Sponsor



Slider

বিশ্ব

জাতীয়

সাম্প্রতিক খবর


খেলাধুলা

বিনোদন

ফিচার

mujib

w

যাবতীয় খবর

জিওগ্রাফিক্যাল

ফেসবুকে মুজিবনগর খবর

» » » » ভবন থেকে ফেলে দুই সন্তান হত্যা, ঘাতক বাবা ও তার বান্ধবীর মৃত্যুদণ্ড কার্যকর




ভবনের ১৫ তলা থেকে ছুড়ে ফেলে নিজের দুই সন্তানকে হত্যা করেন এক বাবা। নির্মম ও ঘৃণ্য এই কাজে তাকে প্ররোচিত করেন তার বান্ধবী। এই অপরাধে তাদের উভয়েরই মৃত্যুদণ্ড কার্যকর করা হয়েছে। চীনা নাগরিক ঝাং বো ও তার বান্ধবী ইয়ে চেংচেং। ছবি: সংগৃহীত শুক্রবার (২ ফেব্রুয়ারি) এক প্রতিবেদেনে বিবিসি জানিয়েছে, ২০২০ সালে আবাসিক একটি ভবনের ১৫ তলা থেকে ছুড়ে ফেলে নিজের দুই শিশু সন্তানকে হত্যা করেন চীনের দক্ষিণপশ্চিমাঞ্চলীয় শহর চংকিংয়ের অধিবাসী ঝাং বো। আর তাকে এই হত্যাকাণ্ডে প্রচারণা দেন তার বান্ধবী ইয়ে চেংচেং। ভয়াবহ এই হত্যাকাণ্ডের পর তাদের গ্রেফতার করা হয়। এরপর ২০২১ সালে ঝাং ও চেনচেংকে মৃত্যুদণ্ড দেয় চীনের একটি আদালত। তবে আপিল নিষ্পত্তিতে অনেকটা সময় কেটে যায়। আপিলে হেরে যাওয়ায় চলতি সপ্তাহে তাদের মৃত্যুদণ্ড কার্যকর করা হয়েছে। আইনগতভাবে বৈধ বিষাক্ত ইনজেকশন প্রয়োগ করে ঝাং ও চেংচেনের মৃত্যুদণ্ড কার্যকর করা হয়। ২০২০ সালে ঝাংয়ের সঙ্গে তার স্ত্রীর বিচ্ছেদ হয়। সে সময় তাদের দুই সন্তানের একজনের বয়স ছিল ১ বছর। আরেকজনের বয়স ২। সন্তানরা অল্পবয়সী হওয়ায় মায়ের সঙ্গে যায়। প্রতিবেদন মতে, স্ত্রীর সঙ্গে ছাড়াছাড়ির পর চেংচেনের সঙ্গে প্রেমের সম্পর্ক গড়ে ওঠে ঝাংয়ের। তবে শুরু থেকে নিজের বিবাহিত জীবন ও দুই সন্তানের কথা বান্ধবীর কাছে গোপন করেন তিনি। চেনচেং যখন ঝাংয়ের স্ত্রী–সন্তান থাকার কথা জানতে পারেন, তখন তিনি ঝাংকে বিবাহবিচ্ছেদের জন্য চাপ দেন। এরপর তিনি তাকে তার দুই সন্তানকে হত্যার কুবুদ্ধি দেন। আরও পড়ুন: মৃত্যুদণ্ড কার্যকরে কেন নাইট্রোজেন গ্যাস প্রয়োগ করল যুক্তরাষ্ট্র? যদিও হত্যার অভিযোগ অস্বীকার করেন ঝাং। শুনানিতে আত্মপক্ষ সমর্থন করে তিনি বলেছিলেন, ১৫ তলা থেকে দুই সন্তান পড়ে গিয়েছিল। ওই সময় তিনি ঘুমাচ্ছিলেন। নিচ থেকে চিৎকার ও হইচই শুনে তার ঘুম ভেঙে যায়। পরে তিনি দুই সন্তানকে মৃত অবস্থায় দেখতে পান। তবে শিশু দুটির মা অভিযোগ করেন, ওই দিন ঝাং সন্তানদের দেখাশোনা করবেন বলে তার কাছ থেকে নিয়ে যান। পরে ১৫ তলা থেকে ফেলে দিয়ে দুই সন্তানকে হত্যা করেন। আরও পড়ুন: ভয়ংকর যে পদ্ধতিতে মৃত্যুদণ্ড কার্যকর করছে যুক্তরাষ্ট্র ঝাংয়ের স্ত্রী বলেন, ‘যখন আমি শুনতে পাই, আমার দুই সন্তানকে ১৫ তলা থেকে ফেলে ওদের বাবা আর তার বান্ধবী মেরে ফেলেছে, তখন আমি বাক্‌রুদ্ধ হয়ে পড়েছিলাম। আমি আমার অনুভূতি প্রকাশ করতে পারছিলাম না।’






«
Next
Newer Post
»
Previous
Older Post

No comments:

Leave a Reply