Sponsor



Slider

বিশ্ব

জাতীয়

রাজনীতি


খেলাধুলা

বিনোদন

ফিচার


যাবতীয় খবর

জিওগ্রাফিক্যাল

ফেসবুকে মুজিবনগর খবর

» » » » জাতিসংঘের অধিবেশনের মধ্যেই এরদোগান-লাপিদের বৈঠক




যুক্তরাষ্ট্রের নিউইয়র্কে জাতিসংঘের সাধারণ অধিবেশনের ফাঁকে বৈঠক করেছেন তুরস্কের প্রেসিডেন্ট রিসেপ তাইপ এরদোগান ও ইসরাইলের প্রধানমন্ত্রী ইয়ার লাপিদ। ২০০৮ সালের পর যুক্তরাষ্ট্রের এ দুই মিত্র দেশের নেতারা মঙ্গলবার (২০ সেপ্টেম্বর) প্রথমবারের মতো বৈঠকে মিলিত হন বলে লাপিদের দফতর জানিয়েছে। খবর রয়টার্স। বার্তাসংস্থা রয়টার্সের প্রতিবেদনে বলা হয়েছে, ফিলিস্তিন প্রশ্নে দীর্ঘদিন ধরে তুরস্ক ও ইসরাইলের মধ্যে বৈরী সম্পর্ক বিরাজমান ছিল। সম্প্রতি তাদের মধ্যে সম্পর্ক উষ্ণ হতে শুরু করেছে। দুই দেশের মধ্যে সহযোগিতার ক্ষেত্রে জ্বালানি মূল বিষয় হয়ে দাঁড়িয়েছে। ২০১৮ সালে প্রত্যাহারের পর গত সোমবার (১৯ সেপ্টেম্বর) আবার নতুন করে আঙ্কারায় রাষ্ট্রদূত নিয়োগ দেয় ইসরাইল। ইসরাইলের প্রধানমন্ত্রীর দফতর জানিয়েছে, জ্বালানি নিয়ে আলোচনার পাশাপাশি দুই দেশের মধ্যে গোয়েন্দা তথ্যবিনিময় শুরু হয়েছে। এ জন্য তুরস্কের প্রেসিডেন্ট এরদোগানকে ধন্যবাদ জানিয়েছেন লাপিদ। বৈঠকে নিখোঁজ চার ইসরাইলি নাগরিককে ফিরিয়ে দেওয়ার বিষয়েও আলোচনা হয়েছে। জানা যায়, নিখোঁজ ওই চার ইসরাইলির মধ্যে দুই সেনা সদস্য। তারা ২০১৪ সালে যুদ্ধ চলাকালে ফিলিস্তিনের গাজা ভূখণ্ডে নিখোঁজ হয়েছিলেন। আরও পড়ুন: ইসরাইলের প্রতি বন্ধুত্বের হাত বাড়ালেন এরদোগান ন্যাটো সদস্য তুরস্ক বরাবরই ফিলিস্তিনির রাজনৈতিক দল হামাস সদস্যদের আশ্রয় দিয়ে আসছে। পশ্চিমারা গাজা শাসনকারী হামাসকে সন্ত্রাসী গোষ্ঠী হিসেবে চিহ্নিত করেছে। হামাসের সঙ্গে তুরস্কের ঘনিষ্ঠতার কারণেই এত দিন দেশ দুটির মধ্যে সম্পর্কের উন্নতি হয়নি। এর আগে ২০১০ সালে ইসরাইলের মেরিন সেনারা তুরস্কের ১০ মানবাধিকারকর্মীকে গুলি করে হত্যা করেছিল। বৈঠকের সময় এ ঘটনাটিও আলোচিত হয় বলে লাপিদের দফতর জানিয়েছে। চলতি বছরের নভেম্বরে তুরস্কে সংসদ নির্বাচন অনুষ্ঠিত হবে। এ নির্বাচনের পর ইসরাইল সফরে যাওয়ার পরিকল্পনা রয়েছে তুরস্কের প্রেসিডেন্ট রিসেপ তাইপ এরদোগানের।






«
Next
Newer Post
»
Previous
Older Post

No comments:

Leave a Reply