sponsor

sponsor

Slider

বিশ্ব

জাতীয়

রাজনীতি

খেলাধুলা

বিনোদন

ফিচার

যাবতীয় খবর

জিওগ্রাফিক্যাল

ফেসবুকে মুজিবনগর খবর

» » » শিক্ষার্থীদের জন্য অচিরেই ইন্টারনেটের ব্যবস্থা করছে সরকার




 শিক্ষার্থীদের জন্য অচিরেই ইন্টারনেটের ব্যবস্থা করছে সরকার

করোনা মহামারীর মধ্যে শিক্ষার্থীদের কিভাবে এগিয়ে নেয়া যায় তা নিয়ে ভাবছে সরকার। এ ক্ষেত্রে তথ্যপ্রযুক্তি ব্যবহার, শ্রেণি ও পরীক্ষা গ্রহণ পদ্ধতিসহ সবকিছু মাথায় নিয়ে কর্মপন্থা নির্ধারণ করা হচ্ছে বলে সাংবাদিকদের জানিয়েছেন শিক্ষামন্ত্রী ডা. দীপু মনি।

এসময় শিক্ষার্থীরা দ্রুতই বিনামূল্যে ইন্টারনেট পেতে পারেন বলে জানিয়েছেন তিনি। সোমবার (২৭ জুলাই) সন্ধ্যায় চাঁদপুরে আরটি পিসিআর ল্যাব উদ্বোধন শেষে সাংবাদিকদের এক প্রশ্নের জবাবে শিক্ষামন্ত্রী এসব কথা বলেন।

এ সময় তিনি বলেন, একেবারে বিনামূল্যে নয়, স্বল্পমূল্যে শিক্ষার্থীদের ইন্টারনেট সুবিধা নিশ্চিত করতে বিভিন্ন মোবাইল ফোন অপারেটরদের সঙ্গে সরকার যোগাযোগ শুরু করেছে। এতে আলোচনা ফলপ্রসূ হলে হলে অচিরেই শিক্ষার্থীরা এই সুবিধা ভোগ করতে পারবে। 

শিক্ষামন্ত্রী বলেন, করোনা পরিস্থিতির কারণে শিক্ষা প্রতিষ্ঠান বন্ধ থাকলেও এতে শিক্ষার্থীরা ক্ষতির মুখে পড়বে না। তাদের যাতে কোন ধরণের সমস্যা তৈরি না হয়, সেই দিকে লক্ষ্য রেখে সরকার চিন্তা-ভাবনা করছে। 

দীপু মনি বলেন, চাঁদপুরে করোনার রোগীদের নমুনা পরীক্ষার জন্য আরটিপিসিআর ল্যাব প্রতিষ্ঠায় এবং চাঁদপুর জেনারেল হাসপাতালে হাইফ্লো ক্যানুলা ন্যাজাল এবং সেন্ট্রাল অক্সিজেন প্লান্ট স্থাপনে যারা সহযোগিতার হাত বাড়িয়ে দিয়েছেন তাদের প্রতি কৃতজ্ঞতা জানান। 

উদ্বোধনী অনুষ্ঠানে বিশেষ অতিথি ছিলেন, চট্টগ্রাম ভেটেনারি এনিমেল সাইন্স বিশ্ববিদ্যালয়ের ভিসি গৌতম বুদ্ধ দাশ। এছাড়া জেলা প্রশাসক মো. মাজেদুর রহমান খান, শিক্ষামন্ত্রীর বড়ভাই ডা. জেআর ওয়াদুদ টিপু, জেলা সিভিল সার্জন ডা. সাখাওয়াত উল্লাহ,অতিরিক্ত পুলিশ সুপার কাজী আব্দুর রহিম, জাহেদ পারভেজ চৌধুরী, বিএমএ সাধারণ সম্পাদক ডা. মাহমুদুন নবী মাসুমসহ চিকিৎসক, রাজনৈতিক দলের নেতৃবৃন্দ এতে উপস্থিত ছিলেন।

খোঁজ নিয়ে জানা গেছে, চট্টগ্রাম ভেটেনারি এনিমেল সাইন্স বিশ্ববিদ্যালয় ও চাঁদপুর মেডিকেল কলেজের সহযোগিতা নিয়ে শিক্ষামন্ত্রীর বাবা, প্রয়াত ভাষাবীর এমএ ওয়াদুদ মেমোরিয়াল ট্রাস্ট চাঁদপুরে এই আরটি পিসিআর ল্যাব স্থাপিত হয়। এতে মঙ্গলবার থেকে করোনা রোগীদের নমুনা পরীক্ষা শুরু হবে। শুধু চাঁদপুর নয়, আশপাশের জেলার রোগীরাও এই সুবিধা পাবে। একই সঙ্গে প্রতিদিনের পরীক্ষার রিপোর্ট কয়েক ঘণ্টার মধ্যে পাওয়া যাবে।






«
Next
Newer Post
»
Previous
Older Post

No comments:

Leave a Reply