Sponsor



Slider

বিশ্ব

জাতীয়

রাজনীতি


খেলাধুলা

বিনোদন

ফিচার


যাবতীয় খবর

জিওগ্রাফিক্যাল

ফেসবুকে মুজিবনগর খবর

» » » রাহুল দ্রাবিড়ের রাগ শোয়েব আখতারকে অবাক করেছিল




রাহুল দ্রাবিড় ও শোয়েব আখতার তর্কে জড়িয়ে পড়েছিলেন। ফাইল ছবি যতবারই ভারতীয় ক্রিকেট দল পাকিস্তানের মুখোমুখি হয়, ভক্তদের পাশাপাশি বিশেষজ্ঞরাও আলোচনায় মেতে ওঠেন। এমনকি খেলোয়াড়রাও চাপ অনুভব করেন। ভারত ও পাকিস্তানের মধ্যে ২০০৪ সালের চ্যাম্পিয়নস ট্রফির ম্যাচের সময় এমন একটি ঘটনা ঘটেছিল, যেখানে শান্ত রাহুল দ্রাবিড় তারকা পেসার শোয়েব আখতারের সঙ্গে তর্কে জড়িয়ে পড়েন। ঘটনাটি শোয়েবকে অবাক করেছিল, কারণ দ্রাবিড় এমন একজন হিসাবে জানতেন যিনি সবসময় শান্ত থাকতেন। সামাজিক যোগাযোগমাধ্যমে স্টার স্পোর্টসের পোস্ট করা একটি ভিডিওতে শোয়েব আখতার বলেন, ‘সেই ম্যাচে, তিনি (রাহুল দ্রাবিড়) আমার সাথে কথা বলতে চেয়েছিলেন, কারণ আমরা একে অপরের সাথে দৌড়ে গিয়েছিলাম এবং আমরা তর্কে জড়িয়ে পড়েছিলাম। তার আগে মোহাম্মদ কাইফ... আমি দৌড়ে গিয়েছিলাম, আমি বল দেওয়ার আগে, সে (কাইফ) সরে গিয়েছিল। আমি তাকে কিছু বলিনি কিন্তু আমি সত্যিই রাগান্বিত ছিলাম। তাই আমি তাকে আউট করি এবং তারপর আমি যুবিকে আউট করি। আমরা সেই ম্যাচে জিতে ছিলাম।’ পাকিস্তানের সাবেক তারকা আরও বলেন, “রাহুল দ্রাবিড় আমার দিকে ছুটে আসে। আমরা তর্কে জড়িয়ে পড়েছিলাম। রাহুল দ্রাবিড় রেগে যায়। আমি বললাম, 'রাহুল, আক্রমণাত্মক? কীভাবে? আমি জানি জলবায়ু বদলাচ্ছে, কিন্তু তুমিও?' অবশ্য রাহুল একজন ভদ্রলোক। কিন্তু সেই স্পেল আমি সত্যিই দ্রুত বল করেছি।” সেই ম্যাচে ভারত প্রথমে ব্যাট করে ৪৯.৫ ওভারে ২০০ রানে অলআউট হয়ে যায়। দ্রাবিড়ের ৬৭ রান সর্বোচ্চ স্কোর। ম্যাচে চার উইকেট নেন শোয়েব। কম স্কোর তাড়া করেও, পাকিস্তান ৪৯.২ ওভারে লক্ষ্যে পৌঁছায়। জিতে তিন উইকেটে। পাকিস্তানের পক্ষে সর্বোচ্চ ৮১ রান করেন।






«
Next
Newer Post
»
Previous
Older Post

No comments:

Leave a Reply