Sponsor



Slider

বিশ্ব

জাতীয়

রাজনীতি


খেলাধুলা

বিনোদন

ফিচার


যাবতীয় খবর

জিওগ্রাফিক্যাল

ফেসবুকে মুজিবনগর খবর

» » » » » দম্ভ নিয়েই পশ্চিমাদের চোখ রাঙাচ্ছেন পুতিন




রাশিয়া-ইউক্রেন সঙ্কটে দম্ভ নিয়েই পশ্চিমাদের চোখ রাঙাচ্ছেন প্রেসিডেন্ট ভ্লাদিমির পুতিন। তিনি মনে করেন আরোপিত নিষেধাজ্ঞাগুলো পশ্চিমাদের জন্যই ‘বুমেরাং’ হয়ে উঠবে। কারণ খাদ্যপণ্য এবং জ্বালানির দাম বেড়ে গিয়ে তা (নিষেধাজ্ঞা) পশ্চিমা দেশগুলোকেই বিপদে ফেলবে। মস্কোতে এক সরকারি বৈঠকে পশ্চিমাদের নিষেধাজ্ঞার ব্যাপারে রুশ প্রেসিডেন্ট তার মত প্রকাশ করেন। পুতিন জানান, নিষেধাজ্ঞার মাধ্যমে রাশিয়া তার ঘাটতি কাটিয়ে আরও শক্তিশালী হয়ে উঠবে। তিনি বলেন, “কিছু সমস্যা, কিছু প্রশ্ন রয়েছে—কিন্তু অতীতে এসব সমস্যা আমরা কাটিয়ে উঠেছি, আমরা এবারও সেগুলো কাটিয়ে উঠব। শেষ পর্যন্ত, এটি (নিষেধাজ্ঞা) আমাদের স্বাধীনতা, স্বয়ংসম্পূর্ণতা বৃদ্ধি করবে।” যুক্তরাষ্ট্রকে ইঙ্গিত করে পুতিন বলেন, “রাশিয়া থেকে জ্বালানি তেল আমদানি নিষিদ্ধ করেছে আমেরিকা। এতে সেদেশে জ্বালানির দাম বেড়েছে, মুদ্রাস্ফীতি ঐতিহাসিক উচ্চতা স্পর্শ করেছে। তারা তাদের নিজেদের ভুলের ফল আমাদের উপর চাপানোর চেষ্টা করছে।” পুতিন বলেন, “জ্বালানি ও খাদ্যপণ্যের দর বৃদ্ধিতে রাশিয়াকে কেউ দোষারোপ করতে পারবে না। এটি নিয়ে আমাদের একেবারেই কিছু করার নেই।” প্রেসিডেন্ট পুতিন বলেন, “পশ্চিমা সব নিষেধাজ্ঞা অবৈধ এবং রাশিয়া পশ্চিমাদের সৃষ্ট এই সংকটের সমাধান শান্তভাবে করবে। বিশ্বের অন্যতম জ্বালানি শক্তির উৎপাদনকারী মস্কো। ইউরোপের এক তৃতীয়াংশ গ্যাস সরবরাহ করে তারা। ওই বৈঠকে পুতিন বলেছেন, বৈশ্বিক বাজারে চুক্তিভিত্তিক বাধ্যবাধকতা পালন করবে তার দেশ।” গত ২৪ ফেব্রুয়ারি প্রতিবেশী ইউক্রেনে হামলা চালানোর পর রাশিয়ার উপর একের পর এক নিষেধাজ্ঞা আরোপ করছে যুক্তরাষ্ট্র নেতৃত্বাধীন পশ্চিমা বিশ্ব। চলতি সপ্তাহে রাশিয়া থেকে জ্বালানি তেল আমদানির উপরও নিষেধাজ্ঞা আরোপ করেছে ওয়াশিংটন।






«
Next
Newer Post
»
Previous
Older Post

No comments:

Leave a Reply