Sponsor



Slider

বিশ্ব

জাতীয়

রাজনীতি


খেলাধুলা

বিনোদন

ফিচার


যাবতীয় খবর

জিওগ্রাফিক্যাল

ফেসবুকে মুজিবনগর খবর

» » » » » ড্রোন রফতানি করে ইরানের শক্তি বাড়ছে: মার্কিন গণমাধ্যম




পাইলটবিহীন বিমান বা ড্রোন রফতানির দিক দিয়ে ইরান বিশ্ব শক্তিতে পরিণত হয়েছে। এ ক্ষেত্রে ইরানের প্রভাব মধ্যপ্রাচ্যের বাইরেও ছড়িয়ে পড়েছে। বিশেষজ্ঞদের উদ্ধৃতি দিয়ে এ মন্তব্য করেছে মার্কিন দৈনিক নিউইয়র্ক টাইমস। নিউইয়র্ক টাইমসের খবরে বলা হয়েছে, ইরানের ড্রোন নির্মাণ শিল্প বিগত বছরগুলোতে যুক্তরাষ্ট্র ও ইসরাইলের মাথাব্যথার অন্যতম প্রধান কারণে পরিণত হয়েছে। মার্কিন কর্মকর্তারা গত কয়েক মাসে একাধিকবার এ কথা বলেছেন যে, ইরানের ড্রোন শক্তির কারণে প্রথমবারের মতো মধ্যপ্রাচ্যে বিমান শক্তির দিক দিয়ে নিজের শ্রেষ্ঠত্ব হারিয়েছে ওয়াশিংটন। নিউইয়র্ক টাইমস লিখেছে, ইরান মধ্যপ্রাচ্যের বাইরের দেশগুলোর কাছে ড্রোন প্রযুক্তি রফতানি বাড়িয়ে দিয়েছে। ইরান এই শিল্পে একটি আন্তর্জাতিক খেলোয়াড়ে পরিণত হওয়ার চেষ্টা করছে। ড্রোনের নকশা তৈরি ও নতুন নতুন ড্রোন তৈরিতে ইরান বিগত বছরগুলোতে ধারাবাহিক উন্নতি করেছে। নিউইয়র্ক টাইমস দাবি করেছে, ইরান তার সামরিক ড্রোনগুলোকে ভেনিজুয়েলা ও সুদানের মতো মধ্যপ্রাচ্যের বাইরে দেশগুলোর হাতে তুলে দেয়ার চেষ্টা করছে। ড্রোন এখন ইরানের জন্য রাজনৈতিক প্রভাব বিস্তার ও বৈদেশিক মুদ্রা অর্জনের হাতিয়ারে পরিণত হয়েছে। আরও পড়ুন: মেয়র হিসেবে বলছি, যুক্তরাষ্ট্র মন্দায় পড়েছে মার্কিন দৈনিকটি বলেছে, মার্কিন নিষেধাজ্ঞার কারণে ইরান যখন বৈদেশিক মুদ্রা আয়ের ক্ষেত্রে চরম বিপত্তিতে পড়েছে। তখন ড্রোন বিক্রি করে দেশটি তার এ সংকট অনেকাংশে কাটিয়ে উঠতে পারবে বলে মনে হচ্ছে। মার্কিন কর্মকর্তারা গত কয়েক সপ্তাহ ধরে একথা বলে এসেছেন যে, রাশিয়া ইউক্রেন যুদ্ধে ব্যবহারের জন্য ইরানের কাছ থেকে শত শত ড্রোন কেনার পরিকল্পনা করেছে। যদিও ইরানের পররাষ্ট্র মন্ত্রণালয় বলেছে, ইউক্রেন যুদ্ধ শুরু হওয়ার পর মস্কোর সঙ্গে তেহরানের নতুন কোনো চুক্তি হয়নি। বরং দু’দেশের সামরিক সহযোগিতা আগে থেকেই বিদ্যমান ছিল।






«
Next
Newer Post
»
Previous
Older Post

No comments:

Leave a Reply