পাশে দাঁড়ান, বিএনপিকে কামরুল আর আপনারা জানেন, দু-এক দিন আগে জাতিসংঘের রিপোর্টে সুখী সূচকে বাংলাদেশের অবস্থান সাত ধাপ এগিয়েছে। আগে আমাদের অবস্থান ছিল ১০১, এখন সেটি ৯৪-তে উন্নীত হয়েছে। যেখানে ভারতের অবস্থান ১৩৬, পাকিস্তানের ১২৬। আমরা ভারত-পাকিস্তান থেকেও এগিয়ে। ড. হাছান মাহমুদ বলেন, বিএনপির ক্রমাগত অপপ্রচার, দেশবিরোধী ষড়যন্ত্র এবং মানুষকে ক্রমাগতভাবে অসুখী করার চেষ্টার পরও সুখী সূচকে বাংলাদেশ সাত ধাপ এগিয়েছে। অর্থাৎ, এই করোনায় বিশ্ব মন্দার মধ্যেও বাংলাদেশের সুখ সমৃদ্ধি বৃদ্ধি পেয়েছে। তারা যে কথাগুলো বলছে, জাতিসংঘের এই রিপোর্ট প্রচার হওয়ার পর তাদের লজ্জা পাওয়া উচিত। এই যে মির্জা ফখরুল সাহেব গতকাল প্রেসক্লাবে গিয়ে বিএনপি ঘরানার সাংবাদিকদের সামনে অনেক ধরনের কথা বলেছেন। আরও পড়ুন: র‌্যাবের ওপর নিষেধাজ্ঞা: নুল্যান্ডের কাছে উদ্বেগ প্রকাশ বাংলাদেশে সংবাদপত্র বা গণমাধ্যম যে ধরনের স্বাধীনতা ভোগ করে, সেটি পৃথিবীর অনেক উন্নত দেশের জন্য উদাহরণ। যেভাবে প্রধানমন্ত্রী সংবাদপত্র বা গণমাধ্যমের স্বাধীনতা নিশ্চিত করেছেন এবং গত ১৩ বছরে গণমাধ্যমের যেভাবে বিকাশ ঘটেছে, একই সঙ্গে গণমাধ্যম যেভাবে স্বাধীনতা ভোগ করছে, অনেক উন্নয়নশীল দেশ তো বটে, অনেক উন্নত দেশে এত স্বাধীনতা নেই। এ সময় রেলপথমন্ত্রী মো. নূরুল ইসলাম সুজন, বাংলাদেশ আওয়ামী লীগের কেন্দ্রীয় সাংগঠনিক সম্পাদক মো. সাখাওয়াত শফিক, পঞ্চগড়-১ আসনের সংসদ সদস্য মো. মজাহারুল হক প্রধান, পঞ্চগড় জেলা আওয়ামী লীগের সাধারণ সম্পাদক আনোয়ার সাদাত সম্রাটসহ জেলা আওয়ামী লীগের নেতাকর্মীরা উপস্থিত ছিলেন






«
Next
Newer Post
»
Previous
Older Post

No comments:

Leave a Reply