sponsor

sponsor

Slider

বিশ্ব

জাতীয়

রাজনীতি

খেলাধুলা

বিনোদন

ফিচার

যাবতীয় খবর

জিওগ্রাফিক্যাল

ফেসবুকে মুজিবনগর খবর

» » » এখন থেকে সাশ্রয়ী মূল্যে অনলাইনে মিলবে টিসিবি’র পণ্য’




রমজান উপলক্ষ্যে ই-কমার্স সাইট বা অনলাইনে ট্রেডিং করপোরেশন অব বাংলাদেশের (টিসিবি) চারটি পণ্য (তেল, ছোলা, ডাল ও চিনি) বিক্রির উদ্যোগ নেওয়া হয়েছে। সোমবার (২৬ এপ্রিল) এই কার্যক্রমের উদ্বোধন করেন বাণিজ্যমন্ত্রী টিপু মুনশি। বাণিজ্য মন্ত্রণালয় ও ই-কমার্স অ্যাসোসিয়েশন অব বাংলাদেশের (ই-ক্যাব) তত্ত্বাবধানে এই কার্যক্রম পরিচালিত হবে। গত সেপ্টেম্বর থেকে শুরু হওয়া অনলাইন পেঁয়াজ বিক্রি কার্যক্রমের সফলতার ধারাবাহিকতায় বাণিজ্য মন্ত্রণালয় ‘টিসিবি সেবা সপ্তাহে’ এই উদ্যোগ গ্রহণ করে। রমজান উপলক্ষে তেল, ছোলা, ডাল ও চিনি অনলাইনে বিক্রয় কার্যক্রমের উদ্বোধনী অনুষ্ঠানে বিশেষ অতিথি ছিলেন বাণিজ্য মন্ত্রণালয়ের সিনিয়র সচিব ড. মো. জাফর উদ্দীন। অনুষ্ঠানে সভাপতিত্ব করেন ই-ক্যাবের প্রেসিডেন্ট শমী কায়সার। বাণিজ্য মন্ত্রী বলেন, ‘ই-ক্যাব বিগত বছর বিভিন্ন সময়ে যেসব পদক্ষেপ নিয়েছে এসবের সফলতা শুধু ই-কমার্স সেক্টরকে অন্য উচ্চতায় নিয়ে গেছে তা নয় বরং দেশের সার্বিক অর্থনীতিতে এর প্রভাব পড়েছে। বাণিজ্য মন্ত্রণালয় থেকে আমরা এসব কাজে সহযোগিতার চেষ্টা করেছি।’ মন্ত্রী এই কার্যক্রমের সঙ্গে সংশ্লিষ্ট সবাইকে ধন্যবাদ জানান। ই-কমার্স ডেলিভারি সেবায় নিয়োজিত কর্মীদের জীবনের ঝুঁকি নিয়ে সেবা দেওয়ায় তাদের প্রশংসাও করেন। বিশেষ অতিথির বক্তব্যে সিনিয়র সচিব বলেন, “আমরা ই-ক্যাবের মাধ্যমে টিসিবি’র পণ্যগুলো যেমন-তেল, চিনি, ডাল ও ছোলা মধ্যবিত্ত ক্রেতাদের জন্য আজ থেকে অনলাইনে সাশ্রয়ী মূল্যের বিক্রির সুযোগ করে দিয়েছি। টিসিবি’র এই পণ্যগুলোতে সরকারের ভর্তুকি রয়েছে। আমরা আশা করবো যেসব প্রতিষ্ঠান এসব পণ্য বিক্রয়ের দায়িত্ব পাবে তারা যেন দরিদ্র এলাকাগুলো এবং মধ্যবিত্ত ক্রেতাদের প্রাধান্য দেয় এবং এক ক্রেতা বেশি পণ্য কিনতে না পারে সেদিকে লক্ষ্য রাখে। এজন্য বাণিজ্য মন্ত্রণালয় পণ্যের দাম, ডেলিভারি চার্জ ও ক্রয়সীমা ঠিক করে দিয়েছে।’ এই কার্যক্রমের প্রধান নির্বাহী এবং আমদানি ও রফতানি বাণিজ্য বিভাগের অতিরিক্ত সচিব এএইচএম সফিকুজ্জামান বলেন, ‘বাজারের চেয়ে অনেক কম দামে পণ্য কিনতে পারবেন ক্রেতারা। তেল ১০৮ টাকা, ছোলা, চিনি ও ডাল ৫৮ টাকায় ক্রয় করতে পারবেন। যেহেতু এটাতে সরকারের সহযোগিতা রয়েছে তাই আমরা একটা নির্দিষ্ট পরিমাণই কেবল দিতে পারব।’ ই-ক্যাবের প্রেসিডেন্ট শমী কায়সার বলেন, ‘করোনাকালীন যেকোনো সমস্যায় বাণিজ্য মন্ত্রণালয় দ্রুত সমাধান ও সিদ্ধান্ত দিয়েছে। বিশেষ করে পেঁয়াজের বাজার দর বাড়ার যে আশঙ্কা ছিল গত বছর সেখানে পেঁয়াজের মূল্যকে জনগণের নাগালে রাখতে ই-ক্যাব থেকে আমরা কাজ করেছি। আমাদের এই কাজ করার সুযোগ করে দিয়েছে বাণিজ্য মন্ত্রণালয় ও টিসিবি। আমি আশা করি এবারও আমাদের অনুমোদিত প্রতিষ্ঠানগুলো লাভহীন এই সেবা দিয়ে এই পবিত্র রমযানে এবং করোনাকালীন সময়ে মানুষের পাশে থাকবে।’ উল্লেখ্য, পণ্যসমূহের দাম তেল ১০৮ টাকা লিটার, ছোলা, ডাল ও চিনি ৫৮ টাকা কেজি দরে অনলাইনে বিক্রি হবে। যদিও টিসিবি’র ট্রাক সেল থেকে এই দাম একটু বেশি ধরা হয়েছে। তবে একজন ক্রেতা সর্বোচ্চ ৫ লিটার তেল ও অন্যান্য পণ্য ৩ কেজি করে কিনতে পারবেন। ডেলিভারি চার্জ সর্বোচ্চ ঢাকায় ৩০ টাকা, ঢাকার বাইরে ৪০ টাকা। তবে কয়েকটি প্রতিষ্ঠান কোনো ডেলিভারি চার্জ নিবে না। ঢাকায় ৩টি প্রতিষ্ঠান আজ থেকে এসব পণ্য বিক্রি করবে। যেমন চালডাল, স্বপ্ন ও ওয়ানস্টপ সুপারশপ। বাকি সবজি বাজার, যাচাই ও কেজী ক্লিকে কাল থেকে পণ্য পাওয়া যাবে। এছাড়া সিরাজগঞ্জ ও টাঙ্গাইলের ১টি করে প্রতিষ্ঠান রয়েছে। গত বছরের পেঁয়াজ কার্যক্রমের সফলতার ওপর প্রতিষ্ঠানগুলোকে নির্বাচন করা হয়েছে।






«
Next
Newer Post
»
Previous
Older Post

No comments:

Leave a Reply