Sponsor



Slider

বিশ্ব

জাতীয়

রাজনীতি


খেলাধুলা

বিনোদন

ফিচার


যাবতীয় খবর

জিওগ্রাফিক্যাল

ফেসবুকে মুজিবনগর খবর

» » » » আমরা ফেভারিট না, বিশ্বকাপ জিততেও আসিনি: সাকিব




জিম্বাবুয়েকে ব্রিসবেন ছেড়ে অ্যাডিলেডে পা রাখার পর সোমবার বিশ্রামে কাটিয়েছেন ক্রিকেটাররা। মানসিকভাবে চাঙা রাখতেই টাইগারদের অনুশীলন বাতিল করে টিম ম্যানেজমেন্ট। সেমিফাইনালের রেসে টিকে থাকার লড়াইয়ে আগামীকাল (বুধবার) ভারতের বিপক্ষে নামবে বাংলাদেশ। অ্যাডিলেডে দুপুর ২টায় শুরু হবে ম্যাচটি। বিশ্বকাপের তিন ম্যাচ থেকে দুইটিতে জয় তুলে নিয়ে সেমিফাইনালের রেসে রয়েছে টাইগাররা। তবে সেমিফাইনাল খেলতে বাংলাদেশকে পাড়ি দিতে হবে এশিয়ার দুই পরাশক্তি ভারত ও পাকিস্তানকে। এই যখন অবস্থা ম্যাচের আগের দিন ভারতের বিপক্ষে নামার আগে সংবাদ সম্মেলনে বাংলাদেশ অধিনায়ক জানান, ভারত ফেভারিট দল, তারা এখানে বিশ্বকাপ জিততে এসেছে। আমরা ফেভারিট না, বিশ্বকাপ জিততেও আসিনি। মঙ্গলবার (১ নভেম্বর) ম্যাচ পূর্ব সংবাদ সম্মেলনে হাজির হয়ে উপস্থিত সাংবাদিকদের একথা বলেন টাইগার অধিনায়ক সাকিব আল হাসান। সংবাদ সম্মেলনে এক প্রশ্নের জবাবে সাকিব বলেন, আমরা দুটা ম্যাচ জিতেছি। বাকি আরও দুটো ম্যাচ আছে। পরবর্তী লক্ষ্য দুইটা ম্যাচ খুব ভালোভাবে খেলা। দুইটা ম্যাচের কোনটা যদি জিততে পারি সেটা আপসেট হিসাবেই গণ্য হবে। সেই আপসেটটা যদি আমরা করতে পারি আমরা খুশি হবো। না করতে পারলেও অবশ্য খুব বেশি কিছু বলার নেই। কাগজে কলমে যদি দেখেন দুই দলই আমাদের চেয়ে অবশ্যই ভালো। তবে আমরা যদি ভালো খেলি, আমাদের যদি দিন থাকে তাহলে কেনো জিততে পারবো না? এই বিশ্বকাপে আমরা দেখেছি আয়ারল্যান্ড ইংল্যান্ডকে হারিয়েছে, পাকিস্তানকে জিম্বাবুয়ে হারিয়েছে। সুতরাং ওরকম একটা ফল হলে অবশ্যই আমরা খুশি হবো। এরপর ভারতকে ম্যাচে ফেভারিটের তকমা দিয়ে সাকিব বলেন, ভারত ফেভারিট দল, তারা এখানে বিশ্বকাপ জিততে এসেছে। আমরা ফেভারিট না, বিশ্বকাপ জিততেও আসিনি। আপনি পরিস্থিতি বুঝতে পারছেন। আমরা এটা ভালোভাবেই জানি, যদি ভারতকে হারাই সেটা হবে আপসেট; আমরা নিজেদের সেরা ক্রিকেট খেলে সেটাই করতে চাই। আরও পড়ুন: লঙ্কানদের সামনে আফগানিস্তানের ফাইটিং স্কোর ভারত ম্যাচ বিশেষ কি না জানতে চাইলে তিনি বলেন, বিশ্বকাপের প্রথম ম্যাচের আগে যেমন বলেছি। প্রতিটি ম্যাচই গুরুত্বপূর্ণ, সবগুলোতে একই অ্যাপ্রোচে খেলতে চাই। কোন দেশের সঙ্গে কোন পরিস্থিতিতে খেলা হচ্ছে এগুলো নিয়ে চিন্তা করতে চাই না। তাই আমাদের একই পরিকল্পনা থাকবে। ভারতের বিপক্ষে একজন বাড়তি বোলার খেলানোর কোনও চিন্তা আছে কিনা জানতে চাইলে সাকিব বলেন, দেখুন দলে বোলারদের ঘাটতি থাকলে তো আমরা ২০ ওভার বল করতে পারতাম না। এ বছর জিম্বাবুয়ের বিপক্ষে মোসাদ্দেক মনে হয় একবার ৫ উইকেটেও পেয়েছে। টি-টোয়েন্টিতে ৫ উইকেট পাওয়া খুবই রেয়ার ক্যাস, সেখানে ৫ উইকেট পাওয়া একজন বোলারকে আপনি (সাংবাদিক) যদি অকেশনাল বলেন তাহলে ঠিক না। এখন পর্যন্ত ১১ টি-টোয়েন্টি খেলে ভারতের বিপক্ষে বাংলাদেশ জয় পেয়েছে কেবল ১টিতে। তবে ভারতের বিপক্ষে ম্যাচের আগে ক্রিকেটার বা দর্শক সবার মাঝে বাড়তি এক উত্তেজনা দেখা যায়। সাকিব অবশ্য তেমন কিছু অনুভব করছেন না। বরং বিশ্বকাপ শুরুর আগে বলা কথাতেই থাকছেন তিনি। ভারতের বিপক্ষে ম্যাচ আলাদা কিছু নয় তার কাছে।






«
Next
Newer Post
»
Previous
Older Post

No comments:

Leave a Reply