sponsor

sponsor


Slider

বিশ্ব

জাতীয়

রাজনীতি


খেলাধুলা

বিনোদন

ফিচার


যাবতীয় খবর

জিওগ্রাফিক্যাল

ফেসবুকে মুজিবনগর খবর

» » » » মন্ত্রিত্ব নয়, নারীর কাজ সন্তান জন্ম দেওয়া : তালেবান মুখপাত্র




তালেবান আফগানিস্তানে পুরুষ-সর্বস্ব সরকারের ঘোষণা দেওয়ার পর রাজধানী কাবুলসহ আফগানিস্তানের বিভিন্ন অংশে নারীরা বিক্ষোভ করছেন। ছবি : সংগৃহীত নারীরা মন্ত্রী হতে পারবে না, তাদের কাজ সন্তান জন্ম দেওয়া। তালেবানের মুখপাত্র সাঈদ জাকরুল্লাহ হাশিমি এক সাক্ষাৎকারে এমনটাই বলেছেন। কয়েকদিন আগে আফগানিস্তানে অন্তবর্তীকালীন সরকার গঠন করেছে তালেবান। সেই সরকারে কোনো নারী নেই। এ নিয়ে জিজ্ঞাসা করা হলে তালেবানের মুখপাত্র জাকরুল্লাহ হাশিমি স্থানীয় সংবাদমাধ্যম টোলো নিউজকে এমনটাই বলেছেন। তার এই বক্তব্যের ভিডিও ব্যাপকভাবে শেয়ার হচ্ছে সামাজিক যোগাযোগ মাধ্যমগুলোতে। খবর এনডিটিভির। টোলো নিউজকে তালেবান মুখপাত্র বলেন, ‘একজন নারী মন্ত্রী হতে পারে না। এটা এমন যে, আপনি তার গলায় কিছু একটা ঝুলিয়ে দিলেন, যার ভার সে বহন করতে পারে না। মন্ত্রিসভায় নারী থাকার কোনো প্রয়োজন নেই। তাদের কাজ হওয়া উচিত সন্তান জন্ম দেওয়া। বিক্ষোভরত নারীরা সব আফগান নারীরা প্রতিনিধিত্ব করে না।’ আফগানিস্তানের অর্ধেক জনগোষ্ঠী নারী এমন প্রশ্নের জবাবে তিনি বলেন, ‘কিন্তু আমরা তো তাদের অর্ধেক মনে করি না। কোন অর্ধেকের কথা বলছেন? অর্ধেককে এখানে ভুলভাবে চিহ্নিত করা হয়েছে। অর্ধেক মানে আপনি তাদের মন্ত্রিসভায় রাখেন আর কিছু নয়। আপনি যদি তার অধিকার হরণ করেন, সেটাও বিষয় নয়। গণমাধ্যম যাই বলুক গত ২০ বছরে যুক্তরাষ্ট্র ও তার পুতুল সরকারে যা হয়েছে তা কি অফিসে পতিতাবৃত্তি ছাড়া কিছু ছিল?’ সব নারীকে পতিতাবৃত্তির অভিযোগে অভিযুক্ত করতে পারেন না, এমন প্রশ্নের জবাবে তালেবান মুখপাত্র সাঈদ জাকরুল্লাহ হাশিমি বলেন, ‘আমি সব আফগান নারীর কথা বোঝাইনি। যে চার-পাঁচজন নারী রাস্তায় বিক্ষোভ করছে তারা আফগানিস্তানের সব নারীর প্রতিনিধিত্ব করে না। আফগান নারী তারাই যারা আফগানিস্তানের জন্য সন্তান জন্ম দিয়ে তাদের ইসলামি আইন অনুযায়ী নৈতিক শিক্ষায় শিক্ষিত করে তোলে।’ কেন একজন নারী মন্ত্রী হতে পারবেন না তা জানতে চাওয়া হলে তিনি আরও বলেন, ‘নারীরা সাধারণত যা করে থাকে, তাতে সে একটি মন্ত্রণালয় চালানোর যোগ্যতা রাখে না।’ উল্লেখ, তালেবান আফগানিস্তানে পুরুষ-সর্বস্ব সরকারের ঘোষণা দেওয়ার পর রাজধানী কাবুলসহ আফগানিস্তানের বিভিন্ন অংশে নারীরা বিক্ষোভ করছেন






«
Next
Newer Post
»
Previous
Older Post

No comments:

Leave a Reply