Sponsor



Slider

বিশ্ব

জাতীয়

রাজনীতি


খেলাধুলা

বিনোদন

ফিচার


যাবতীয় খবর

জিওগ্রাফিক্যাল

ফেসবুকে মুজিবনগর খবর

» » » » ইউএফও দেখতে পাওয়ার সাড়ে তিন শতাধিক রিপোর্ট পেয়েছে পেন্টাগন




যুক্তরাষ্ট্রের প্রতিরক্ষা বিভাগ পেন্টাগন নতুন করে সাড়ে তিন শতাধিক আন-আইডেন্টিফায়েড ফ্লাইং অবজেক্ট বা ইউএফও দেখতে পাওয়ার রিপোর্ট পেয়েছে। ২০২১ সালের মার্চ থেকে শুরু করে ২০২২ সালের শেষ নাগাদ আইএফও দেখতে পাওয়ার মোট ৩৬৬টি ঘটনার রিপোর্ট পেয়েছে বলে জানিয়েছে পেন্টাগন। ইউএফও দেখতে পাওয়ার সাড়ে তিন শতাধিক রিপোর্ট পেয়েছে পেন্টাগন মার্কিন সম্প্রচারমাধ্যম এনবিসি নিউজের প্রতিবেদন অনুসারে, যুক্তরাষ্ট্রের ন্যাশনাল ইন্টেলিজেন্স বিভাগ জানিয়েছে, এসব ঘটনার মধ্যে অর্ধেকই প্রত্যক্ষদর্শীর কাছে বেলুন কিংবা ড্রোনের মতো আকৃতি হিসেবে ধরা দিয়েছে। এসব প্রতিবেদনের প্রাথমিক মূল্যায়ন থেকে জানা গেছে, ৩৬৬টি ঘটনার মধ্যে মোট ২৬ বার দেখা গেছে নামবিহীন বিমান কিংবা ড্রোনের মতো কোনো বস্তুকে। ১৬৩ বার বেলুন কিংবা বেলুনের মতো দেখতে কোনো বস্তুকে দেখা গেছে। এ ছাড়া পাখির মতো দেখতে কিংবা কোনো মহাকাশযানের ধ্বংসাবশেষের মতো বস্তু দেখতে পাওয়ার ঘটনা ঘটেছে ৬ বার। আরও পড়ুন: ইউএফও নিয়ে চমকপ্রদ তথ্য দিল মার্কিন কংগ্রেস তবে ন্যাশনাল ইন্টেলিজেন্স বিভাগ জানিয়েছে, এসব ঘটনা বস্তু চিহ্নিত করার মানে এই নয় যে, রহস্যের সমাধান হয়ে গেছে। প্রতিষ্ঠানটি আরও জানিয়েছে, এসব ঘটনার প্রায় অর্ধেকই শনাক্ত করা যায়নি। কারণ, এসব বস্তু উড্ডয়নের ক্ষেত্রে বেশ অনাকাঙ্ক্ষিত আচরণ দেখিয়েছে। আরও স্পষ্টভাবে জানতে বিষয়গুলো নিয়ে আরও গবেষণা প্রয়োজন। এদিকে, ইউএফও বা অজ্ঞাত উড়ন্ত বস্তু নিয়ে গুরুত্বপূর্ণ ও চমকপ্রদ তথ্য দিয়েছে মার্কিন কংগ্রেস। সম্প্রতি কংগ্রেসের এক শুনানি শেষে কর্মকর্তারা বলেছেন, এতদিন যেসব ইউএফও দেখা গেছে, তার সবই মানুষের তৈরি নয়। কংগ্রেস আরও বলেছে, ইউএফওর হুমকি দিন দিন বেড়েই চলেছে। তবে অনেকের ধারণা, এগুলো গোপন কোনো সামরিক বিমানের পরীক্ষামূলক উড্ডয়ন। আবার কেউ বলেন, এগুলো ভিনগ্রহ থেকে আসা বুদ্ধিমান প্রাণীদের নভোযান। বছরের পর বছর বিষয়টি এড়িয়ে এলেও এখন এটাকে অতি গুরুত্বের সঙ্গে দেখছে যুক্তরাষ্ট্র সরকার। শুধু তাই নয়, ৫০ বছরে ধরে যত ইউএফও দেখা গেছে, সেগুলোর ওপর সম্প্রতি প্রথমবারের মতো মার্কিন কংগ্রেসে উন্মুক্ত শুনানির আয়োজন করা হয়।






«
Next
Newer Post
»
Previous
Older Post

No comments:

Leave a Reply