Sponsor



Slider

বিশ্ব

জাতীয়

রাজনীতি


খেলাধুলা

বিনোদন

ফিচার


যাবতীয় খবর

জিওগ্রাফিক্যাল

ফেসবুকে মুজিবনগর খবর

» » » » » অ্যামনেস্টি-হিউম্যান রাইটস ওয়াচ সহ ১৫ সংস্থার কার্যালয় বন্ধ করল রাশিয়া




অ্যামনেস্টি-হিউম্যান রাইটস ওয়াচ সহ ১৫ সংস্থার কার্যালয় বন্ধ করল রাশিয়া আইন লঙ্ঘনের অভিযোগ এনে রাশিয়ায় অবস্থিত অ্যামনেস্টি ইন্টারন্যাশনাল ও হিউম্যান রাইটস ওয়াচ-এইচআরডব্লিউসহ ১৫টি মানবাধিকার সংস্থার কার্যালয়ের নিবন্ধন বাতিল করেছে মস্কো।

রাশিয়ার বিচার মন্ত্রণালয়ের এক বিবৃতিতে বলা হয়েছে, ‘রাশিয়ান ফেডারেশনের বিদ্যমান আইন লঙ্ঘনের জন্য সংস্থাগুলোর কার্যালয় বন্ধ করা হয়েছে। খবর সিএনএনের। এর প্রতিক্রিয়ায় অ্যামনেস্টি ইন্টারন্যাশনালের পক্ষ থেকে বলা হয়েছে, মস্কো কার্যকরভাবেই তাদের কার্যালয় এটি বন্ধ করে দিচ্ছে। এর আগে গত ১১ মার্চ অ্যামনেস্টি ইন্টারন্যাশনালের রুশ ভাষার ওয়েবসাইটও ব্লক করে দেয় রাশিয়ার মিডিয়া নিয়ন্ত্রক সংস্থা। অ্যামনেস্টি ইন্টারন্যাশনালের মহাসচিব অ্যাগনেস ক্যালামার্ড বলেন, ‘মানবাধিকার রক্ষায় কাজ করা এবং রাশিয়ান কর্তৃপক্ষের কাছে সত্য কথা বলার জন্য শাস্তি পাওয়া সংস্থাগুলোর মধ্যে অ্যামনেস্টিও রয়েছে।’ আরও পড়ুন: পুতিনের দুই মেয়ের সম্পদ জব্দে সম্মত ইইউ তিনি আরও বলেন, ‘ক্রেমলিন যদি আপনার কাজে বাধা দেওয়ার চেষ্টা করে, তাহলে আপনি অবশ্যই সঠিক কিছু করছেন। কারণ রাশিয়া এমন একটি দেশ, যেখানে অসংখ্য ভিন্নমতাবলম্বীকে বন্দী করা হয়েছে, হত্যা করা হয়েছে বা নির্বাসিত করা হয়েছে। যেখানে গণমাধ্যমের স্বাধীনতা কেড়ে নেওয়া হয়েছে এবং সুশীল সমাজের সংগঠনগুলোকে বেআইনি ঘোষণা বা বাতিল করা হয়েছে।’ রাশিয়াকে আন্তর্জাতিক আইনের অধীনে নানা অপরাধে অভিযুক্ত করা মানবাধিকার সংস্থাগুলোর কার্যালয় বন্ধ করার ঘোষণা দিলেও, এ বিষয়ে বিস্তারিত জানায়নি মস্কো। অ্যামনেস্টি ইন্টারন্যাশনালের মহাসচিব অ্যাগনেস ক্যালামার্ড বলেন, ‘রাশিয়ান কর্তৃপক্ষ বড় ধরনের ভুল করছে যদি তারা ভেবে থাকে যে মস্কোতে আমাদের অফিস বন্ধ করে তারা আমাদের কাজ বা মানবাধিকার লঙ্ঘনের তথ্য প্রকাশ করা বন্ধ করতে পারবে।’ আরও পড়ুন: ইউক্রেনকে এস-৩০০ আকাশ প্রতিরক্ষা ব্যবস্থা দিল স্লোভাকিয়া তিনি বলেন, ‘রাশিয়ার সাধারণ মানুষ যাতে বৈষম্য ছাড়াই তাদের মানবাধিকার উপভোগ করতে পারে তা নিশ্চিত করার জন্য আমরা নিঃশব্দে কাজ চালিয়ে যাচ্ছি। দেশে এবং বিদেশে রাশিয়ার ভয়াবহ মানবাধিকার লঙ্ঘনের তথ্য প্রকাশ করার জন্য আমরা আমাদের প্রচেষ্টা দ্বিগুণ করব।’






«
Next
Newer Post
»
Previous
Older Post

No comments:

Leave a Reply