Sponsor



Slider

বিশ্ব

জাতীয়

রাজনীতি


খেলাধুলা

বিনোদন

ফিচার


যাবতীয় খবর

জিওগ্রাফিক্যাল

ফেসবুকে মুজিবনগর খবর

» » » » যে কারণে মৃত্যুর ১৭ মাস পর সমাহিত হলেন প্রিন্স ফিলিপ




মৃত্যুর ১৭ মাস পর রানি দ্বিতীয় এলিজাবেথের সঙ্গেই সমাহিত হলেন প্রিন্স ফিলিপ। গত বছরের ৯ এপ্রিল মারা যান ফিলিপ। তখন থেকেই তার মরদেহ সংরক্ষণ করা হয় রয়্যাল ভল্টে। স্ত্রী রানি দ্বিতীয় এলিজাবেথের সঙ্গেই যেন সমাহিত করা যায়, সেজন্য গত বছরের ৯ এপ্রিল মারা যাওয়ার পর থেকে প্রিন্স ফিলিপের মরদেহ রয়্যাল ভল্টে সংরক্ষিত ছিল। অবশেষে সেই অপেক্ষার অবসান হলো। ১১ দিনের আনুষ্ঠানিকতা শেষে স্থানীয় সময় সোমবার (১৯ সেপ্টেম্বর) সন্ধ্যায় সেন্ট জর্জ চ্যাপেলে রয়্যাল ভল্টে রাখা হয় রানির মরদেহ। সন্ধ্যা সাড়ে ৭টা নাগাদ রাজ পরিবারের সদস্যদের উপস্থিতিতে স্বামী ফিলিপের সঙ্গে সমাহিত হন রানি। বেশিরভাগ রাজা-রানিকে সেন্ট জর্জ চ্যাপেলে সমাহিত করা হয়েছে। এর মধ্যে রয়েছেন রাজা অষ্টম হেনরি, যিনি ১৫৪৭ সালে মারা যান। সমাহিত করা হয়েছে রাজা প্রথম চার্লসকেও, যাকে ১৬৫৯ সালে মৃত্যুদণ্ড দেয়া হয়েছিল। আরও পড়ুন: শোক-ভালোবাসায় চিরশায়িত রানি দ্বিতীয় এলিজাবেথ রয়্যাল কালেকশন ট্রাস্ট ওয়েবসাইটের তথ্য অনুসারে, উইলিয়াম দ্য কনকুয়েরর ১১ শতকে উইন্ডসর ক্যাসেল নির্মাণ করেছিলেন। এটিকে বলা হয় বিশ্বের প্রাচীনতম এবং বৃহত্তম দখল করা দুর্গ। রানি দ্বিতীয় এলিজাবেথসহ ৪০ জন ব্রিটিশ রাজ এ দুর্গকে বাসভবন হিসেবে ব্যবহার করেছেন। রানি দ্বিতীয় এলিজাবেথ ১৯৬২ সালে উইন্ডসর ক্যাসেলের ভেতরে তার বাবা রাজা ষষ্ঠ জর্জের নামে ‘রাজা ষষ্ঠ জর্জ মেমোরিয়াল চ্যাপেল’ চালু করেন। এটি মূল চ্যাপেলের পাশেই অবস্থিত। এখানে সমাধিস্থ করা হয়েছে রাজা ষষ্ঠ জর্জ, তার স্ত্রী রানি মা এবং তাদের ছোট মেয়ে প্রিন্সেস মার্গারেটকে। উইন্ডসর ক্যাসেলের ভেতরে সেন্ট জর্জ চ্যাপেলের নির্মাণের কাজ শুরু হয়েছিল ১৪৭৫ সালে। রাজা চতুর্থ এডওয়ার্ড এটি শুরু করেছিলেন।






«
Next
Newer Post
»
Previous
Older Post

No comments:

Leave a Reply