Sponsor



Slider

বিশ্ব

জাতীয়

রাজনীতি


খেলাধুলা

বিনোদন

ফিচার


যাবতীয় খবর

জিওগ্রাফিক্যাল

ফেসবুকে মুজিবনগর খবর

» » » » মালয়েশিয়ায় দ্রব্যমূল্যের ঊর্ধ্বগতি




রাশিয়া-ইউক্রেন যুদ্ধের প্রভাব পড়তে শুরু করেছে মালয়েশিয়ায়। জ্বালানি তেলসহ বাড়ছে নিত্যপণ্যের দাম। মুদ্রার দরপতনে জীবনযাত্রার ব্যয় মেটাতে হিমশিম সাধারণ মানুষ। প্রভাব পড়ছে প্রবাসী বাংলাদেশিদের জীবনযাপনেও। করোনা মহামারি কাটিয়ে বিশ্ব অর্থনীতি চাঙা হতে শুরু করলেও রাশিয়া-ইউক্রেন যুদ্ধের কারণে তা থমকে গেছে। যুদ্ধের প্রভাবে ভেঙে পড়েছে বিশ্ব বাণিজ্য। হুহু করে বাড়ছে জ্বালানি তেলসহ নিত্যপণ্যের দাম। অন্যান্য দেশের মতো মালয়েশিয়ায়ও এর প্রভাব পড়তে শুরু করেছে। প্রতিদিনই বাড়ছে দ্রব্যমূল্য। মূল্যস্ফিতির কারণে জীবনযাত্রার ব্যয় মেটাতে হিমশিম খাচ্ছেন অনেকেই। প্রবাসী বাংলাদেশি একজন ব্যবসায়ী বলেন, ‘দোকান ভাড়া, কর্মচারীর বেতন আগের তুলনায় অনেক বেড়েছে। সে অনুসারে আমাদের ব্যবসা হচ্ছে না। ব্যবসা যে কতদিন টিকবে বুঝতে পারছি না।’ আরেক ব্যবসায়ী বলেন, ‘আগে আমরা কাঁচা মরিচ কিনতাম ১২ টাকা কেজি আর এখন তা বেড়ে হয়েছে ১৮ টাকা। আগে টমেটো কিনতাম ৪ টাকা কেজি আর এখন তা দ্বিগুণ। প্রতিদিনই দ্রব্যমূল্য বৃদ্ধি পাচ্ছে।’ আরও পড়ুন: মালয়েশিয়া যেতে সেই ‘দুষ্টচক্রের’ ফাঁদে শ্রমিকরা! সংকট মোকাবিলায় এরই মধ্যে নানা পদক্ষেপ নিতে শুরু করেছে মালয়েশিয়া সরকার। মুরগি রফতানিতে জারি করা হয়েছে নিষেধাজ্ঞা। এ ছাড়া খাদ্য আমদানির ক্ষেত্রে এতদিন অনুমোদনের প্রয়োজন হলেও এখন আমদানির ক্ষেত্রে লাগবে না অনুমোদন। তবে দেশটির কৃষিখাতে শ্রমিক সংকটের কারণে আশঙ্কাজনক হারে কমে গেছে উৎপাদন। বিশেষজ্ঞরা বলছেন, পরিস্থিতি মোকাবিলায় কৃষিখাতকে সবচেয়ে বেশি সুযোগ ও অগ্রাধিকার দিতে হবে। সেই সঙ্গে বাড়াতে হবে বিনিয়োগ। নিত্যপ্রয়োজনীয় পণ্যের দাম বাড়ায় নানা শঙ্কা আর উৎকণ্ঠায় রয়েছেন দেশটিতে বসবাসরত স্বল্প আয়ের প্রবাসী বাংলাদেশিরা।






«
Next
Newer Post
»
Previous
Older Post

No comments:

Leave a Reply