Sponsor



Slider

বিশ্ব

জাতীয়

রাজনীতি


খেলাধুলা

বিনোদন

ফিচার


যাবতীয় খবর

জিওগ্রাফিক্যাল

ফেসবুকে মুজিবনগর খবর

» » » কৃষিখাতে বাংলাদেশ ও ব্রাজিলের একসঙ্গে কাজ করার অঙ্গীকার




ব্রাজিল সফরের দ্বিতীয় দিনে পররাষ্ট্রপ্রতিমন্ত্রী মো. শাহরিয়ার আলম রাজধানী ব্রাসিলিয়ায় ব্যস্ত সময় অতিবাহিত করেছেন। বাংলাদেশের সঙ্গে ব্রাজিলের কূটনৈতিক সম্পর্কের ৫০ বছর পূর্তি উপলক্ষে তিনি ব্রাসিলিয়ার বোটানিক্যাল গার্ডেনে একটি অমলতাস বৃক্ষ রোপণ করেন। ব্রাসিলিয়ার বোটানিক্যাল গার্ডেনের পরিচালক মিস অ্যালিনি, ফেডারেল ডিসট্রিক্ট গভর্নরের পররাষ্ট্রবিষয়ক দফতরের প্রধান মিস রেনাটা জুকিম এবং ব্রাজিলের পররাষ্ট্র মন্ত্রণালয়ের দক্ষিণ ও দক্ষিণ পূর্ব এশিয়া বিভাগের প্রধান রবের্তো গৈদানিচ ও ব্রাজিলে নিযুক্ত বাংলাদেশের রাষ্ট্রদূত সাদিয়া ফয়জুননেসা বৃক্ষ রোপণের সময় উপস্থিত ছিলেন। ব্রাজিলের জনপ্রিয় টিভি চ্যানেল অ্যাগ্রো প্লাস পররাষ্ট্রপ্রতিমন্ত্রীর সাক্ষাৎকার গ্রহণ করে। এক প্রশ্নের জবাবে প্রতিমন্ত্রী বর্তমান সরকারের অধীনে বিগত এক দশকের বেশি সময়ে ধারাবাহিক অর্থনৈতিক প্রবৃদ্ধির বিষয়ে সম্যক ধারণা দেন। সাক্ষাৎকারে পররাষ্ট্রপ্রতিমন্ত্রী দক্ষিণ আমেরিকার আঞ্চলিক বাণিজ্য ব্লক মার্কসুরের সাথে অগ্রাধিকারমূলক বাণিজ্য চুক্তি এবং মুক্ত বাণিজ্য চুক্তির আওতায় বাংলাদেশের অন্তর্ভুক্তি বিষয়ে বিশেষ গুরুত্ব আরোপ করেন। তিনি দুই দেশের কৃষিক্ষেত্র ও ভাষা শিক্ষায় সহযোগিতা বিষয়ে আলোচনা করেন। তিনি বর্তমান সরকারের সৃষ্ট আকর্ষণীয় বিনিয়োগের সুযোগসমূহ উল্লেখ করে ব্রাজিলের ব্যবসায়ীদের বাংলাদেশের অর্থনৈতিক অঞ্চলে বিনিয়োগের জন্য উৎসাহিত করেন। পররাষ্ট্রপ্রতিমন্ত্রী ব্রাসিলিয়ার বাংলাদেশ দূতাবাস পরিদর্শন করেন। তিনি ব্রাজিলে বাংলাদেশের বাজার সম্প্রসারণকে অগ্রাধিকার দিয়ে মিশনের কর্মকর্তা-কর্মচারীদের কঠোর পরিশ্রম করার নির্দেশনা প্রদান করেন। পররাষ্ট্রপ্রতিমন্ত্রী একই দিনে ব্রাজিলের কৃষি উপমন্ত্রী মার্সিও এলি আলমেইদা লিয়ান্দ্রো-এর সাথে এক বৈঠকে মিলিত হন। বৈঠকে ব্রাজিল-বাংলাদেশ কৃষি সহযোগিতা, বিশেষ করে প্রযুক্তি হস্তান্তর বিষয়ে দীর্ঘ আলোচনা হয়। পররাষ্ট্রপ্রতিমন্ত্রী পরিবর্তিত বৈশ্বিক প্রেক্ষাপটে ব্রাজিল থেকে আরও অধিক পরিমাণে সয়াবিন ও চিনি আমদানির সাম্ভব্যতা নিয়ে আলোচনা করেন। আরও পড়ুন: শাকসবজি উৎপাদনে বিশ্বের শীর্ষ দশে বাংলাদেশ: কৃষিমন্ত্রী এ বিষয়ে কৃষি উপমন্ত্রী মার্সিও লিয়ান্দ্রো দুই দেশের ব্যবসায়ীদের মধ্যে অধিকতর যোগাযোগ স্থাপনের উপর গুরুত্ব আরোপ করেন। তিনি দুই দেশের বাণিজ্য সম্প্রসারণের ক্ষেত্রে পণ্য বহুমুখীকরণের বিকল্প নেই বলে উল্লেখ করেন। দিনের শেষে পররাষ্ট্র প্রতিমন্ত্রী ব্রাজিলের কেন্দ্রীয় বাণিজ্য ও বিনিয়োগ সংস্থা এপ্যাক্স ব্রাজিল আয়োজিত গোলটেবিল বৈঠকে মিলিত হন। এফবিসিসিআইর সভাপতি জসীম উদ্দিন ও ব্রাজিল-বাংলাদেশ চেম্বারের প্রতিনিধিবৃন্দ এই গোলটেবিল বৈঠকে অংশ নেন। ওই বৈঠকে বাংলাদেশ ও ব্রাজিলের মধ্যকার আমদানির-রফতানি এবং বিনিয়োগের সমস্যা ও সম্ভবনা এবং বাণিজ্য বহুমুখীকরণ নিয়ে আলোচনা হয়। বৈঠকে ব্রাজিলের ব্যবসায়ীদের মধ্যে বাংলাদেশে অধিকতর বিনিয়োগ ও বাণিজ্য বৃদ্ধির বিষয়ে অভাবনীয় আগ্রহ পরিলক্ষিত হয়েছে। গোলটেবিল বৈঠকে ব্রাজিলের ‘পণ্য বাণিজ্যিকীকরণ প্রতিষ্ঠানসমূহ’ থেকে গবাধি পশু, পোল্ট্রি, তৈরি পোশাক, তুলা, কফি ও চকোলেট তৈরির সাথে সংশ্লিষ্ট প্রতিনিধিরা অংশগ্রহণ করেন। পররাষ্ট্রপ্রতিমন্ত্রী জনাব শাহরিয়ার আলমের এই সফর বাংলাদেশ-ব্রাজিলের বাণিজ্য ও বিনিয়োগের ক্ষেত্রে নতুন দিগন্তের সূচনা করবে বলে আশা করা হচ্ছে।






«
Next
Newer Post
»
Previous
Older Post

No comments:

Leave a Reply