Sponsor



Slider

বিশ্ব

জাতীয়

সাম্প্রতিক খবর


খেলাধুলা

বিনোদন

ফিচার

mujib

w

যাবতীয় খবর

জিওগ্রাফিক্যাল

ফেসবুকে মুজিবনগর খবর

» » » » যুক্তরাষ্ট্রকে মাত্র ১ ঘণ্টায় ধ্বংস করতে পারে রাশিয়া!




রাশিয়া মাত্র ১ ঘণ্টায় যুক্তরাষ্ট্রকে ধ্বংস করে দিতে পারে বলে সম্প্রতি এক বিবৃতিতে দাবি করেছেন ক্রেমলিনপন্থি রুশ সম্পাদক মার্গারিটা সিমোনিয়ান। তবে এ বিষয়ে এখনো কোনো মন্তব্য করেনি মার্কিন প্রশাসন। রাশিয়া-যুক্তরাষ্ট্রের সম্পর্ক তলানিতে ঠেকেছে ইউক্রেনে রুশ অভিযান শুরুর পর। ফাইল ছবি সোমবার (৫ ফেব্রুয়ারি) এক প্রতিবেদনে এ খবর জানিয়েছে মার্কিন সাপ্তাহিক নিউজ ম্যাগাজিন নিউজউইক। বহু বছর ধরেই বৈরী সম্পর্ক বিশ্বের দুই পরাশক্তি যুক্তরাষ্ট্র এবং রাশিয়ার। তবে, সময়ের সঙ্গে সঙ্গে সম্পর্কের বরফতো গলেই নি, উল্টো তা আরও বেশি তিক্ততায় রুপ নিয়েছে। দেশ দুটির সম্পর্ক সবচেয়ে বেশি তলানিতে ঠেকেছে ইউক্রেনে রাশিয়ার সামরিক অভিযান শুরুর পরে। আরও পড়ুন: যুক্তরাষ্ট্র /গ্যারেজে মিললো পারমাণবিক ক্ষেপণাস্ত্র! মস্কোর চোখ রাঙানি উপেক্ষা করে ঢালাওভাবে কিয়েভকে সমর্থন দিয়ে যাচ্ছে ওয়াশিংটন, করছে সহায়তাও। এছাড়া, ক্রেমলিনের বিভিন্ন প্রতিষ্ঠান ও সরকারি কর্মকর্তাদের ওপর নিষেধাজ্ঞা দিয়েছে বাইডেন প্রশাসন। দুই পরাশক্তির মধ্যে চলমান এ তিক্ততার মধ্যেই এবার আগুনে ঘি ঢাললেন ক্রেমলিনপন্থি রুশ সম্পাদক মার্গারিটা সিমোনিয়ান। রাশিয়া চাইলে মাত্র এক ঘণ্টায় যুক্তরাষ্ট্রকে ধ্বংস করে দিতে পারে বলে সম্প্রতি এক বিবৃতিতে দাবি করেন তিনি। যদিও এ মন্তব্য কবে করেছেন, তা এখনো স্পষ্ট নয়। তবে একে উসকানিমূলক দাবি করে এ বিষয়ে জানতে রুশ পররাষ্ট্র মন্ত্রণালয়কে চিঠি পাঠিয়েছে নিউজউইক। একইসঙ্গে রাশিয়ার রাষ্ট্রীয় টেলিভিশনগুলোতে যুক্তরাষ্ট্রের উদ্দেশে প্রায়ই উসকানিমূলক বিষয়বস্তু সম্প্রচার করা হচ্ছে। এমনকি এরমধ্য দিয়ে পারমাণবিক সংঘর্ষেরও ইঙ্গিত দেয়া হচ্ছে বলে প্রতিবেদনে উল্লেখ করা হয়। আরও পড়ুন: চীন-রাশিয়া আরও কাছে, দুশ্চিন্তায় পশ্চিমারা! এর আগে, ইউক্রেনের সঙ্গে যুদ্ধ শুরুর পর ২০২২ সালে রুশ রাজনীতিবিদ যুক্তরাষ্ট্রের পূর্ব ও পশ্চিম উপকূলগুলোকে নিশ্চিহ্ন করে দিতে মাত্র চারটি ক্ষেপণাস্ত্রের প্রয়োজন হবে বলে দাবি করেছিলেন। এছাড়া ইউক্রেন যুদ্ধ পারমাণবিক সংঘাতে গড়ালে, যুক্তরাষ্ট্র রুশ নিশানায় থাকবে বলেও মন্তব্য করা হয়। যদিও এ বিষয়ে এখনো মুখ খোলেনি বাইডেন প্রশাসন।






«
Next
Newer Post
»
Previous
Older Post

No comments:

Leave a Reply