Sponsor



Slider

বিশ্ব

জাতীয়

রাজনীতি


খেলাধুলা

বিনোদন

ফিচার


যাবতীয় খবর

জিওগ্রাফিক্যাল

ফেসবুকে মুজিবনগর খবর

» » » » টানা দ্বিতীয় জয় ব্রাজিলের, ঘুরে দাঁড়িয়েছে আর্জেন্টিনা




টানা দ্বিতীয় জয় ব্রাজিলের, ঘুরে দাঁড়িয়েছে আর্জেন্টিনা

টানা দ্বিতীয় জয়ে গ্রুপে শীর্ষস্থান ধরে রেখেছে ব্রাজিল। অন্যদিকে প্রথম ম্যাচে ব্রাজিলের কাছে বড় পরাজয়ের পর পেরুকে হারিয়ে দারুণভাবে ঘুরে দাঁড়িয়েছে আর্জেন্টিনা। মঙ্গলবার (১২ জুলাই) কলম্বিয়ার এস্তাদিও সেন্তেনারিওতে বাংলাদেশ সময় রাত ৩টায় উরুগুয়ের মুখোমুখি হয়েছিল ব্রাজিল। আগের ম্যাচে আর্জেন্টিনাকে ৪-০ গোলে আত্মবিশ্বাসে টইটম্বুর ব্রাজিলের সামনে এদিন কোনো প্রতিরোধই গড়তে পারেনি উরুগুয়ে। ম্যাচের শুরু থেকেই চলে দেবিনহা-বিয়াত্রিজদের দাপট। পুরো ম্যাচে উরুগুয়ের গোল তাক করে ২৪টি শট করেছেন তারা, যার ৯টি ছিল লক্ষ্যে। সেই ৯ শটের তিনটিকে জালে জড়িয়েই জয় নিশ্চিত হয়েছে ব্রাজিলের। প্রথমার্ধের ৩২ এবং দ্বিতীয়ার্ধ শুরুর মিনিট তিনেকের মধ্যেই দুবার বল জালে জড়ান ব্রাজিলিয়ান ফরোয়ার্ড আদ্রিয়ানা লিল দা সিলভা। তার দুই গোলের মাঝে প্রথমার্ধের যোগ করা সময়ে বল জালে পাঠান দেবিনহা। এই তিন গোলের মাধ্যমে সহজ জয় নিশ্চিত হয় সেলেসাওদের। নারী কোপা আমেরিকার ‘বি’ গ্রুপের দুই ম্যাচ শেষে ব্রাজিলের পয়েন্ট ৬। গোল ব্যবধান তাদের প্লাস ৭। অর্থ্যাৎ দুই ম্যাচে ৭ গোলের পরিবর্তে কোনো গোল হজম করেনি তারা। ৩ পয়েন্ট করে নিয়ে দ্বিতীয় এবং তৃতীয় স্থানে রয়েছে ভেনেজুয়েলা এবং আর্জেন্টিনা। এই জয়ে গ্রুপ বি’র শীর্ষস্থানে নিজেদের দখল মজবুত করেছে ব্রাজিল। গ্রুপ পর্বে তাদের পরবর্তী ম্যাচ ১৯ জুলাই ভেনিজুয়েলার বিপক্ষে। এদিকে ব্রাজিলের কাছে ৪-০ গোলের বড় হারে টুর্নামেন্ট শুরু করলেও দোর্দণ্ড প্রতাপে ঘুরে দাঁড়িয়েছে আর্জেন্টিনা। সেই ৪-০ গোলের ব্যবধানে বুধবার তারা হারিয়েছে পেরুকে। ব্রাজিলের হয়ে জোড়া গোল করেন আদ্রিয়ানা। আর্জেন্টিনার বিপক্ষে ম্যাচেও জোড়া গোল করেছিলেন ব্রাজিলের এই উইঙ্গার। দুই ম্যাচ শেষে তার নামের পাশে শোভা পাচ্ছে ৪ গোল। বাকি গোলটি করেন দেবিনহা। আর্জেন্টিনার বিপক্ষেও একটি গোল করেছিলেন তিনি। কলম্বিয়ার আর্মেনিয়া শহরের সেন্টেনারিওয় অনুষ্ঠিত ম্যাচটিতে পেরুকে দাঁড়াতেই দেয়নি লিওনেল মেসির দেশের মেয়েরা। ম্যাচের শুরু থেকেই পুরোপুরি প্রভাব বিস্তার করে খেলতে শুরু করে লা আলবিসেলেস্তারা। যে কারণে ম্যাচের ১৮ মিনিটেই গোল আদায় করে নেন ইয়ামিলা রদ্রিগেজ। এস্তেফানিয়া বানিনির দুর্দান্ত প্লে-মেকিংয়ে বল পেয়ে গোল করেন রদ্রিগেজ। প্রথমার্ধে আর কোনো গোল আদায় করতে পারেনি আর্জেন্টিনার প্রমীলা ফুটবলাররা। দ্বিতীয়ার্ধেরন শুরুতেই দ্বিতীয় গোল আদায় করে নেয় আর্জেন্টিনা। ৫২ মিনিটে এই গোলে সবচেয়ে বড় অবদান ছিল ইয়ামিলা রদ্রিগেজের। তার কাছ থেকে বল পেয়ে পেরুর জালে জড়িয়ে দেন ফ্লোরেন্সিয়া বনসেগুন্ডো। ১০ মিনিট পর আবারও গোল। আর্জেন্টিনার হয়ে এই গোলটি করলেন এলিয়ানা স্ট্যাবিলে। ৮৪ মিনিটে পেরুর জালে বল জড়িয়ে একহালি পূরণ করেন এরিকা লোনিগ্রো। ৪-০ গোলে জয়ের ফলে দুই ম্যাচ শেষে গুরুত্বপূর্ণ তিন পয়েন্টের পাশাপাশি গোল ব্যবধানটাও শূন্যতে তুলতে সক্ষম হলো প্রমীলা আর্জেন্টাইনরা। ১৫ জুলাই উরুগুয়ের বিপক্ষে পরবর্তী ম্যাচে মাঠে নামবে আর্জেন্টিনা






«
Next
Newer Post
»
Previous
Older Post

No comments:

Leave a Reply