Sponsor



Slider

বিশ্ব

জাতীয়

রাজনীতি


খেলাধুলা

বিনোদন

ফিচার


যাবতীয় খবর

জিওগ্রাফিক্যাল

ফেসবুকে মুজিবনগর খবর

» » » » » দারুণ বোলিংয়ে ডাচদের চাপে রেখেছে বাংলাদেশ




বাংলাদেশ ও নেদারল্যান্ডেসর মধ্যকার ম্যাচ। ছবি : সংগৃহীত ব্যাটিংটা মন মতো হয়নি বাংলাদেশের। অল্পতেই থেমে গেছে নেদারল্যান্ডসের সামনে। কিন্তু বোলিংটা শুরু হয়েছে দারুণভাবে। ইনিংস প্রথম ওভারের প্রথম দুই বলেই জোড়া উইকেট তুলে তাসকিন আহমেদ। রানের খাতা খোলার আগেই দুই উইকেট হারিয়েছে নেদারল্যান্ডস। তাসকিনের জোড়া ধাক্কার পর সাকিব আল হাসানের ওভারে রান আউট হয়ে আরও দুজন ফিরেছেন। দ্রুত উইকেট হারানোর চাপ সামলে প্রতিরোধ গড়ার চেষ্টায় ছিল নেদারল্যান্ডস। সেই চেষ্টা ভেঙে ডাচদের চাপে রেখেছেন হাসান-তাসকিনরা। আজ সোমবার বিশ্বকাপের সুপার টুয়েলভে নিজেদের প্রথম ম্যাচে নেদারল্যান্ডসের বিপক্ষে নির্ধারিত ২০ ওভারে ৮ উইকেটে ১৪৪ রান করেছে বাংলাদেশ। দলের পক্ষে সর্বোচ্চ ৩৮ রান করেছেন আফিফ হোসেন। হোবার্টের বেলেরিভ ওভালে টসের জয়ের সুবিধা লুফে নেয় নেদারল্যান্ডস। বৃষ্টি সিগ্ধ আবহাওয়ায় বাংলাদেশকে ব্যাটিংয়ে পাঠায় তারা। এরপর চেপে ধরে বোলিং দিয়ে। যদিও ইনিংসের শুরুটা ভালো করে বাংলাদেশ। ওপেনিং জুটিতে ৪৭ রান করেন শান্ত ও সৌম্য। এই জুটি ভাঙলেই এলোমেলো হয়ে যায় সব। ইনিংসের ষষ্ঠ ওভারে সৌম্যর বিদায়ে জুটি ভাঙে। পল ফন মিকেরেনের শর্ট বলে মিডউইকেটে সহজ ক্যাচ দিয়ে ফেরেন বাঁহাতি ওপেনার। ১৪ বলে দুই চারে ১৪ রান করেন সৌম্য। পরের ওভারের প্রথম বলে ফেরেন শান্ত। বাঁহাতি স্পিনার টিম প্রিঙ্গলের বলে ছক্কা মারতে গিয়ে তিনিও ক্যাচ দেন মিডউইকেটে। ২০ বলে ২৫ রান করেন শান্ত। এরপর উইকেটে এলেন আর গেলেন সাকিব আল হাসান ও লিটন দাস। ফন বিকের শর্ট অব লেংথ বলে কাটা পড়েন লিটন (৯)। এরপর সাজঘরের পথে হাঁটেন সাকিব(৭)। হাল ধরতে পারেননি ইয়াসিরও। তিনি বোল্ড হয়ে ফেরেন ৩ রানে। ৭৬ রানে ৫ উইকেট হারানোর পর চরম চাপে পড়ে যায় বাংলাদেশ। সেখান থেকে উদ্ধার করতে জুটি বাধেন আফিফ ও সোহান। এই জুটিতে ৪৪ রান করেন দুজন। আফিফ ফিরে যান ৩৮ রানে আর সোহান ফেরেন ১৩ রানে। দ্রুত উইকেট হারানোর মিছিলে শেষ পর্যন্ত কোনো মতে ১৪৪ রানের পুঁজি পায় বাংলাদেশ






«
Next
Newer Post
»
Previous
Older Post

No comments:

Leave a Reply