Sponsor



Slider

বিশ্ব

জাতীয়

সাম্প্রতিক খবর


খেলাধুলা

বিনোদন

ফিচার

mujib

w

যাবতীয় খবর

জিওগ্রাফিক্যাল

ফেসবুকে মুজিবনগর খবর

» » » » আইপিএলের নতুন সদস্য কে এই সাকিব




২০২৪ আইপিএল নিলাম তখন একেবারে শেষপর্যায়ে চলে এসেছে। নিলামদার মল্লিকা সাগর দুবাইয়ের কোকা-কোলা অ্যারেনায় আচমকাই নামটা ঘোষণা করলেন। Advertisement কলকাতা নাইট রাইডার্স (কেকেআর) সাকিবকে দলে নিয়েছে- এ খবর মুহূর্তের মধ্যে সোশ্যাল মিডিয়ায় ছড়িয়ে পড়ে। অনেকেই প্রাথমিকভাবে ধারণা করেছিলেন বাংলাদেশ ক্রিকেট দলের অলরাউন্ডার সাকিব আল হাসান। সময় যাওয়ার সঙ্গে সঙ্গে বিষয়টা স্পষ্ট হয়ে উঠল। বিহারের গোপালগঞ্জ জেলায় ততক্ষণে উচ্ছ্বাসের বন্যা বইতে শুরু করেছে। কারণ ১৯ বছর বয়সি তাদের ঘরের ছেলেকে ২০ লাখ রুপিতে দলে নিয়েছে বলিউড সুপারস্টার শাহরুখ খানের দল কেকেআর। ভারতীয় গণমাধ্যম সূত্র জানায়, গোপালগঞ্জের সবাই জানেন, আলি আহমেদের ছেলে সাকিব হুসেন এবারের নিলামে চূড়ান্ত তালিকায় জায়গা পেয়েছেন। কিন্তু তা তো সব নয়। শুধু স্বপ্নের দোরগোড়ায় এসে দাঁড়ানো। কে জানত, রাত নামতেই উৎসব শুরু হয়ে যাবে। ঈশান কিষাণ, মুকেশ কুমারের পর বিহারের আরও এক ছেলে জায়গা পেয়ে যাবে আইপিএলে। ২০ লাখ টাকা ছিল বেস প্রাইস। তাতেই কলকাতা নাইট রাইডার্স তুলে নিল সাকিব হুসেনকে। ১৯ বছরের ডানহাতি পেসার আন্দ্রে রাসেল, মিচেল স্টার্কের টিমমেট হতেই ঢোল, ব্যান্ডপার্টি নিয়ে রাস্তায় নেমে পড়েন গোপালগঞ্জের মানুষজন। কেক কেটে কেকেআরে সুযোগ পাওয়া সেলিব্রেট করেন সাকিব। এক সাক্ষাৎকারে সাকিব বলেছেন, ‘আইপিএলের পুরো টাকাটাই পরিবারের হাতে তুলে দেব। ওরা যা খুশি তাই করতে পারে। আমি শুধু বল করার নির্দিষ্ট জুতা এবং বেশ কিছু ক্রিকেটীয় সরঞ্জাম কিনব।’ কেকেআরের হয়ে খেলবেন ভেবেই উত্তেজিত সাকিব। প্রথম একাদশে সুযোগ পাবেন কিনা তা অবশ্য জানেন না। সাকিব বলেন, ‘আমার পছন্দের ক্রিকেটার এমএস ধোনি।’ তিনি আরও বলেন, ‘ক্রিকেট খেলা শুরু করার পর কোনোদিন স্বপ্নেও ভাবিনি এমন দিন দেখতে পাব। নিলাম চলার সময় বাড়িতে বসে টিভিতে দেখছিলাম। প্রথমবার অবিক্রীত থাকার পর কোচ রবিন স্যারকে ফোন করে বলেও দিই, এবার আরও বেশি পরিশ্রম করতে হবে; কিন্তু দ্বিতীয় রাউন্ডেই বিক্রি হয়ে যাই। সবাই খুশিতে ফেটে পড়েছিল তখন।’ বিহারের বিভিন্ন বয়সভিত্তিক দলে খেলার পর সিনিয়র দলের হয়েও নজর কেড়েছেন। কে এই সাকিব হুসেন? কার জন্য ২০ লাখ টাকা খরচ করলেন গৌতম গম্ভীর? বিহারের গোপালগঞ্জের ছেলের জীবন পালটে গিয়েছিল ২০২১ সালে। পাটনায় অনুষ্ঠিত পাটনা ক্রিকেট লিগে চোখে পড়ে যান। দুরন্ত সুইংয়ের পাশাপাশি চমৎকার গতি ও লাইন-লেন্থের জন্য নজর কেড়ে নেন। তারপর আর পেছন ফিরে তাকাতে হয়নি। অনূর্ধ্ব ১৯ বিহার টিমে সুযোগ পেয়ে যান সাকিব। পারফর্ম করেন ভালো। সেখান থেকেই বেঙ্গালুরু জাতীয় ক্রিকেট একাডেমিতে নিজেকে ঘষামাজা করার সুযোগ পেয়ে যান। ২০২২ সালে আবার মুস্তাক আলি ট্রফিতে বিহারের হয়ে খেলার সুযোগ পান সাকিব। সেখানেও পারফর্ম করেন। গুজরাটের বিরুদ্ধে ২০ রান দিয়ে নেন চারটে উইকেট। তার মধ্যে নিজের চতুর্থ ওভারে নিয়েছেন দুই উইকেট। বোলার হিসেবে সাকিবের ভবিষ্যৎ যে অত্যন্ত উজ্জ্বল, তা নিয়ে কোনো সন্দেহ নেই। মুস্তাক আলিতে ভালো পারফর্ম করার পরই আইপিএল টিমগুলোর নজরে পড়ে যান সাকিব। অনেকেই তাকে নেট বোলার হিসেবে যোগ দিতে বলেছিলেন। সাকিব বেছে নেন মহেন্দ্র সিং ধোনির টিম চেন্নাই সুপার কিংস। ভুল যে করেননি, তা প্রমাণ হয়ে যাচ্ছে। নেটে সাকিবের প্রতিভা দেখে প্রশংসাও করেছেন ধোনি। ভারতের সাবেক ক্যাপ্টেন সৌরভ গঙ্গোপাধ্যায়ও তার বোলিংয়ের প্রশংসা করেছে






«
Next
Newer Post
»
Previous
Older Post

No comments:

Leave a Reply